এফ আর টাওয়ারে আগুন: শেরপুরের সেই জসিমকে সংবর্ধনা

  শেরপুর প্রতিনিধি ১৫ এপ্রিল ২০১৯, ২১:১০ | অনলাইন সংস্করণ

বনানীর এফ আর টাওয়ারের অগ্নিকাণ্ডে মানবতার দৃষ্টান্ত স্থাপনকারী সেই জসিম উদ্দিনকে সংবর্ধনা
বনানীর এফ আর টাওয়ারের অগ্নিকাণ্ডে মানবতার দৃষ্টান্ত স্থাপনকারী সেই জসিম উদ্দিনকে সংবর্ধনা

রাজধানীর বনানীর এফ আর টাওয়ারের অগ্নিকাণ্ডে মানবতার দৃষ্টান্ত স্থাপনকারী সেই জসিম উদ্দিন (৩১) তার নিজ এলাকা শেরপুরে সংবর্ধিত হয়েছেন।

সোমবার দুপুরে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে তাকে ওই সংবর্ধনা দেয়া হয়।

জেলা প্রশাসনের সম্মেলনকক্ষ রজনীগন্ধায় আয়োজিত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে জসিমকে ফুলেল শুভেচ্ছায় বরণ করে নিয়ে তার হাতে নগদ ১০ হাজার টাকা ও উপহার তুলে দেন প্রধান অতিথি জেলা প্রশাসক আনার কলি মাহবুব।

স্থানীয় সরকার বিভাগের উপপরিচালক (উপসচিব) এটিএম জিয়াউল ইসলামের সভাপতিত্বে সভায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (উপসচিব) সাইয়েদ এজেড মোরশেদ আলী, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) জন কেনেডি জাম্বিল, প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি রফিকুল ইসলাম আধার প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে প্রশাসনের অন্যান্য কর্মকর্তারা, সংবর্ধিত জসিমের আত্মীয়স্বজনসহ স্থানীয় সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।

সংবর্ধনার জবাবে জসিম তার প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করতে গিয়ে বলেন, সেদিন নিজের তরফ থেকে আরও মানুষকে বাঁচাতে পারলে তার আনন্দ হতো। কিন্তু অনেক মানুষ মারা যাওয়ায় সেই দিনটি তার কাছে একটি শোকের দিন।

সাহায্য-সহযোগিতার চেয়ে মানুষের দোয়া ও ভালোবাসাই তার বড় প্রাপ্তি উল্লেখ করে তিনি বলেন, জীবনের শেষ দিন পর্যন্ত মানবতার সেবায় যেন নিজেকে নিয়োজিত রাখতে পারি-এটিই আমার প্রতিজ্ঞা।

উল্লেখ্য, গত ২৮ মার্চ এফ আর টাওয়ারে অগ্নিকাণ্ডের সময় মানুষের জীবন বাঁচাতে ঝাঁপিয়ে পড়েন কড়াইল বস্তিতে বসবাসকারী শেরপুর সদর উপজেলার বলাইয়েচর ইউনিয়নের দুসরা ছনকান্দা গ্রামের মৃত ওমর আলী ও মাজেদা বেগমের ছেলে জসিম। ওই সময় তার চোখে পড়ে প্রাণে বাঁচতে ভবনের ৯ তলা থেকে তার বেয়ে নামার চেষ্টা করছেন এক তরুণী।

ওই দৃশ্য দেখে তাকে থামতে বলেন জসিম। ওই সময় জীবনের পরোয়া না করে স্পাইডারম্যানের মতো দ্রুত দেয়াল বেয়ে ওপরে উঠে ওই তরুণীকে একতলা নিচে নামিয়ে নিরাপদে পাশের ভবনে উঠিয়ে দেন। এতে প্রাণে বেঁচে যান ওই তরুণী।

কেবল তাই নয়, উপর থেকে তার বেয়ে নামতে গিয়ে এক ব্যক্তি উপুড় হয়ে ঝুলে পড়লে চেষ্টা করেও তাকে বাঁচাতে না পারলেও এক শ্রীলঙ্কান নাগরিকসহ আরও ৪ জনকে উদ্ধার করতে সক্ষম হন জসিম।

এরপর উদ্ধারকাজে তার সহায়তা সব ঘটনা না হলেও ওই তরুণীর জীবন বাঁচানোর ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়ে যায়।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×