৭ ঘণ্টা পর বগুড়ার সঙ্গে রেল যোগাযোগ স্বাভাবিক

  বগুড়া ব্যুরো ০৪ মার্চ ২০১৯, ১০:১৬ | অনলাইন সংস্করণ

৭ ঘণ্টা পর বগুড়ায় ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক
ফাইল ছবি

বগুড়ায় সাত ঘণ্টা পর ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক হয়েছে। বোনারপাড়া থেকে রিলিফ ট্রেন ক্ষতিগ্রস্ত লাইন মেরামত করলে সোমবার ভোররাত সাড়ে ৪টার দিকে সান্তাহার-লালমনিরহাট রুটে ট্রেন চলাচল শুরু হয়।

এর আগে বুড়িমারী থেকে ছেড়ে আসা সান্তাহারগামী ‘করতোয়া এক্সপ্রেস’ ট্রেন রোববার রাত সাড়ে ৯টার দিকে গাবতলীতে লাইনচ্যুত হয়। এতে সান্তাহার-লালমনিরহাট রুটে ট্রেন চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। ওই সময় আতঙ্কে ট্রেন থেকে লাফ দিতে গিয়ে ২-৩ জন যাত্রী সামান্য আহত হন।

বগুড়া স্টেশনমাস্টার বেঞ্জুরুল ইসলাম ও গাবতলী স্টেশনমাস্টার সাজেদুর রহমান সাজু জানান, বুড়িমারী থেকে সান্তাহারগামী আন্তঃনগর ‘করতোয়া এক্সপ্রেস’ ট্রেনটি রোববার রাত সাড়ে ৯টার দিকে গাবতলী স্টেশনে যাত্রা বিরতির কথা ছিল।

স্টেশন প্রবেশের আগেই প্রায় ১৫০ গজ আগে পেছনের শেষ বগিটা লাইনচ্যুত হয়। ট্রেনটি ইঞ্জিনসহ এক নম্বর লাইনে প্রবেশ করলেও পেছনের বগিটি দুই নম্বর লাইনে প্রবেশ করে। এ সময় প্রচণ্ড শব্দে পেছনের বগিটি লাইনচ্যুত হয়। তখন ট্রেনে থাকা বহু যাত্রী আতঙ্কিত হয়ে চিৎকার করতে থাকেন।

দ্রুত ট্রেন থেকে নামতে গিয়ে ২-৩ জন যাত্রী সামান্য আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে একজন হলেন- গাইবান্ধার সাঘাটা উপজেলার অনন্তপুর গ্রামের সৈয়দ জামাল ইসলামের স্ত্রী তাসলিমা। অন্যদের নাম-পরিচয় পাওয়া যায়নি।

এদিকে দুর্ঘটনার খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস ও পুলিশ ঘটনাস্থলে আসে।

‘করতোয়া এক্সপ্রেস’ গাবতলী স্টেশনে যাত্রাবিরতি করে। আধা ঘণ্টা পর লাইনচ্যুত বগিটি রেখে ট্রেন সান্তাহারের দিকে রওনা হয়। বগিটি লাইন পরিবর্তন করে অন্য লাইনে ঢুকে পড়ায় রেললাইনের ক্ষতি হয়। ফলে লালমনিরহাট-সান্তাহার রুটে ট্রেন চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

করতোয়া এক্সপ্রেসের পরিচালক গোলাম রব্বানী যুগান্তরকে বলেন, রেল ক্রোসিংয়ের সমস্যার কারণেই এ দুর্ঘটনা ঘটতে পারে।

বগুড়া রেলওয়ের ঊর্ধ্বতন উপসহকারী প্রকৌশলী আফজাল হোসেন জানান, দুর্ঘটনার পরপরই বোনারপাড়া থেকে আসা রিলিফ ট্রেনের কর্মকর্তারা ক্ষতিগ্রস্ত লাইন মেরামত করেন। এর পর সোমবার ভোররাত সাড়ে ৪টায় ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক হয়েছে। এ দুর্ঘটনায় অন্য ট্রেন চলাচলে তেমন বিঘ্ন ঘটেনি।

শুধু বোনারপাড়া থেকে সান্তাহারগামী কলেজ ট্রেনটি গাবতলী স্টেশনে আটকে ছিল। বগি লাইনচ্যুত ঘটনার কারণ জানতে তদন্ত চলছে বলে জানান উপসহকারী প্রকৌশলী আফজাল হোসেন।

আরও পড়ুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

 
×