ভারি বর্ষণে দুর্ভোগে অফিসগামীরা
jugantor
ভারি বর্ষণে দুর্ভোগে অফিসগামীরা

  যুগান্তর প্রতিবেদন  

২২ জুন ২০২১, ১১:৫৪:৪৯  |  অনলাইন সংস্করণ

ভারি বর্ষণে দুর্ভোগে অফিসগামীরা

আষাঢ়ে বৃষ্টি চলছে। প্রকৃতি গোমট রূপ ধারণ করেছে। আকাশের কালো মেঘ বৃষ্টি হয়ে ঝরছে। সকাল থেকে অঝোরে বারিধারা বইছে দেশের বিভিন্ন স্থানে। ঢাকায়ও ভারি বর্ষণ হচ্ছে, তাও আবার অফিস সময়ে। এতে দুর্ভোগে পড়েছেন অফিসগামী লোকজন।

মঙ্গলবার ভোর থেকে শুরু হওয়া এই বৃষ্টি থেমে থেমে হচ্ছিল সকাল ৯টার পরও। এতে সড়কে যানজট সৃষ্টি হয়। আবার অনেকে ঘণ্টাব্যাপী দাঁড়িয়ে থেকেও যানবাহন পাননি। দুর্ভোগ চরমে পৌঁছায় অফিসগামীদের।

সরেজমিন রাজধানীর আবদুল্লাহপুর বাসস্ট্যান্ডে দেখা গেছে বাসের সংকট। অনেকক্ষণ পর পর গাড়ি এলেও তাতে ওঠার জো নেই, প্রচণ্ড ভিড়। এদিকে মুষলধারে বৃষ্টি বইছে।

যারা বাসে উঠতে পেরেছেন সিট পাননি, স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার তো বালাই নেই।

দীর্ঘক্ষণ দাঁড়িয়ে থেকে গাড়ি না পেয়ে অনেকে হেঁটেই অফিসের দিকে ছুটেছেন। বৃষ্টিভেজা শরীরে অনেককে হাঁটতে দেখা গেছে।

পরিবহন স্বল্পতার পাশাপাশি সৃষ্টি হয় যানজটেরও। এয়ারপোর্ট-বনানী রুটে দীর্ঘ যানজট ছিল।

সুযোগ বুঝে বেশি ভাড়া নেয় সিএনজি অটোরিকশা ও রিকশাগুলো। কোথাও কোথাও ভ্যানে করে পার হতে হয় জলাবদ্ধ সড়ক।

এদিকে সন্ধ্যা ৬টায় পর্যন্ত দেওয়া আবহাওয়ার ২৪ ঘণ্টার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে— রংপুর, রাজশাহী, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম, ঢাকা, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

সেই সঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও বিক্ষিপ্তভাবে মাঝারি ধরনের ভারি বর্ষণ হতে পারে।

ভারি বর্ষণে দুর্ভোগে অফিসগামীরা

 যুগান্তর প্রতিবেদন 
২২ জুন ২০২১, ১১:৫৪ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ভারি বর্ষণে দুর্ভোগে অফিসগামীরা
ছবি: সংগৃহীত

আষাঢ়ে বৃষ্টি চলছে। প্রকৃতি গোমট রূপ ধারণ করেছে। আকাশের কালো মেঘ বৃষ্টি হয়ে ঝরছে। সকাল থেকে অঝোরে বারিধারা বইছে দেশের বিভিন্ন স্থানে।  ঢাকায়ও ভারি  বর্ষণ হচ্ছে, তাও আবার অফিস সময়ে। এতে দুর্ভোগে পড়েছেন অফিসগামী লোকজন।  

মঙ্গলবার ভোর থেকে শুরু হওয়া এই বৃষ্টি থেমে থেমে হচ্ছিল সকাল ৯টার পরও।  এতে সড়কে যানজট সৃষ্টি হয়। আবার অনেকে ঘণ্টাব্যাপী দাঁড়িয়ে থেকেও যানবাহন পাননি। দুর্ভোগ চরমে পৌঁছায় অফিসগামীদের।  

সরেজমিন রাজধানীর আবদুল্লাহপুর বাসস্ট্যান্ডে দেখা গেছে বাসের সংকট।  অনেকক্ষণ পর পর গাড়ি এলেও তাতে ওঠার জো নেই, প্রচণ্ড ভিড়।  এদিকে মুষলধারে বৃষ্টি বইছে। 

যারা বাসে উঠতে পেরেছেন সিট পাননি, স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার তো বালাই নেই।

দীর্ঘক্ষণ দাঁড়িয়ে থেকে গাড়ি না পেয়ে অনেকে হেঁটেই অফিসের দিকে ছুটেছেন।  বৃষ্টিভেজা শরীরে অনেককে হাঁটতে দেখা গেছে।

পরিবহন স্বল্পতার পাশাপাশি  সৃষ্টি হয় যানজটেরও।  এয়ারপোর্ট-বনানী রুটে দীর্ঘ যানজট ছিল।  

সুযোগ বুঝে বেশি ভাড়া নেয় সিএনজি অটোরিকশা ও রিকশাগুলো।  কোথাও কোথাও ভ্যানে করে পার হতে হয় জলাবদ্ধ সড়ক।

এদিকে সন্ধ্যা ৬টায় পর্যন্ত দেওয়া আবহাওয়ার ২৪ ঘণ্টার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে— রংপুর, রাজশাহী, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম, ঢাকা, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

সেই সঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও বিক্ষিপ্তভাবে মাঝারি ধরনের ভারি বর্ষণ হতে পারে।
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন