বান্দরবানে হামলায় ২ প্রিসাইডিং অফিসার আহত

  বান্দরবান প্রতিনিধি ১৮ মার্চ ২০১৯, ২২:০৯ | অনলাইন সংস্করণ

বান্দরবান

বিচ্ছিন্ন ঘটনার মধ্য দিয়ে বান্দরবানের ৭টি উপজেলায় ১৭৬টি ভোটকেন্দ্রে ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হয়েছে।

এদিকে থানচিতে স্বতন্ত্র প্রার্থী ক্যহ্লাচিংয়ে সমর্থকদের হামলায় প্রিসাইডিং অফিসার দিল মোহাম্মদ এবং সহকারী প্রিসাইডিং অফিসার সাদত হোসেন মারাত্মক আহত হয়েছে।

অপরদিকে সদরে অবৈধভাবে কেন্দ্রে প্রবেশের চেষ্টার অভিযোগে স্বতন্ত্র প্রার্থীর ছোট ভাই ইউনিয়ন সচিব মো. জাহাঙ্গীরকে ৬ মাসের কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

নির্বাচন অফিস ও ভোটাররা জানায়, সোমবার সকালে ৮টায় বান্দরবান জেলার লামা, আলীকদম, সদর, থানচি, রুমা, রোয়াংছড়ি এবং নাইক্ষ্যংছড়ি সাতটি উপজেলায় ভোটগ্রহণ শুরু হয়। ভোটগ্রহণ চলে বিকাল ৪টা পর্যন্ত। তবে ভোটার উপস্থিতি খুব একটা ছিল না।

বেলা ১১টার পর থেকে ভোটকেন্দ্রগুলো ফাঁকা হতে থাকে। সদর উপজেলার রেইছা, সূয়ালক, বালাঘাটা, শহর মডেল প্রাইমারি স্কুল, বাসস্ট্যান্ড কেন্দ্রসহ আশপাশের ভোটকেন্দ্রগুলো ঘুরেও এমন পরিস্থিতি দেখা গেছে।

দুপুরের পর নাইক্ষ্যংছড়ি এবং আলীকদম উপজেলার কিছু কিছু কেন্দ্রে সাময়িক ভোটারের উপস্থিতি লক্ষ্য করা গেছে বলে জানিয়েছেন নির্বাচনী এজেন্টরা।

এদিকে সদরের ওয়াল্ডভিশন স্কুল ভোটকেন্দ্র থেকে স্বতন্ত্র প্রার্থী মোটরসাইকেল প্রতীকের এজেন্ট জিয়াকে প্রতিপক্ষরা মারধর করে কেন্দ্র থেকে বের করে দেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ সময় দুই চেয়ারম্যান প্রার্থী সমর্থকদের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। পরে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এবং আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

অপরদিকে রোববার রাতে সরকারি কলেজ ভোটকেন্দ্র এলাকা থেকে আচরণবিধি লংঘনের দায়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুল কুদ্দুছের ছোটভাই ইউনিয়ন পরিষদের সচিব মো. জাহাঙ্গীরকে আটক করে ৬ মাসের কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শহীদুল ইসলাম চৌধুরী জানান, সুষ্ঠুভাবেই ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হয়েছে। বাসস্ট্যান্ড কেন্দ্রে বিশৃঙ্খলা হলেও ভোটগ্রহণে কোনো সমস্যা হয়নি। প্রার্থীদের পক্ষ থেকেও কোনো অভিযোগ পাওয়া যায়নি। সরকারি কলেজ কেন্দ্র থেকে একজনকে আটক করে ৬ মাসের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

এদিকে থানচি উপজেলাতে স্বতন্ত্র প্রার্থী ক্যহ্লাচিংয়ের সমর্থকদের হামলায় থানচি মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের প্রিসাইডিং অফিসার দিল মোহাম্মদ এবং সহকারী প্রিসাইডিং অফিসার সাদত হোসেন মারাত্মক আহত হয়েছেন। খবর পেয়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীসহ প্রশাসন আহতদের উদ্ধার করে থানচি হাসপাতালে ভর্তি করেছে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে থানচি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আরিফুল হক মৃদা বলেন, প্রার্থীর সমর্থকদের হামলায় দুজন প্রিসাইডিং অফিসার আহত হয়েছে। তারা দুজন থানচি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন আছেন। হামলাকারীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×