ঈদের ছুটিতে পর্যটকদের পদচারণায় মুখর বান্দরবান

  আলাউদ্দিন শাহরিয়ার, বান্দরবান ০৮ জুন ২০১৯, ১৭:৩২ | অনলাইন সংস্করণ

ঈদের ছুটিতে পর্যটকদের পদচারণায় মুখরিত বান্দরবান

ছুটি মানেই প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের লীলাভূমি বান্দরবানে পর্যটকদের উপচে পড়া ভিড়। ভ্রমনপিপাসু মানুষের পদচারণায় মুখরিত জেলার অন্যতম পর্যটন স্পট নীলাচল, মেঘলা, স্বর্ণমন্দির ও নীলগিরি।

তবে এ বছর শহরের আবাসিক হোটেল-মোটেল-রিসোর্ট-গেষ্টহাউজগুলোতে অনেক রুমই ফাঁকা ছিল।

পাহাড়ে আধিপাত্য বিস্তারের দ্বন্দ্বে অপহরণ-হত্যাসহ সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের প্রভাব পড়েছে পর্যটন শিল্পে, দাবি পর্যটন সংশ্লিষ্ঠ ব্যবসায়ীদের।

পর্যটনের অফুরন্ত সম্ভাবনাময় প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের জেলা বান্দরবানে শুক্র ও শনিবার আকর্ষণীয় পর্যটন স্পট নীলাচল, মেঘলা, স্বর্ণমন্দির, চিম্বুক, নীলগিরি, শৈলপ্রপাত, রিজুক ঝর্ণা, বগালেক ও ডিম পাহাড় চূড়া সবখানেই ছিল পর্যটকদের ভিড়।

সাঙ্গু নদীতে নৌকা নিয়েও ঘুরে বেড়িয়েছেন পর্যটকেরা। বলা যায় পর্যটকের পদচারণায় মুখরিত ছিলো জেলার দর্শণীয় স্থানগুলো। কিন্তু অন্য বছরের তুলনায় পর্যটকের সংখ্যা ছিল অনেক কম। হোটেল ফোরস্টারের স্বত্তাধিকারী রিপন চৌধুরী ও পালকি গেষ্টহাউজের ম্যানেজার মোহাম্মদ শাহীন বলেন, মুষ্টিমেয় কয়েকটা রিসোর্ট-হোটেল ছাড়া সবখানেই রুম ফাঁকা ছিল এবার। গত কয়েক বছর ঈদের অনেক আগেই হোটেলের সব রুম বুকড হয়ে যেতো।

রমজান মাস জুড়ে ফাঁকা ছিলো। ঈদের ছুটিতেও পর্যটকের আগমন না ঘটায় ব্যবসায়ীকভাবে লোকসান গুনতে হচ্ছে তাদের। এ ক্ষতি পুষিয়ে নিতে অনেক সময় লাগবে।

আবাসিক হোটেল-মোটেল মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম বলেন, পর্যটন শিল্পের সঙ্গে সংশ্লিষ্ঠ ব্যবসায়ীরা সারাবছর আশায় থাকে ঈদে জমে উঠবে পর্যটন ব্যবসা। কিন্তু পাহাড়ে আধিপাত্য বিস্তারের দ্বন্দে অপহরণ-হত্যা’সহ সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের খবর গণমাধ্যমে প্রচার হওয়ায় বিরুপ প্রভাব পড়েছে পর্যটন শিল্পে।

আতঙ্কে আশানুরুপ পর্যটকের আগমন ঘটেনি এবছর। এটি পর্যটন শিল্প এবং ব্যবসায়ীদের জন্য ক্ষতির কারণ হয়ে দাড়িয়েছে।

পুলিশ সুপার জাকির হোসেন মজুমদার বলেন, সাম্প্রতিক সময়ে আধিপাত্য বিস্তারের দ্বন্দ্বে বান্দরবানে অপহরণ-হত্যার ঘটনা ঘটেছে। এগুলো পর্যটন শিল্পের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কিছু নয়।

ঘটনাস্থলগুলোও পর্যটন এরিয়া থেকে অনেক দূরে। এ অঞ্চলে ভ্রমনপিপাসু পর্যটকদের নিরাপদ-আরামদায়ক ভ্রমন নিশ্চিত করতে ট্যুরিস্ট পুলিশসহ প্রশাসন-আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা নিয়োজিত রয়েছেন। এখানে আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই। পর্যটকদের ভ্রমনে কোথাও কোনো ধরণের ঝুকি নেই।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×