কর দেন মিষ্টি খান, নইলে জরিমানা খেতে হবে: মেয়র আতিক
jugantor
কর দেন মিষ্টি খান, নইলে জরিমানা খেতে হবে: মেয়র আতিক

  যুগান্তর রিপোর্ট  

১৫ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৫:৩৮:৩৮  |  অনলাইন সংস্করণ

কর দেন মিষ্টি খান, নইলে জরিমানা খেতে হবে: মেয়র আতিক

নগরবাসীকে নিয়মিত কর দেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম। নগরবাসীর উদ্দেশে তিনি বলেছেন, নিয়মিত কর পরিশোধ করেন, আমি আপনাদের মিষ্টি খাওয়াব। আর যদি কর না দেন, তা হলে জরিমানা খেতে হবে।

মঙ্গলবার সকালে গুলশানে সিটি কর্পোরেশনের অনুমোদনহীন বিলবোর্ড-সাইনবোর্ড উচ্ছেদ অভিযানে গিয়ে এ কথা বলেন মেয়র।

তিনি বলেন, এই শহরকে আমরা পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন করতে চাই। আমার দায়িত্ব, ঢাকা শহরকে পরিষ্কার রাখা। জনগণ এ জন্যই আমাকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করেছেন।

ব্যবসায়ীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, অনেকে নিজের স্বার্থে, সবার স্বার্থকে জলাঞ্জলি দিচ্ছেন। অনেকে প্রজেক্ট সাইন, ব্যানার, সাইনবোর্ড ইত্যাদি দিয়ে লিখে ব্যবসা করছেন। ব্যবসা করেন, ভালো কথা; কিন্তু সেটিরও ট্যাক্স দিতে হবে।

সকালে ডিএনসিসির নগরভবনের সামনে থেকে অনুমোদনহীন বিলবোর্ড, সাইনবোর্ড উচ্ছেদে অভিযান শুরু করা হয়। এ সময় গুলশান-২ চত্বরসংলগ্ন বেশ কয়েকটি ভবনের বিভিন্ন বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠানের অনুমোদনহীন সাইনবোর্ড, লাইট বোর্ড প্রভৃতি উচ্ছেদ করা হয়।

অভিযানে ডিএনসিসির প্রধান নির্বাহী সেলিম রেজা, প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা আবদুল হামিদ মিয়াসহ অন্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

কর দেন মিষ্টি খান, নইলে জরিমানা খেতে হবে: মেয়র আতিক

 যুগান্তর রিপোর্ট 
১৫ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৩:৩৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
কর দেন মিষ্টি খান, নইলে জরিমানা খেতে হবে: মেয়র আতিক
ফাইল ছবি

নগরবাসীকে নিয়মিত কর দেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম। নগরবাসীর উদ্দেশে তিনি বলেছেন, নিয়মিত কর পরিশোধ করেন, আমি আপনাদের মিষ্টি খাওয়াব। আর যদি কর না দেন, তা হলে জরিমানা খেতে হবে।

মঙ্গলবার সকালে গুলশানে সিটি কর্পোরেশনের অনুমোদনহীন বিলবোর্ড-সাইনবোর্ড উচ্ছেদ অভিযানে গিয়ে এ কথা বলেন মেয়র।

তিনি বলেন, এই শহরকে আমরা পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন করতে চাই। আমার দায়িত্ব, ঢাকা শহরকে পরিষ্কার রাখা। জনগণ এ জন্যই আমাকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করেছেন। 

ব্যবসায়ীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, অনেকে নিজের স্বার্থে, সবার স্বার্থকে জলাঞ্জলি দিচ্ছেন। অনেকে প্রজেক্ট সাইন, ব্যানার, সাইনবোর্ড ইত্যাদি দিয়ে লিখে ব্যবসা করছেন। ব্যবসা করেন, ভালো কথা; কিন্তু সেটিরও ট্যাক্স দিতে হবে।

সকালে ডিএনসিসির নগরভবনের সামনে থেকে অনুমোদনহীন বিলবোর্ড, সাইনবোর্ড উচ্ছেদে অভিযান শুরু করা হয়। এ সময় গুলশান-২ চত্বরসংলগ্ন বেশ কয়েকটি ভবনের বিভিন্ন বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠানের অনুমোদনহীন সাইনবোর্ড, লাইট বোর্ড প্রভৃতি উচ্ছেদ করা হয়। 

অভিযানে ডিএনসিসির প্রধান নির্বাহী সেলিম রেজা, প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা আবদুল হামিদ মিয়াসহ অন্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।