ঈদ আনন্দে টেকনাফে সড়কে প্রাণ গেল ৩ রোহিঙ্গা যুবকের

প্রকাশ : ০৭ জুন ২০১৯, ২০:৪৫ | অনলাইন সংস্করণ

  টেকনাফ (কক্সবাজার) প্রতিনিধি

দুর্ঘটনাকবলিত পিকআপ ভ্যান

কক্সবাজারের টেকনাফে ঈদ উল্লাস করতে গিয়ে রোহিঙ্গা বোঝাই পিকআপ ভ্যান দুঘর্টনায় ঘটনাস্থলে ৩ জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় ১১ জন আহত হয়েছেন।

শুক্রবার দুপুর ১২টার দিকে মেরিন ড্রাইভ সড়কের কচ্ছপিয়া এলাকায় একটি ছাগলকে রক্ষা করতে গিয়ে চালক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেললে এ দুর্ঘটনা সংঘটিত হয়।

দুর্ঘটনায় নিহতরা হচ্ছে বালুখালী ক্যাম্পের মো. ইদ্রিস (২৫), মো. জোবায়ের (৩৫) ও নুর মোহাম্মদ (৩২)। হতাহতরা সবাই উখিয়ার বালুখালী ক্যাম্পের বাস্তুচ্যুত রোহিঙ্গা।

পুলিশ, বিজিবি ও ফায়ার সার্ভিস দল দুঘর্টনাস্থলে গিয়ে হতাহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়।

বাহারছড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের কর্মকর্তা মো. আনোয়ার হোসেন জানান, একদল রোহিঙ্গা ঈদভ্রমণ উপলক্ষে পিকআপ ভ্যানে করে গান-বাজনা ও নেচে-গেয়ে উল্লাস করতে থাকেন। 

মেরিন ড্রাইভের কচ্চপিয়া এলাকায় পৌঁছলে সড়কে থাকা ১টি ছাগলকে রক্ষা করতে গিয়েই নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সড়ক হতে ১৫ ফুট নিচে পড়ে যায় পিকআপটি। এতে ঘটনাস্থলেই ৩ জন নিহত হন। ১১ জন গুরুতর আহত হয়।

দুঘর্টনার খবর পেয়ে বাহারছড়া বিশেষ চেকপোস্টে দায়িত্বরত বিজিবি, ফায়ার সার্ভিস, টেকনাফ ও বাহারছড়া পুলিশের পৃথক দল ঘটনাস্থলে ছুটে যায়। 

টেকনাফ মডেল থানার ওসি প্রদীপ কুমার দাশের নেতৃত্বে হতাহতদের উদ্ধার করে টেকনাফ উপজেলা সদর হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নেয়া হয়। সেখান থেকে নিহতদের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। আহতদের চিকিৎসা সেবা প্রদান কার্যক্রম চলছে। আহত কয়েকজনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে।  

আহত রোহিঙ্গা আবদুল্লাহ জানান, ঈদ উপলক্ষে আনন্দ করতে এই পিকআপ ভ্যান নিয়ে টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ ঘুরে কক্সবাজার হয়ে ক্যাম্পে ফেরার কথা ছিল তাদের। 

এদিকে এই দুঘর্টনার পর পুরো ক্যাম্পজুড়ে ঈদ উল্লাসের পরিবর্তে নেমে আসে শোকের ছায়া।