নৌকার প্রার্থীর সংবাদ সম্মেলন

‘কেশবপুরে ইউএনও মিজানূর থাকলে সুষ্ঠু নির্বাচন হবে না’

  যশোর ব্যুরো ২০ মার্চ ২০১৯, ২০:২৪ | অনলাইন সংস্করণ

উপজেলা পরিষদ নির্বাচন

যশোরের কেশবপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকতা (ইউএনও) মিজানূর রহমানকে প্রত্যাহারের দাবি জানিয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছে উপজেলা আওয়ামী লীগ।

নেতারা বলেছেন, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচনের স্বার্থে অবিলম্বে ইউএনও মিজানূর রহমানকে প্রত্যাহার করতে হবে। তিনি কেশবপুরে থাকলে সুষ্ঠু নির্বাচন হবে না।

নৌকার প্রার্থী এইচএম আমির হোসেনকে পরাজিত করতে ইউএনও নিজেই মাঠে নেমেছেন। তার দ্বারা কোনোভাবেই সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়।

বুধবার দুপুরে প্রেসক্লাব যশোর মিলনায়তনে সংবাদ সম্মেলনে কেশবপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতারা এ কথা বলেন।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন কেশবপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি রুহুল আমিন, সহসভাপতি ও নৌকা প্রতীকের প্রার্থী এইচএম আমির হোসেন, সাধারণ সম্পাদক গোলাম মোস্তফা প্রমুখ।

প্রার্থী আমির হোসেন বলেন, রাষ্ট্রের একজন গুরুত্বপূর্ণ কর্মকর্তা হিসেবে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মিজানূর রহমানের কর্মকাণ্ডে কেশবপুরের মানুষ হতবাক। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা স্বয়ং নিজেই স্বতন্ত্র প্রার্থী কাজী রফিকুল ইসলামের পক্ষে সরাসরি মাঠে নেমেছেন।

তিনি বলেন, ইউএনও মিজানূর প্রকাশ্যে নৌকার সমর্থক, দলীয় নেতাকর্মী ও ভোটারদের হুমকি দিচ্ছেন। তিনি ঘোষণা করেছেন আগের রাতে ব্যালট পেপার কেটে বাক্স ভরে রাখা হবে। এমনকি কন্ট্রোলরুম থেকে স্বতন্ত্র প্রার্থীকে বিজয়ী ঘোষণা করা হবে। সরকারি বেসরকারি কর্মকর্তাদের চাকরি খাওয়ার ভয়, বেতন বন্ধ, কারাগারে পাঠানোর ভয় দেখাচ্ছেন। ভোটগ্রহণ কর্মকর্তাদেরও প্রভাবিত করা হচ্ছে।

কেশবপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম মোস্তফা বলেন, আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ইউএনও মিজানূরকে প্রত্যাহার না করলে, আমাদের ইজ্জত থাকবে না। আমাদেরকে দল থেকে পদত্যাগ করে ইজ্জত বাঁচাতে হবে।

উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি রুহুল আমিন বলেন, নৌকার প্রার্থীকে পরাজিত করতে মাঠে নেমেছেন স্বয়ং ইউএনও। এর চেয়ে দুঃখজনক ঘটনা আর কিছু হতে পারে না। অবিলম্বে তাকে প্রত্যাহারের দাবি জানাচ্ছি।

এ প্রসঙ্গে জেলা প্রশাসক আবদুল আওয়াল বলেন, অভিযোগের বিষয়ে নির্বাচনে কমিশন তদন্তের নির্দেশ দিয়েছে। আমরা তদন্ত করেছি। কেউ বলেনি ইউএনও নির্বাচনে প্রভাব বিস্তার করছেন। তবে অভিযোগের বিষয়টি আমরা গুরুত্বের সঙ্গে নিয়েছি। সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে আমরা বদ্ধপরিকর। এক্ষেত্রে কোনো ছাড় দেয়া হবে না।

ঘটনাপ্রবাহ : উপজেলা নির্বাচন ২০১৯

আরও
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×