‘আমার গ্রাম-আমার শহর’ প্রকল্পের অগ্রগতি পর্যালোচনা সভা
jugantor
‘আমার গ্রাম-আমার শহর’ প্রকল্পের অগ্রগতি পর্যালোচনা সভা

  সংবাদ বিজ্ঞপ্তি  

০২ ডিসেম্বর ২০২১, ১৬:২৯:৪২  |  অনলাইন সংস্করণ

বুধবার ১ ডিসেম্বর এলজিইডি সদর দপ্তরে প্রকৌশলী কামরুল ইসলাম সিদ্দিক মিলনায়তনে ‘আমার গ্রাম-আমার শহর’ কারিগরী সহায়তা প্রকল্পের সমীক্ষা সম্পাদনের লক্ষ্যে চুক্তি স্বাক্ষক, প্রারম্ভিক প্রতিবেদন উপস্থাপন ও প্রকল্পের সার্বিক অগ্রগতি পর্যালোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় সভাপতিত্ব করেন এলজিইডির প্রধান প্রকৌশলী মোঃ আব্দুর রশীদ খান। সভাপতির বক্তব্যে তিনি বলেন, ‘আমার গ্রাম-আমার শহর’ একটি জাতীয় পর্যায়ের প্রকল্প এবং সরকারের নির্বাচনী ইশতেহারের প্রকল্প হিসেবে এলজিইডি যথাযথভাবে প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করতে বদ্ধপরিকর। যদিও অল্প সময় তবুও এই সময়ের মধ্যে প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করতে হবে।

সভায় প্রকল্পটির উপদেষ্টা স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের সাবেক অতিরিক্ত সচিব ড. কাজী আনোয়ারুল হক এবং প্রকল্প পরিচালক আবুল মনজুর মোঃ সাদেক প্রকল্প নিয়ে বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর প্রদান করেন।

তারা বলেন, প্রকল্পটি সঠিকভাবে বাস্তবায়ন করতে পারলে দেশের অবহেলিত গ্রামের জনসাধারণ উপকৃত হবে। গ্রামে শহরের সুযোগ-সুবিধা পৌঁছে দেওয়া যাবে। সভায় স্থপতি ইকবাল হাবিব প্রকল্পের বিভিন্ন ইতিবাচক দিক তুলে ধরেন। তিনি গ্রামে শিশু, নারী শিশু, প্রবীন - বিশেষ করে প্রতিবন্ধী মানুষের সুযোগ রেখে দেশীয় ঐতিহ্যে প্রতিটি গ্রামে মনোরম পরিবেশ গড়ে তোলার ওপর গুরুত্ব প্রদান করেন।

স্বাগত বক্তব্য রাখেন ‘আমার গ্রাম-আমার শহর’ প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক আবুল মনজুর মোঃ সাদেক।

তিনি প্রকল্পের ইতিবাচক বিষয় নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেন। প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হলে দেশের অবহেলিত গ্রামের চিত্র পাল্টে যাবে। উক্ত পর্যালোচনা সভায় এলজিইডি সদর দপ্তরের সকল অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী, বিভিন্ন প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক, এলজিইডি সদর দপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশলীবৃন্দসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান ও মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।

‘আমার গ্রাম-আমার শহর’ প্রকল্পের অগ্রগতি পর্যালোচনা সভা

 সংবাদ বিজ্ঞপ্তি 
০২ ডিসেম্বর ২০২১, ০৪:২৯ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

বুধবার ১ ডিসেম্বর এলজিইডি সদর দপ্তরে প্রকৌশলী কামরুল ইসলাম সিদ্দিক মিলনায়তনে ‘আমার গ্রাম-আমার শহর’ কারিগরী সহায়তা প্রকল্পের সমীক্ষা সম্পাদনের লক্ষ্যে চুক্তি স্বাক্ষক, প্রারম্ভিক প্রতিবেদন উপস্থাপন ও প্রকল্পের সার্বিক অগ্রগতি পর্যালোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। 

সভায় সভাপতিত্ব করেন এলজিইডির প্রধান প্রকৌশলী মোঃ আব্দুর রশীদ খান। সভাপতির বক্তব্যে তিনি বলেন, ‘আমার গ্রাম-আমার শহর’ একটি জাতীয় পর্যায়ের প্রকল্প এবং সরকারের নির্বাচনী ইশতেহারের প্রকল্প হিসেবে এলজিইডি যথাযথভাবে প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করতে বদ্ধপরিকর। যদিও অল্প সময় তবুও এই সময়ের মধ্যে প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করতে হবে। 

সভায় প্রকল্পটির উপদেষ্টা স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের সাবেক অতিরিক্ত সচিব ড. কাজী আনোয়ারুল হক  এবং প্রকল্প পরিচালক আবুল মনজুর মোঃ সাদেক প্রকল্প নিয়ে বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর প্রদান করেন।  

তারা বলেন, প্রকল্পটি সঠিকভাবে বাস্তবায়ন করতে পারলে দেশের অবহেলিত গ্রামের জনসাধারণ উপকৃত হবে। গ্রামে শহরের সুযোগ-সুবিধা পৌঁছে দেওয়া যাবে। সভায় স্থপতি ইকবাল হাবিব প্রকল্পের বিভিন্ন ইতিবাচক দিক তুলে ধরেন। তিনি গ্রামে শিশু, নারী শিশু, প্রবীন - বিশেষ করে প্রতিবন্ধী মানুষের সুযোগ রেখে দেশীয় ঐতিহ্যে প্রতিটি গ্রামে মনোরম পরিবেশ গড়ে তোলার ওপর গুরুত্ব প্রদান করেন।

স্বাগত বক্তব্য রাখেন ‘আমার গ্রাম-আমার শহর’ প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক আবুল মনজুর মোঃ সাদেক। 

তিনি প্রকল্পের ইতিবাচক বিষয় নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেন। প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হলে দেশের অবহেলিত গ্রামের চিত্র পাল্টে যাবে। উক্ত পর্যালোচনা সভায় এলজিইডি সদর দপ্তরের সকল অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী, বিভিন্ন প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক, এলজিইডি সদর দপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশলীবৃন্দসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান ও মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন। 
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন