বগুড়ায় মুখে বিষ ঢেলে শিশুসন্তানকে হত্যার পর মায়ের আত্মহত্যা

  বগুড়া ব্যুরো ১৫ নভেম্বর ২০১৮, ২১:৫৩ | অনলাইন সংস্করণ

বিষপান
বিষ (প্রতীকী ছবি)

বগুড়ার শেরপুরে বিষ খাইয়ে এক বছর বয়সী ছেলে শামীম হোসেনকে হত্যার পর মা শান্তা ইসলাম (২০) আত্মহত্যা করেছেন।

বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার বাগড়া কলোনী এলাকার বাড়িতে বিষপান করার পর বিকালে তারা বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে মারা গেছেন।

শেরপুর থানার ওসি হুমায়ুন কবির জানান, শেরপুর উপজেলার বাগড়া কলোনী এলাকার মামুন মণ্ডল প্রায় ৩ বছর আগে পার্শ্ববর্তী বড়ইতলি গ্রামের সানাউল্লাহর মেয়ে শান্তাকে বিয়ে করেন। দাম্পত্যজীবনে শামীম নামে তাদের এক বছর বয়সী ছেলে রয়েছে।

মুরগি ফার্মের কর্মচারী মামুন ও তার মা কারণে-অকারণে শান্তাকে নির্যাতন করতেন। দুদিন আগে তারা দুজন শান্তাকে মারপিট করেন। এ ঘটনায় ক্ষোভে ও দুঃখে শান্তা বৃহস্পতিবার বেলা ২টার দিকে শিশু শামীমকে বিষপান করায় এরপর তিনি নিজে বিষপান করেন। বাড়ির লোকজন টের পেয়ে তাদের শেরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে বিকাল সাড়ে ৩টায় মুমূর্ষু মা ও ছেলেকে বগুড়া শজিমেক হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

বগুড়া মেডিকেল ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই আবদুল আজিজ মণ্ডল জানান, ভর্তির ১৫ মিনিট পর মা ও ছেলের মৃত্যু হয়েছে। দাম্পত্য কলহে গৃহবধূ শান্তা সন্তানকে বিষ খাওয়ানোর পর নিজে খান। এ ব্যাপারে সদর থানায় ইউডি মামলা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার রাত ৮টায় এ খবর পাঠানোর সময় শান্তার বাবা সানাউল্লাহ শেরপুর থানায় তার মেয়েকে সন্তানসহ আত্মহত্যার প্ররোচনার অভিযোগে জামাই ও বিয়ানের বিরুদ্ধে মামলা করছিলেন।

ওসি আরও জানান, মামলার পর জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×