ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কোনোদিনও প্রাচ্যের অক্সফোর্ড ছিল না: জবি ভিসি

  যুগান্তর রিপোর্ট ০৭ জুলাই ২০১৯, ২১:৫৬ | অনলাইন সংস্করণ

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কোনোদিনও প্রাচ্যের অক্সফোর্ড ছিল না: জবি ভিসি
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কোনোদিনও প্রাচ্যের অক্সফোর্ড ছিল না: জবি ভিসি। ফাইল ছবি

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মিজানুর রহমান বলেছেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়কে প্রাচ্যের অক্সফোর্ড বলা হয়। এটা কোনোদিনও প্রাচ্যের অক্সফোর্ড ছিল না। এটা একটা বদনাম দিয়ে গেছে। যখন এটাকে প্রাচ্যের অক্সফোর্ড বলা হয় তখন এ বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র সংখ্যা ছিল ৫-৬ হাজার। আর শিক্ষক ছিল ৬৫-৬৬ জন।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ আয়োজিত শুক্রবার টিএসসিতে এক সেমিনারে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মিজানুর রহমান এসব কথা বলেন।

জবি উপাচার্য বলেন, এটা কোনোদিন প্রাচ্যের অক্সফোর্ড ছিল না। এটা হলো আমার প্রথম আবিষ্কার। আস্তে আস্তে আমরা অক্সফোর্ড হওয়ার চেষ্টা করছি।

ওই সময় বিজ্ঞান গবেষণাগার এটা সেটা কিছুই ছিল না উল্লেখ করে ড. মিজানুর রহমান বলেন, এরপরেও এটাকে প্রাচ্যের অক্সফোর্ড বলে চলে গেছে।

তিনি বলেন, আমি যখন প্রথম অক্সফোর্ডে যাই তখন আমি দেখার চেষ্টা করি কেনো আমাদের এ বিশ্ববিদ্যালয়কে প্রাচ্যের অক্সফোর্ড বলা হতো। আমি দেখলাম একমাত্র গাজীহুল উম্মুল স্কুলের সঙ্গে আমাদের অক্সফোর্ডের মিল আছে। কারণ অক্সফোর্টের বয়স তখন প্রায় ৬শ বছর। হঠাৎ করে এগুলো আমরা বলে ফেলি আসলে এগুলো আমরা ঠিক করি না।

শিক্ষার মান কমে যাচ্ছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, আমাদের আলু উৎপাদন বেড়ে গেছে। শাকসবজি উৎপাদন বেড়েছে, বিশ্বে আমরা ৮ম অবস্থানে রয়েছি।আমাদের সবকিছুতে উন্নতি। তবে লেখাপড়ার বিষয়ে তেমন নেই।

তিনি বলেন, পূর্ব পাকিস্তান থাকার সময় আমাদের গড় আয়ু ছিল ২৭ বছর আর এখন আমাদের গড় আয়ু বেড়ে ৭৪ বছর হয়েছে। শুধু শিক্ষা নিচের দিকে নেমে যাচ্ছে। যদি এভাবে যায় এক সময় মাটির নিচে দেবে যাবে।

ভিডিওর ১ ঘণ্টা ১৩ মিনিট থেকে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মিজানুর রহমানের বক্তব্য শুরু

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×