চাঁদপুরে বিয়ে বাড়ির গেটে টাকা নিয়ে সংঘর্ষে আহত ২০
jugantor
চাঁদপুরে বিয়ে বাড়ির গেটে টাকা নিয়ে সংঘর্ষে আহত ২০

  যুগান্তর রিপোর্ট  

১৬ মার্চ ২০১৯, ১৪:৪৩:১৫  |  অনলাইন সংস্করণ

চাঁদপুরে বিয়ে বাড়ির গেটে টাকা নিয়ে সংঘর্ষে আহত ২০
ছবি: যুগান্তর

চাঁদপুরে সদর উপজেলায় বরপক্ষ এলে বিয়ে বাড়ির গেটে টাকা নেয়াকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে ২০ জন আহত হয়েছেন।

শুক্রবার রাতে সদর উপজেলার ১০নং লক্ষ্মীপুর মডেল ইউনিয়নের হরিনারচর গুচ্ছ গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। 

চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন শান্ত, হান্নানসহ কয়েকজন জানান,  ওই এলাকায় হান্নান মৃধার ছেলে জান্নাতুল মৃধার (২২) সঙ্গে ওহিদ মিয়ার মেয়ে রিনা আক্তারের (১৬) বাল্যবিয়ে হয়। 

বৃহস্পতিবার দুপুরে বরপক্ষ এলে বিয়ের গেটে টাকা নেয়াকে কেন্দ্র করে হাতাহাতি হয়। 

পরদিন শুক্রবার মেয়ে পক্ষ ছেলের বাড়িতে বৌ-ভাতের অনুষ্ঠানে গেলে সেখানে ছেলের আত্মীয় শাহ আলম ক্ষিপ্ত হয়ে মেয়ে পক্ষের টিটুকে মারধর করেন।  এ নিয়ে উভয় পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। এতে ছেলে পক্ষের ১৪ জন ও মেয়ে পক্ষের ৬ জন আহত হন।

আহতরা হলেন- টিটু (১৯), শান্ত মাল (৬০), হান্নান (১৮), বোরহান (১৬), হাবিব (২৭), শাহজালাল (১৯),শাহ আলম গাজী (২২), সাদ্দাম (২৭), নাসিমা (৪০), নূর খান (৫০), ওহাব আলি (৬০), আবদুর রহমান বেপারী (১৮), ইসমাইল মিয়া (১৮), লোকমান বেপারী (১৭), রেজওয়ান হোসাইন (১৮), রফিক (২৭) লোকমান (২৭) ও সালমা (২০)।

আহতদের মধ্যে ১৯ জনকে ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ ঘটনায় চাঁদপুর মডেল থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে  জানান আহতরা।

চাঁদপুরে বিয়ে বাড়ির গেটে টাকা নিয়ে সংঘর্ষে আহত ২০

 যুগান্তর রিপোর্ট 
১৬ মার্চ ২০১৯, ০২:৪৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
চাঁদপুরে বিয়ে বাড়ির গেটে টাকা নিয়ে সংঘর্ষে আহত ২০
ছবি: যুগান্তর

চাঁদপুরে সদর উপজেলায় বরপক্ষ এলে বিয়ে বাড়ির গেটে টাকা নেয়াকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে ২০ জন আহত হয়েছেন।

শুক্রবার রাতে সদর উপজেলার ১০নং লক্ষ্মীপুর মডেল ইউনিয়নের হরিনারচর গুচ্ছ গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন শান্ত, হান্নানসহ কয়েকজন জানান, ওই এলাকায় হান্নান মৃধার ছেলে জান্নাতুল মৃধার (২২) সঙ্গে ওহিদ মিয়ার মেয়ে রিনা আক্তারের (১৬) বাল্যবিয়ে হয়।

বৃহস্পতিবার দুপুরে বরপক্ষ এলে বিয়ের গেটে টাকা নেয়াকে কেন্দ্র করে হাতাহাতি হয়।

পরদিন শুক্রবার মেয়ে পক্ষ ছেলের বাড়িতে বৌ-ভাতের অনুষ্ঠানে গেলে সেখানে ছেলের আত্মীয় শাহ আলম ক্ষিপ্ত হয়ে মেয়ে পক্ষের টিটুকে মারধর করেন। এ নিয়ে উভয় পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। এতে ছেলে পক্ষের ১৪ জন ও মেয়ে পক্ষের ৬ জন আহত হন।

আহতরা হলেন- টিটু (১৯), শান্ত মাল (৬০), হান্নান (১৮), বোরহান (১৬), হাবিব (২৭), শাহজালাল (১৯),শাহ আলম গাজী (২২), সাদ্দাম (২৭), নাসিমা (৪০), নূর খান (৫০), ওহাব আলি (৬০), আবদুর রহমান বেপারী (১৮), ইসমাইল মিয়া (১৮), লোকমান বেপারী (১৭), রেজওয়ান হোসাইন (১৮), রফিক (২৭) লোকমান (২৭) ও সালমা (২০)।

আহতদের মধ্যে ১৯ জনকে ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ ঘটনায় চাঁদপুর মডেল থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানান আহতরা।