শাপলা চত্বরের ইতিহাস মানুষ চিরকাল স্মরণ রাখবে: জুনায়েদ বাবুনগরী

  হাটহাজারী (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি ০৮ নভেম্বর ২০১৮, ২৩:৩৮ | অনলাইন সংস্করণ

শাপলা চত্বরের ইতিহাস মানুষ চিরকাল স্মরণ রাখবে: জুনায়েদ বাবুনগরী

হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের মহাসচিব ও হাটহাজারী মাদরাসার সহযোগী পরিচালক আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরী বলেছেন, তাওহীদের দাওয়াত দিতে গিয়ে নবী রাসুলগণ অনেক জুলুম-নির্যাতন সহ্য করেছেন৷

হযরত ইব্রাহীম আলাইহি ওয়াসাল্লাম আগুনের রিমান্ডে গিয়েছেন, এরপরও তাওহীদের ব্যপারে কোন আপোষ করেননি৷ নবী রাসুলগণের উত্তরসূরী উলামায়ে কেরামও তাওহীদের ব্যাপারে কোন আপোষ করতে পারে না৷

বৃহস্পতিবার রাতে হেফাজতের সাবেক নায়েবে আমির আল্লামা মুহিব্বুল্লাহ বাবুনগরীর সভাপতিত্বে হাটহাজারী পার্বতী মডেল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় ময়দানে আল-আমিন ফাউন্ডেশন আয়োজিত দুই দিনব্যপী ঐতিহাসিক তাফসীরুল কুরআনে মাহফিলের প্রথম দিনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ সব কথা বলেন তিনি।

আল্লামা বাবুনগরী বলেন, শাপলার ইতিহাস রক্তঝরা এক ইতিহাস। ওই দিনের ট্রাজেডি অত্যন্ত মর্মান্তিক, ও বেদনাদায়ক৷ সেদিন শাপলা চত্বরের ইতিহাস এদেশের মানুষ চিরকাল শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ রাখবে। সেদিন আমি স্বচক্ষে শহীদের রক্তমাখা লাশ দেখেছি৷ এই শান্তিপ্রিয় হাটহাজারীতেও ছয়জন নবীপ্রেমিক শহীদ হয়েছিল৷

তিনি আরো বলেন, শাহবাগে নাস্তিক মুরতাদরা যখন বিশ্বনবীর শানে কটুক্তি করেছিল তখন কেবলমাত্র নবীর (সা.) সম্মান রক্ষার জন্য আমরা লাখো মুমিন শাপলা চত্বরে উপস্থিত হয়েছিলাম৷ ক্ষমতা দখল কিংবা দুনিয়ার কোন স্বার্থ হাসিলের জন্য আমরা সেদিন শাপলা চত্বরে যাইনি৷

অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন মুফতী ওলী উল্লাহ, মুফতী সাখাওয়াত হুসাইন, মাওলানা গাজী ইয়াকুব ওসমানী, মুফতী সিরাজুল্লাহ, মাওলানা আব্দুল করীম, মুফতী আবু সাঈদ প্রমুখ৷

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter