যশোর বোর্ডে বিপর্যয় এনেছে ইংরেজি

  যশোর ব্যুরো ১৯ জুলাই ২০১৮, ১৭:৩৬ | অনলাইন সংস্করণ

এইচএসসি শিক্ষার্থী
ছবি: যুগান্তর

যশোর বোর্ডে এইচএসসি পরীক্ষায় এবার পাসের হার কমেছে ১০ শতাংশ। সার্বিক ফলাফলে এবার বিপর্যয় ডেকে এনেছে ইংরেজি বিষয়। সবচেয়ে বেশিসংখ্যক পরীক্ষার্থী ফেল করেছে ইংরেজিতে।

এ বছর পাসের হার ৬০ দশমিক ৪০ শতাংশ, যা গত বছর ছিল ৭০ দশমিক ২ শতাংশ। এবার জিপিএ-৫ পেয়েছে ২ হাজার ৮৯ জন যা গত বছর ছিল ২ হাজার ৪৪৭ জন।

বৃহস্পতিবার দুপুরে প্রেসক্লাব যশোর মিলনায়তনে আনুষ্ঠানিকভাবে ফলাফল ঘোষণা করেন যশোর বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মাধব চন্দ্র রুদ্র।

প্রকাশিত ফলাফলে দেখা গেছে, ২০১৮ সালে ১ লাখ ৯ হাজার ৬৯২ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে উত্তীর্ণ হয়েছে ৬৬ হাজার ২৫৮ জন।

সবচেয়ে কম পাস করেছে মানবিক বিভাগের পরীক্ষার্থীরা। মানবিক বিভাগের পাসের হার ৫১ দশমিক ৮৬ শতাংশ। সবচেয়ে বেশি বিজ্ঞান বিভাগে ৮০ দশমিক ৯১ শতাংশ ও ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগে ৬৯ দশমিক ৩৯ শতাংশ পরীক্ষার্থী পাস করেছে।

পাসের হার নিম্নমুখী হওয়ার কারণ প্রসঙ্গে পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মাধব চন্দ্র রুদ্র বলেন, এবার প্রশ্নফাঁসরোধে সরকার কঠোর অবস্থানে ছিল। সবার সহযোগিতায় প্রশ্নফাঁস ছাড়াই পরীক্ষা হয়েছে।

ইংরেজির প্রশ্নপত্র কঠিন হয়েছিল। এজন্য মানবিক বিভাগের পরীক্ষার্থীদের অধিকাংশ ইংরেজিতে ফেল করেছে। মানবিক বিভাগের ফেলের প্রভাব পড়েছে সার্বিক ফলাফলে। এ জন্য পাসের হার কমেছে ১০ শতাংশ।

তবে জিপিএ ৫ প্রাপ্তির সংখ্য তুলনামূলক ভালো হয়েছে। কয়েক শ জিপিএ-৫ কমলেও সার্বিকভাবে এটির ভালো ফলাফল।

jugantor-event-এইচএসসি-২০১৮-71690--1

ঘটনাপ্রবাহ : এইচএসসি-২০১৮

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter