বেরোবিতে কোটা আন্দোলনকারীদের মিছিলে ছাত্রলীগের হামলা, আহত ৫

  বেরোবি প্রতিনিধি ২৫ জুলাই ২০১৮, ১৭:১০ | অনলাইন সংস্করণ

বেরোবিতে কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের মিছিলে ছাত্রলীগের হামলা।
বেরোবিতে কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের মিছিলে ছাত্রলীগের হামলা। ছবি: যুগান্তর

বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে (বেরোবি) কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের মিছিলে হামলা চালিয়েছে ছাত্রলীগ। আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের মধ্যে ৫ জন আহত হয়েছে। আহতদের দুজনকে রংপুরের বেসরকারি হাসপাতাল ভর্তি করা হয় বাকিদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

বুধবার সকাল সাড়ে ১১টায় কোটা আন্দোলনকারীদের কেন্দ্রীয় কমান্ড থেকে আসা পূর্বঘোষণা অনুসারে বিক্ষোভ মিছিল করে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা। এদিকে হামলার ঘটনায় ক্যাম্পাসে উত্তেজনা বিরাজ করছে।

আন্দোলনরত শিক্ষার্থী ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, সকাল সাড়ে ১১টায় কোটা সংস্কারের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল বের করে কোটা আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা। মিছিলটি শেখ রাসেল চত্বর হয়ে বিজয় সড়কে এলে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা পেছন থেকে ধাওয়া দেয় একপর্যায়ে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা চালায়। হামলায় ৫ শিক্ষার্থী গুরুতর আহত হয়। হামলার কারণে মিছিলটি ছত্রভঙ্গ হয়ে যায়।

আহতদের বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন শিক্ষার্থীরা। এদের মধ্যে ৩ জনের নাম জানা গেছে। তারা হলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস বিভাগের শিক্ষার্থী আলমগীর কবীর, যাওয়াদ আহমেদ ও রাশেদুল ইসলাম। এদিকে ঘটনার সময় পুলিশ না থাকায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন সাধারণ শিক্ষার্থীরা।

বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নোবেল শেখ যুগান্তরকে বলেন, ‘ক্যাম্পাসে বহিরাগত কিছু ছেলে ঢুকেছে শোনে আমরা বেশ কয়েকজন বিজয় সড়ক দিয়ে হেঁটে যাচ্ছিলাম। কোটাবিরোধীরা আমাদের দেখে দৌড়ে পালিয়ে যায়।’

লাঠিসোঁটা নিয়ে শিক্ষার্থীদের ওপর চড়াও হওয়ার ব্যাপারে প্রশ্ন করলে তিনি বিষয়টি এড়িয়ে যান। তিনি বলেন, আমার জানা মতে কেউ আহত হয়নি।

কোটা সংস্কার আন্দোলনের রংপুর বিভাগের আহ্বায়ক ওয়াদুদ সাদমান যুগান্তরকে বলেন, ‘আজকে যারা মিছিলে অংশ নিয়েছে তারা সবাই বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী। এভাবে শান্তিপূর্ণ মিছিলে হামলা করে আন্দোলন বন্ধ করা যাবে না।’

এদিকে শিক্ষার্থীরা অভিযোগ করেছে, ছাত্রলীগ মিছিলে হামলার করার সময় কয়েকজন পুলিশ রাসেল চত্বর ও বিশ্ববিদ্যালয়ের ফাঁড়িতে অবস্থান করলেও তারা কেউই এগিয়ে আসেনি।

ক্যাম্পাস পুলিশ ফাঁড়ির উপপরিদর্শক মমতাজুল ইসলাম বলেন, আন্দোলনকারীরা ক্যাম্পাসের বাইরে গিয়ে রাস্তা অবরোধ করতে না পারেন, সেই জন্য মেইন গেটের ওইখানে আমরা ছিলাম। কতজন আহত হয়েছেন তা জানা নেই।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর (চলতি দায়িত্ব) অধ্যাপক ড. আবু কালাম মো. ফরিদ-উল ইসলাম বলেন, হামলার বিষয়ে আমি কিছুই জানি না।

ঘটনাপ্রবাহ : কোটাবিরোধী আন্দোলন ২০১৮

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter