শেষ হল ১৫ ঘন্টার রুদ্ধশ্বাস উদ্ধার অভিযান

প্রকাশ : ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৫:৪০ | অনলাইন সংস্করণ

  যুগান্তর রিপোর্ট

অভিযানের সমাপ্তি ঘোষণা দিচ্ছেন মেয়র সাঈদ খোকন। ছবি : সংগৃহীত

পুরান ঢাকার চকবাজারে ভবনে ভয়াবহ আগুন লাগার ১৫ ঘণ্টা পর আগুন নিভিয়ে শ্বাসরুদ্ধকর উদ্ধার অভিযানের সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়েছে।

 

বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টা ২২ মিনিটে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন ও ফায়ার সার্ভিসের উদ্ধার অভিযান তদারকি দলের প্রধান মেজর শাকিল নওয়াজ আনুষ্ঠানিকভাবে অভিযানের সমাপ্তি ঘোষণা করেন।

 

এর আগে সকালে আগুন নেভানোর পর তল্লাশি চালিয়ে ৭০ লাশ উদ্ধারের কথা জানায় ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স। লাশগুলো ব্যাগে পুরে  তারা পাঠায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ মর্গে।

 

শাকিল নওয়াজের বরাত দিয়ে ফায়ার সার্ভিস সদর দফতরের ডিউটি অফিসার মিজানুর রহমান বৃহস্পতিবার দুপুরে টেলিফোনে যুগান্তরকে জানান, এখন পর্যন্ত ৭০ জনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। আহত ৪১ জনকে উদ্ধার করে বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদের মধ্যে অনেকেই গুরুতর।

 

উদ্ধার অভিযান সমাপ্ত ঘোষণা করা হয়েছে জানিয়ে মিজানুর রহমান বলেন, দুপুর ১২টা ২২ মিনিটে ১৫ ঘণ্টার উদ্ধার অভিযান শেষ হয়েছে। নিহতের সংখ্যা বাড়তে পারে। কারণ যাদের দগ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে, তাদের মধ্যে অনেকের অবস্থাই গুরুতর। তাদের অনেকের শরীরের অনেকটাই পুড়ে গেছে। আহত ৪১ জনের মধ্যে ৩২ জন ঢাকা মেডিকেলসহ বিভিন্ন হাসপাতাল থেকে প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন। বাকি ৯ জন ঢামেকের বার্ন ইউনিটে ভর্তি। তাদের অবস্থাও সংকটাপন্ন।

   

অগ্নিকাণ্ডস্থল থেকে ৬৭ জনের লাশ ঢাকা মেডিকেল মর্গে রাখার কথা জানিয়েছে মেডিকেল কর্তৃপক্ষ। ময়নাতদন্তের পর শনাক্তকরণের ভিত্তিতে লাশগুলো তাদের স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হবে বলে জানিয়েছেন ঢামেক ফরেনসিক মেডিসিন বিভাগের প্রধান অধ্যাপক সোহেল মাহমুদ।

 

অভিযানের সমাপ্তি ঘোষণার সময় মেয়র সাঈদ খোকন বলেন, রাসায়নিকের গুদামগুলো সরাতে তারা এখন জোর পদক্ষেপ নেবেন।

 

তার আগে সকালে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে নিয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও সড়ক পরিবহনমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, এ ঘটনায় ‘শিক্ষা’ হয়েছে, এখন ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহেদ মালেক জানিয়েছেন, এ ঘটনায় আহতদের চিকিৎসার ব্যবস্থা নিতে সব হাসপাতালকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। চিকিৎসা ব্যয়বহন করবে সরকার।

 

এ ঘটনায় দুটি তদন্ত কমিটি করা হয়েছে। কমিটিকে সাত কর্মদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছে।

 

পুরান ঢাকার ওই সংকীর্ণ সড়কে ভবনগুলোর ছোট ছোট কক্ষে আগুন জ্বলতে থাকায় তো নেভাতে বেগ পেতে হচ্ছিল বলে জানান অগ্নিনির্বাপক বাহিনীর মহাপরিচালক আলী আহাম্মেদ খান।

 

ভোররাতে একবার আগুন অনেকটা নিয়ন্ত্রণে আনার পরও আবার তা ছড়িয়ে পড়েছিল। সকাল ৯টার দিকে আগুন আয়ত্তে আনার কথা জানান শাকিল নেওয়াজ।

 

তখন ভবনের ভেতরে ঢুকে একের পর এক লাশ বের করে আনছিলেন ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা; সেখানে একটি তথ্যকেন্দ্র খুলে বোর্ডে সর্বশেষ তথ্যও জানিয়ে দেয়া হচ্ছিল।

 

দুপুর ১২টার দিকে আগুন পুরোপুরি নিভেছে বলে ঘোষণা আসে ফায়ার সার্ভিসের তরফ থেকে। তার আধা ঘণ্টা পর উদ্ধার অভিযানের সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়।

 

প্রসঙ্গত রাজধানীর চকবাজার এলাকার নন্দকুমার দত্ত সড়কের চুড়িহাট্টা শাহী মসজিদের পেছনের একটি ভবনে বুধবার রাত ১০টা ১০ মিনিটে আগুন লাগে। রাত সাড়ে ৩টার দিকে আগুনের ভয়াবহতা কিছুটা কমলেও আবারও বেড়ে যায়। ফায়ার সার্ভিসের ৩৭টি ইউনিট একযোগে কাজ করে বুধবার দিবাগত রাত সোয়া ৩টায় আগুন কিছুটা নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয়।