সিলেট সীমান্তে গুলিতে কিশোর নিহত, ৩ বিজিবি আহত

প্রকাশ : ২১ জানুয়ারি ২০১৯, ২৩:৩৬ | অনলাইন সংস্করণ

  সিলেট ব্যুরো

সিলেটে বিজিবির গুলিতে নিহত কিশোর ও আহত বিজিবি সদস্যরা।ছবি-যুগান্তর

সিলেটের কানাইঘাট সীমান্তে চোরকারবারীদের ধাওয়া করার সময় বাংলাদেশ সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিজিবি’র গুলিতে সিরাজ (১৩) নামে এক কিশোর নিহত হয়েছেন। এ সময় চোরাকারবারীদের পাল্টা হামলায় বিজিবি’র তিন সদস্য আহত হন।

সোমবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে কানাইঘাটের সুরাইঘাট সীমান্তের সনাতন পুঞ্জি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

বিজিবি ১৯ ব্যাটালিয়ানের ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক মেজর মো. মেজবাহ উদ্দিন রাসেল জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বিজিবির একটি টহল দল সোনারতল সীমান্তে ৪ কার্টুন ভারতীয় সিগারেট জব্দ করে। একপর্যায়ে চোরাকারবারীরা টহল দলকে ঘেরাও করে। ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। এসময় ৪ বিজিবি সদস্য আহত হয়।

তিনি দাবি করেন, এক পর্যায়ে হামলাকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে ফাঁকা গুলি ছুঁড়ে বিজিবি। এ সময় চোরাকারবারীরাও পাল্টা গুলি ছুঁড়ে। বিজিবিও গুলি ছুঁড়তে থাকে এক পর্যায়ে হামলাকারীরা পিছু হটলে জব্দকৃত সিগারেট নিয়ে চলে আসে বিজিবি। আহতদের কানাইঘাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নেন। 

তিনি জানান, এ সময় গুলিবিদ্ধ অবস্থায় এক কিশোরকে হাসপাতালে আনা হয়। পরে তারা জানতে পারেন সীমান্তের জিরো লাইনে গোলাগুলির সময় গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত হয় কিশোর। তবে কার গুলিতে নিহত হয়েছে এটা জানা যাবে ময়নাতদন্তের পর।

নিহত কিশোর সিরাজ (১৩) ঘটনার সময় সীমান্ত এলাকা দিয়ে স্থানীয় বাজার থেকে বাড়ি ফিরছিল বলে যুগান্তরকে জানিয়েছেন কানাইঘাট থানার ওসি আব্দুল আহাদ। 

স্থানীয় সূত্রের বরাত দিয়ে ওসি জানান, চোরাকারবারীদের তৎপরতার খবর পেয়ে সন্ধ্যার দিকে সোনারতল সীমান্তে অভিযান চালায় বিজিবি। চোরাচালানকারীরাও বিজিবি সদস্যদের ধাওয়া করে। এ সময় বিজিবি গুলি ছুঁড়লে স্থানীয় কিশোর সিরাজ মারা যান। রাতে লাশ উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্ট করে পুলিশ। 

এদিকে সুরইঘাট বিজিবি ক্যাম্পের কমান্ডার সুবেদার সুরত আলী জানান, চোরাকারবারীদের পাল্টা হামলায় বিজিবি’র এসিপি সাইদ, নায়েক ইমাম, নায়েক নুর নবী আহত হয়েছেন। আহত ২ বিজিবি সদস্যকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।