সাতক্ষীরায় হত্যার পর মাদ্রাসার সেপটিক ট্যাংকে ফেলল লাশ

  সাতক্ষীরা প্রতিনিধি ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৩:২৬ | অনলাইন সংস্করণ

সাতক্ষীরায় হত্যার পর মাদ্রাসার সেপটিক ট্যাংকে ফেলল যুবকের লাশ
ছবি: যুগান্তর

সাতক্ষীরার আশাশুনিতে নিখোঁজের দুদিন পর মাদ্রাসার সেপটিক ট্যাংক থেকে জাহাঙ্গীর হোসেন (২৪) নামে এক মোটরসাইকেলচালকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

হত্যার পর বৃহস্পতিবার রাতে ওই যুবকের মৃতদেহ সেপটিক ট্যাংকে ফেলে রাখা হয়েছে বলে জানায় পুলিশ।

নিহত মোটরসাইকেলচালক জাহাঙ্গীর হোসেন (২৪) আশাশুনির আনুলিয়া ইউনিয়নের রাজাপুর গ্রামের খোকন গাজীর ছেলে। তিনি পেশায় ভাড়ায় মোটরসাইকেলচালক।

আশাশুনি থানার ওসি বিপ্লব কুমার নাথ জানান, গত ৬ ফেব্রুয়ারি রাত ১০টার দিকে যাত্রীবেশে তিন ব্যক্তি রবিউল, আল আমিন ও আবদুল আজিজ ভাড়ায় যাওয়ার কথা বলে চালক জাহাঙ্গীরকে নদীর ঘাটে ডেকে নেন। এর পর থেকে জাহাঙ্গীর নিখোঁজ ছিলেন।

নিখোঁজ থাকায় তার স্ত্রী সাথী বেগম বিষয়টি ইউপি চেয়ারম্যান আলমগীর আলম লিটনকে জানান। পরে ইউপি চেয়ারম্যান রবিউলকে ডেকে পাঠান।

রবিউল চেয়ারম্যানের কাছে স্বীকার করেন যে, তারা জাহাঙ্গীরকে হত্যার পর লাশ স্থানীয় একসরা মাদ্রাসার সেপটিক ট্যাংকে ফেলে দিয়েছে। এর ভিত্তিতে পুলিশ বৃহস্পতিবার রাতে লাশটি উদ্ধার করে।

এ ঘটনায় আজিজ, আল আমিন, রবিউল ও শরিফুলকে আটক করা হয়েছে। তারা জানিয়েছেন চালক জাহাঙ্গীরের গলায় ফাঁস লাগিয়ে হত্যা করেছে।

ময়নাতদন্তের জন্য মৃতদেহ সাতক্ষীরা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×