বাইরে সহিংসতা হলে দায় নেবে না শাবির আন্দোলনকারীরা
jugantor
বাইরে সহিংসতা হলে দায় নেবে না শাবির আন্দোলনকারীরা

  সিলেট ব্যুরো  

২৩ জানুয়ারি ২০২২, ১৩:২৮:৫৮  |  অনলাইন সংস্করণ

শাবিতে আন্দোলন

ভিসি অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদের পদত্যাগ দাবিতে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে আমরণ অনশনে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের সঙ্গে ক্যাম্পাসের বাইরে যারা একাত্মতা পোষণ করেছেন, তাদের ধন্যবাদ জ্ঞাপন করা হয়।

তবে এই আন্দোলন কেন্দ্র করে কেউ যদি তাদের নিজেদের স্বার্থ হাসিলের জন্য ব্যবহার করতে চায় এবং সহিংসতায় জড়ায়, তবে তার দায়ভার কোনোভাবেই শাবিপ্রবির আন্দোলনরত সাধারণ শিক্ষার্থীরা নেবেন না।

রোববার গণমাধ্যমে প্রেরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে আন্দোলনকারীদের পক্ষ থেকে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত ১৪ জানুয়ারি থেকে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা তাদের যৌক্তিক দাবি আদায়ের লক্ষ্যে আন্দোলন শুরু করেন, যা এখনও চলমান। দেশের বিভিন্ন স্তরের মানুষ আমাদের এই যৌক্তিক দাবির সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করেছেন। সে জন্য তাদের আমরা অনেক ধন্যবাদ জানাই।

শিক্ষার্থীরা বলেন, আমাদের এ দাবি খুবই সাধারণ এবং এক দফা, আমাদের এই আন্দোলন কেন্দ্র করে কেউ যদি তাদের নিজেদের স্বার্থ হাসিলের জন্য ব্যবহার করতে চায় এবং সহিংসতায় জড়ায়, তবে তার দায়ভার কোনোভাবেই আন্দোলনরত সাধারণ শিক্ষার্থীরা নেবেন না।

আমরা আবারও বলতে চাই— এটি শুরু থেকে এখন পর্যন্ত শুধু শাবির সাধারণ শিক্ষার্থীদের আন্দোলন, যা সম্পূর্ণ অরাজনৈতিক ও অসহিংস।

বাইরে সহিংসতা হলে দায় নেবে না শাবির আন্দোলনকারীরা

 সিলেট ব্যুরো 
২৩ জানুয়ারি ২০২২, ০১:২৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
শাবিতে আন্দোলন
ফাইল ছবি

ভিসি অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদের পদত্যাগ দাবিতে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে আমরণ অনশনে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের সঙ্গে ক্যাম্পাসের বাইরে যারা একাত্মতা পোষণ করেছেন, তাদের ধন্যবাদ জ্ঞাপন করা হয়।

তবে এই আন্দোলন কেন্দ্র করে কেউ যদি তাদের নিজেদের স্বার্থ হাসিলের জন্য ব্যবহার করতে চায় এবং সহিংসতায় জড়ায়, তবে তার দায়ভার কোনোভাবেই শাবিপ্রবির আন্দোলনরত সাধারণ শিক্ষার্থীরা নেবেন না।

রোববার গণমাধ্যমে প্রেরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে আন্দোলনকারীদের পক্ষ থেকে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত ১৪ জানুয়ারি থেকে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা তাদের যৌক্তিক দাবি আদায়ের লক্ষ্যে আন্দোলন শুরু করেন, যা এখনও চলমান। দেশের বিভিন্ন স্তরের মানুষ আমাদের এই যৌক্তিক দাবির সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করেছেন। সে জন্য তাদের আমরা অনেক ধন্যবাদ জানাই।

শিক্ষার্থীরা বলেন, আমাদের এ দাবি খুবই সাধারণ এবং এক দফা, আমাদের এই আন্দোলন কেন্দ্র করে কেউ যদি তাদের নিজেদের স্বার্থ হাসিলের জন্য ব্যবহার করতে চায় এবং সহিংসতায় জড়ায়, তবে তার দায়ভার কোনোভাবেই আন্দোলনরত সাধারণ শিক্ষার্থীরা নেবেন না।

আমরা আবারও বলতে চাই— এটি শুরু থেকে এখন পর্যন্ত শুধু শাবির সাধারণ শিক্ষার্থীদের আন্দোলন, যা সম্পূর্ণ অরাজনৈতিক ও অসহিংস।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন