নিজের জন্য রাখা চেয়ারে কৃষক বাবাকে বসালেন ভিপি নুর

  যুগান্তর রিপোর্ট ০২ জুন ২০১৯, ২১:৪৫ | অনলাইন সংস্করণ

নিজের জন্য রাখা চেয়ারে কৃষক বাবাকে বসালেন ভিপি নুর
সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বাবার পাশে ডাকসুর ভিপি নুরুল হক নূর। ছবি: সংগৃহীত

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) ভিপি হওয়ার পর প্রথমবারের মতো নিজ এলাকায় গেলেন নুরুল হক নূর।

রোববার সকালে নূর নিজ এলাকা পটুয়াখালী গেলে তাকে জমকালো আয়োজনে সংবর্ধনা দেয় এলাকাবাসী।

এ সময়ের আলোচিত ঢাবি ভিপিকে একনজর দেখতে হাজারো মানুষের ঢল নামে। মাঠে জায়গা না পেয়ে অনেককে বাড়ির ছাদে উঠতে দেখা গেছে।

তবে নুরের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের সব আলোচনাকে ছাপিয়ে সামনে চলে এসেছে অন্য একটি বিষয়। তাহলো প্রধান অতিথি হিসাবে ভিপি নুরের জন্য রাখা চেয়ারটিতে নূর নিজে না বসে বসিয়েছিলেন তার বাবাকে।

ভিডিওতে দেখা গেছে, অনুষ্ঠানস্থলে এসেই নিজের জন্য রাখা সংরক্ষিত চেয়ারে বাবাকে বসিয়ে ডান পাশের চেয়ারে বসেন ভিপি নুর।

বিষয়টিকে বাবার প্রতি নূরের শ্রদ্ধা ও ভালোবাসার উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত বলে মত দিচ্ছেন সবাই। রীতিমতো সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে সেই দৃশ্য। নূরের প্রশংসায় স্থানীয়রা ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিচ্ছেন।

আজ সংবর্ধনায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে নুরুল হক নূর বলেন, সাধারণ মানুষদের জাগতে হবে, বৈষম্য নিয়ে কথা বলতে হবে। কারণ সাধারণ মানুষ ঐক্যবদ্ধ হলে আওয়ামী লীগ আর বিএনপির কোনো হ্যাডাম থাকবে না।

সম্প্রতি কৃষকদের ধানের ন্যায্যমূল্য না পাওয়ার বিষয়টি নিয়েও কথা বলেন নূর।

এ বিষয়ে তিনি বলেন, বর্তমান বাজারে কৃষকরা ন্যায্য মূল্য পাচ্ছেন না। কৃষক এখন কৃষি কাজ ছেড়ে দিতে চাচ্ছে, কেউবা অন্য পেশার ওপর নির্ভর হচ্ছে। কৃষকের পাশে আওয়ামী লীগ কিংবা বিএনপি কেউ দাড়াচ্ছে না। অথচ এই অঞ্চল তথা সাগর উপকূলীয় জেলা কৃষি এবং মৎস্য সম্পদের ভাণ্ডার বলে আখ্যায়িত হয়েছে।

কৃষকের পাশে আওয়ামী লীগ কিংবা বিএনপি কেউ দাঁড়াচ্ছে না বলেও অভিযোগ করেন নূর।

নুর বলেন, সরকার থেকে কৃষকদের জন্য সার, বীজ, টাকা, সহজ শর্তে কৃষিঋণ আসে। এগুলো কী আপনারা সবাই ঠিকমতো পান? থানায় মামলা করতে টাকা লাগে, অন্যায়ের বিচার চাইতে নেতাদের কাছে গেলে টাকা ছাড়া সমাধান হয় না। আজকে আমাদের সমাজ দুর্নীতি আর অনিয়মের চরম শিখরে পৌঁছে গেছে।

জানা গেছে, নূরের বাবাও একজন দরিদ্র কৃষক।পটুয়াখালীর গলাচিপা উপজেলার কৃষক মো. ইদ্রিস হাওলাদার নুরের বাবা। সংসারে নূর ছাড়াও আরো দুই ভাই ও পাঁচ বোন রয়েছেন।

এত বড় সংসারের ঘানি টানতে নুরের বাবা কৃষিকাজের পাশাপাশি উপজেলার চরবিশ্বাস ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডে একটি বাজারে চায়ের দোকান দিয়েছেন। এ দোকান দিয়েই সংসার চালান তিনি।

তাই কৃষক পরিবারের সন্তান হওয়ায় কৃষকদের দুঃখ, অনুভূতির কথা বেশ ভালোই অনুভব করেন নূর।

প্রসঙ্গত নিজের বাড়ি সফরে বিভিন্ন মহল থেকে বাঁধা প্রদান করার ইঙ্গিত থাকলেও আজ নির্বিঘ্নে বাড়ি পৌঁছান ডাকসুর ভিপি নুরুল হক নূর।

রোববার সকালে ঢাকা থেকে লঞ্চযোগে তিনি পটুয়াখালীর চরকাজল লঞ্চ টার্মিনালে পৌঁছালে তাকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানিয়ে বরণ করে নেয় এলাকাবাসী।

সেখান থেকে বিশাল মোটরসাইকেল শোডাউনের মাধ্যমে নূর তার এলাকা চরবিশ্বাসে পৌঁছান। পরে চরবিশ্বাস বাজারে এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে তাকে গণসংবর্ধনা দেয়া।

ছাত্র রাজনীতিতে তার এ আশাতীত সাফল্যের কারণে তাকে এক নজর দেখতে কাঠফাটা রোদ উপেক্ষা করে গণসংবর্ধনা অনুষ্ঠানে ভিড় করে হাজার হাজার জনতা।

নূরের সেই সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান মো. রাজা মিয়া। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন নুরের বাবা মো. ইদ্রিস হাওলাদার, তার সফরসঙ্গী ঢাকা কলেজের ছাত্র মো. রাকিবুল ইসলাম, মো. জাহিদ হোসেন ও বাঙলা কলেজের ছাত্র মো. রিয়াদ হোসেন।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×