সুনামগঞ্জে পরিবহন সেক্টরে নৈরাজ্য ঠেকাতে প্রতিবাদ

প্রকাশ : ১৫ জুন ২০১৯, ১১:৪৩ | অনলাইন সংস্করণ

  যুগান্তর রিপোর্ট, তাহিরপুর

সুনামগঞ্জ-সিলেট আঞ্চলিক সড়কে চালু হওয়া বিআরটিসির বাস চলাচল বন্ধ করে দেয়ার চক্রান্তের অংশ হিসাবে ফের ২৩ জুন থেকে অনির্দিষ্টকালের পরিবহন ধর্মঘটের ডাক দিয়েছেন পরিবহন মালিকরা।

এরই পরিপ্রেক্ষিতে আজ শনিবার বিকেল ৪টায় পরিবহন মালিক শ্রমিকদের ধর্মঘটের প্রতিবাদে জনমত গঠনে সিলেট-সুনামগঞ্জ নিরাপদ সড়ক স্বার্থ সংরক্ষণ কমিটি সিলেট-সুনামগঞ্জ সড়কের গোবিন্দগঞ্জ পয়েন্টে প্রতিবাদ সভার ডাক দিয়েছে।

একইভাবে রোববার বেলা ২টায় জেলা আইনজীবী সমিতি ভবনে তরুণ আইনজীবীদের উদ্যোগে পরিবহণ মালিকদের নৈরাজ্যের প্রতিবাদে ও বিআরটিসি বাস চালু রাখার সপক্ষে মতবিনিময় সভার ডাক দেয়া হয়েছে।

শনিবার সকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেন জেলা আইনজীবী সমিতির সদস্য অ্যাডভোকেট এনাম আহমেদ।

তিনি বলেন, বিভিন্ন শ্রেণিপেশার লোকজন পরিবহন সেক্টরে ধর্মঘটের নামে নৈরাজ্যকারীদের বিরুদ্ধে গণক্ষোভ প্রকাশ হচ্ছে।
 
এদিকে সুনামগঞ্জ সিলেট সড়কে বিআরটিসি বাস চালু রাখার পক্ষে এবং পরিবহন মালিকদের নৈরাজ্য বন্ধের দাবি জানিয়েছেন হাওর বাঁচাও সুনামগঞ্জ বাঁচাও আন্দোলনের নেতারা।

জেলা শহরে আনুষ্ঠানিকভাবে বৈঠক করে ওই পরিবহন মালিকদের ডাকা ধর্মঘটের তীব্র নিন্দা জানিয়ে পরিবহন সেক্টরে নৈরাজ্যে থামাতে সরকার ও প্রশাসনের প্রতি আহবান জানান সংগঠনের নেতৃবৃন্ধ।

গণমাধ্যম পরিবেশ ও মানবাধিকার কর্মী সাংবাদিক হাবিব সরোয়ার আজাদ বলেন, পরিবহন মালিকরা বিটিাআরসির বাস চলাচল ঠেকাকে অহেতুক অনৈতিক ধর্মঘটের ডাক দেয়ায় পরিবহন সেক্টরে নৈরাজ্য সৃষ্টিতে যে ষড়যন্ত্র’র ফাঁদ পাতা হয়েছে সেটি সাধারণ যাত্রী ও জেলার সচেতন মহল বুঝে গেছেন।

তাই এ ধর্মঘট ঠোকানোর পাল্টা প্রতিবাদে এখন ক্রমশই সোচ্চার ও প্রতিবাদী হয়ে উঠেছেন সুনামগঞ্জের সচেতন লোকজন।

সুনামগঞ্জ যাত্রীসংহতির সমন্বয়ক সাংবাদিক শামস শামীম বলেন, সুনামগঞ্জে পরিবহন মালিক-শ্রমিকদের অন্যায্য ও আইনবিরোধী কর্মকাণ্ড ঐক্যবদ্ধভাবে প্রতিরোধ করতে হবে।

উল্লেখ্য, গত ৩ জুন সুনামগঞ্জ-সিলেট সড়কে বিআরটিসি বাস চালু ঠেকাতে  ঘোষণা দিয়ে সুনামগঞ্জ পরিবহণ মালিক-শ্রমিক ঐক্যপরিষদ নামের সংগঠন সিলেট সুনামগঞ্জ সড়কে অনির্দিষ্টকালের জন্য কর্মবিরতির ডাক দেয়।

৩ জুন বিআরটিসি বাস উদ্বোধন করে নৈরাজ্য থেকে পরিবহন মালিক শ্রমিকদের সরে আসার আহ্বান জানান পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নান এমপি। তিনি সরকারকে দুর্বল ভেবে শক্তি প্রদর্শনে বাধ্য না করারও আহ্বান জানিয়েছে।