পূর্বশত্রুতার জেরে ইবিএলের নিরাপত্তাকর্মীকে হত্যা: র‌্যাব

  যুগান্তর রিপোর্ট ২৩ মে ২০১৮, ১৬:৩৬ | অনলাইন সংস্করণ

শেখ তাহিদুল ইসলাম
ছবি: সংগৃহীত

রাজধানীর সেনানিবাস এলাকায় ইস্টার্ন ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেডের বুথের নিরাপত্তাকর্মী শেখ তাহিদুল ইসলাম নুর নবীকে পূর্বশত্রুতার জেরে খুন করা হয়েছে বলে জানিয়েছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)।

বুধবার দুপুরে রাজধানীর কারওয়ান বাজারের র‌্যাবের মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানানো হয়।

র‌্যাবের কোম্পানি কমান্ডার মেজর মনজুর মেহেদী ইসলাম জানান, আসামি শেখ রাসেল নয়ন নিরাপত্তাকর্মী নুর নবীর পূর্বপরিচিত ছিল। গত বছরের জুলাই মাসে বাগেরহাট পিসি কলেজের পার্শ্ববর্তী নদীতে নৌকাবাইচ দেখতে গেলে সামান্য বিষয় নিয়ে সে সময় নুর নবী ও তার লোকজন নয়নকে মারধর করে। পরে ঢাকায় এসে নয়ন একটি কোম্পানিতে প্রথমে সিকিউরিটি গার্ড হিসেবে পরে আরেকটি কোম্পানিতে মার্কেটিং বিভাগে কাজ নেয়।

গত ২০ মে রাত সাড়ে ৩টার দিকে ওই কোম্পানির হয়ে চাকরির বিজ্ঞপ্তির পোস্টার লাগাতে আসে। এ সময় ইবিএলের বুথে নুর নবীকে দেখতে পায় এবং তার সঙ্গে কথাবার্তা বলার একপর্যায়ে পুরনো ঘটনাটি মনে করে দেয় নয়ন।

তাদের কথাবার্তার মধ্যে রাসেল নামের আরেকজন নিরাপত্তাকর্মী নুর নবীকে সাহরির খাবার দিতে আসে। তবে সেও নয়নকে আগে থেকে চিনত। ফলে তাদের কথাবার্তা নিয়ে কোনো সন্দেহ করেনি রাসেল।

র‌্যাব জানায়, কথাকাটাকাটির একপর্যায়ে বুথ ঘরের পাশে স্টোররুম থেকে একটি ছুরি এনে নয়ন নুর নবীর গলায় উপর্যুপরি আঘাত করলে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। পরে নয়ন তার বাড্ডার বাসায় এসে পোশাক বদলে গাবতলী হয়ে খুলনায় চলে যায়।

মঙ্গলবার র‌্যাবের বিশেষ একটি দল খুলনার সোনাডাঙ্গা বাসস্ট্যান্ড এলাকা থেকে নয়নকে গ্রেফতার করে। তার বিরুদ্ধে আইনি প্রক্রিয়া অব্যাহত রয়েছে বলে সংবাদ সম্মেলনে জানান ওই কর্মকর্তা।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×