গাজীপুরে সাদপন্থীদের মসজিদে ঢুকতে বাধা!

  গাজীপুর প্রতিনিধি ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ২২:২১ | অনলাইন সংস্করণ

খোলা আকাশের নিচে তাবু খাটিয়ে সাদপন্থী মুসল্লিদের অবস্থান
খোলা আকাশের নিচে তাবু খাটিয়ে সাদপন্থী মুসল্লিদের অবস্থান

সম্প্রতি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ও ধর্ম প্রতিমন্ত্রীসহ সংশ্লিষ্টদের প্রচেষ্টায় তাবলিগ জামাতের জোবায়ের ও সাদপন্থী বিরোধ মিটিয়ে শান্তিপূর্ণভাবে বিশ্ব ইজতেমা সম্পন্ন হয়েছে।

বিশ্ব ইজতেমা থেকে চিল্লাবন্দি সাদপন্থী মুসল্লিরা বিভিন্ন মসজিদে গিয়ে তাবলিগি কাজ করতে গেলে জোবায়ের অনুসারীরা তাদের বাধা দেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এছাড়া লাঞ্ছিত করার অভিযোগে সাদপন্থীরা থানায় জোবায়ের পন্থীদের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ করেছেন বলেও জানা গেছে।

সাদপন্থী তাবলিগ জামাতের দিনাজপুরের বোঁচাগঞ্জ উপজেলা থেকে শ্রীপুরে যাওয়া জামাতের আমির রবিউল ইসলাম জানান, শুরু থেকে নিয়ম অনুযায়ী মসজিদে থেকে পরিচালিত হয়ে আসছে তাবলিগ জামাতের দাওয়াতের কাজ। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে তাবলিগের মধ্যে দুই পন্থী তৈরি হওয়ায় তাবলিগের কাজে নানা ধরনের জটিলতা তৈরি হয়েছে।

তিনি জানান, রোববার গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার তেলীহাটি ইউনিয়নের সাইটালিয়া গ্রামে জোবায়ের অনুসারীরা সাদপন্থী তাবলিগ জামাতের একটি দলকে মসজিদ থেকে বের করে দিয়েছে।

তাদের ভাষ্য, সর্বশেষ বিশ্ব ইজতেমা থেকে সাদপন্থী দাওয়াতে তাবলিগের দিনাজপুরের বোঁচাগঞ্জ উপজেলা থেকে একটি দল (১ চিল্লার) জামাত নিয়ে শ্রীপুরে যান গত বৃহস্পতিবার। পরে তারা শনিবার বিকালে এসে অবস্থান নেন সাইটালিয়া পশ্চিমপাড়া কাছম আলী জামে মসজিদে। মসজিদে সাদপন্থী লোকজন এসেছে সংবাদে জোবায়েরপন্থী স্থানীয় আবদুস সামাদের ছেলে নাসির উদ্দিনের নেতৃত্বে মসজিদে থাকতে বাধা দেয় এবং মসজিদ থেকে বের করে দেয়। পরে তারা স্থানীয় আবুল কালামের বাড়ির আঙিনায় খোলা আকাশের নিচে অবস্থান নেন।

মসজিদ কমিটির সভাপতি গোলাম রসুল টিটু জানান, এ বিষয়টি তার এখতিয়ারের বাইরে। এ ব্যাপারে মসজিদের ক্যাশিয়ার নাসির উদ্দিন সিদ্ধান্ত নেবেন।

নাসির উদ্দিন এ বিষয়ে সাংবাদিকদের জানান, কোনো অবস্থাতেই সাদপন্থী লোকজনকে মসজিদে প্রবেশ করতে দেয়া হবে না, যত ঝামেলাই হোক।

তাবলিগ জামাতের আমির রবিউল ইসলামের ভাষ্য, আমরা আল্লাহর রাস্তায় মেহনত করতে এসেছি, শনিবার থেকে আমরা মসজিদে জায়গা না পেয়ে খোলা আকাশের নিচে তাঁবু টানিয়ে আছি। তবে আল্লাহর রাস্তায় আমাদের চেয়েও কঠিন অবস্থায় ছিলেন আমাদের রাসূল (সা.)। মহান আল্লাহর কাছ থেকে সিদ্ধান্ত প্রার্থনা করে আজ আমরা সবাই রোজা রেখেছি।

এ বিষয়ে শ্রীপুর থানার এসআই আব্দুল মালেক জানান, সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে মসজিদে প্রবেশে বাধা প্রদানকারী কাউকে পাওয়া যায়নি। পরে শৃঙ্খলা রক্ষায় তাবলিগের লোকজনকে পাশের অন্য একটি মসজিদে পাঠিয়ে দেয়া হয়েছে।

অপরদিকে গাজীপুর মহানগরের ইটাহাটা এলাকার বাসিন্দা সাদপন্থী মো. সালমান সাংবাদিকদের জানান, দুদিন আগে স্থানীয় ইটাহাটা এলাকায় এক বাজারে গেলে ইটাহাটা জান্নাতুল বাকি জামে মসজিদের ইমাম মো. হোসেন তাকে কাফের, নাসেরা বলে গালাগাল করেন এবং তাকে লাঞ্ছিত করেন। পরে আবারও ওই রাতে জোবায়ের অনুসারীরা লাঠিসোঁটা নিয়ে সালমানের বাড়িতে যায়। পরে হামলার ভয়ে সালমান পেছনের দরজা দিয়ে পালিয়ে রক্ষা পান। পরদিন বাসন থানায় এ ব্যাপারে একটি অভিযোগ করেন।

এ ব্যাপারে ইমাম মো. হোসেনকে মোবাইল ফোনে জানতে চাইলে তিনি পরে বলবেন বলে মোবাইল রেখে দেন।

বাসন থানার ওসি মো. মুক্তার হোসেন অভিযোগ পাওয়ার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ওই ব্যাপারে রোববার বাদ মাগরিব উভয়পক্ষকে নিয়ে স্থানীয় আওয়ামী লীগের অফিসে বৈঠক করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×