বাসে হেলপারের যৌন হয়রানিতে মাঝপথেই নামতে হয় ঢাবি ছাত্রীকে!

  যুগান্তর রিপোর্ট ২১ মে ২০১৮, ০২:১৫ | অনলাইন সংস্করণ

ট্রাস্ট পরিবহন
ট্রাস্ট পরিবহন। ছবি: সংগৃহীত

রাজধানীতে গণপরিবহন বাসে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ অভিযোগে ‘ট্রাস্ট পরিবহন’ কোম্পানির চারটি বাস আটক করেছে শিক্ষার্থীরা। রোববার দুপুরে শাহবাগ থেকে বাসগুলো আটক করে শাহবাগ থানায় রাখা হয়েছে।

জানা যায়, গত বৃহস্পতিবার ফিন্যান্স বিভাগের স্নাতকোত্তর শ্রেণির এক ছাত্রী ট্রাস্ট পরিবহনের বাসে চড়ে শাহবাগ থেকে মিরপুর যাওয়ার পথে চালকের সহকারী তার গায়ে হাত দেন। এ নিয়ে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে তিনি কারওয়ান বাজারে নেমে যেতে বাধ্য হন।

ফেসবুকে গণপরিবহনে নিরাপত্তা, ধর্ষণ ও ইভটিজিং বিরোধী একটি গ্রুপে ওই ছাত্রী বিষয়টি জানানোর পর ঢাবির ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদের শিক্ষার্থীরা মিলে বাসগুলো আটক করে। শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, ট্রাস্ট পরিবহনের চালকের সহকারী (হেলপার) শাহাবুদ্দিন এক ছাত্রীকে যৌন হয়রানি করেছেন।

থানায় একটি বাস রেখে বাকি ৩টি বাস বিশ্ববিদ্যালয়ের মল চত্বরে নিয়ে যাওয়া হয়। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে লিখিত অভিযোগ করেন শিক্ষার্থীরা। পরে পরিবহনের পক্ষ থেকে দুজন কর্মকর্তা আসেন। কিন্তু অভিযুক্ত ব্যক্তিকে পুলিশের হাতে তুলে না দেয়া পর্যন্ত শিক্ষার্থীরা বাস ছাড়তে রাজি হননি। পরে অন্য বাসগুলোও শাহবাগ থানায় নিয়ে যাওয়া হয়।

শাহবাগ থানার ওসি আবুল হাসান বাস আটকের বিষয়টি স্বীকার করেছেন।

ঢাবির প্রক্টর অধ্যাপক এ কে এম গোলাম রব্বানী জানান, অফিশিয়ালি বিষয়টি দেখা হচ্ছে। বাস আটক কোনো সমাধান নয় বলে জানান তিনি।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×