দামুড়হুদা সীমান্তে এক বাংলাদেশিকে পিটিয়ে হত্যা করেছে বিএসএফ

  দামুড়হুদা (চুয়াডাঙ্গা) প্রতিনিধি ১৪ অগাস্ট ২০১৯, ১৪:৪৯:২৪ | অনলাইন সংস্করণ

চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার ঠাকুরপুর সীমান্তে আবদুল্লাহ মণ্ডল (৪৬) নামে এক বাংলাদেশিকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে বিএসএফের বিরুদ্ধে।

নিহত আবদুল্লাহ মণ্ডল উপজেলার ঠাকুরপুর গ্রামের মৃত গোলাম রসুল মণ্ডলের ছেলে।

বুধবার ভোরে সীমান্ত অতিক্রম করে গরু আনতে গেলে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী তাকে পিটিয়ে হত্যা করেছে বলে অভিযোগ স্থানীয় গ্রামবাসীর।

তবে বিজিবির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, ঘটনাটি তদন্ত করা হচ্ছে। বুধবার দুপুরের দিকে দামুড়হুদা থানা পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা মর্গে প্রেরণ করেছে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য সাখার উদ্দীন জানান, বুধবার ভোরে আবদুল্লাহসহ ৩-৪ জন বাংলাদেশি ঠাকুরপুর সীমান্তে দিয়ে গরু আনতে যায়।

তারা সীমান্তের ৮৯-৯০ মেইন পিলারের কাছ দিয়ে প্রবেশ করলে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী-বিএসএফের মালুয়াপাড়া ক্যাম্পের সদস্যরা তাদের ধাওয়া দেন। এ সময় অপর তিন সদস্য পালিয়ে আসতে সক্ষম হলেও বিএসএফের হাতে ধরা পড়েন আবদুল্লাহ।

নিহত আবদুল্লাহর ভাই হাবিবুর রহমানের অভিযোগ, বিএসএফের হাতে ধরা পড়ার পর তাকে পিটিয়ে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়।

হত্যার পর তার লাশ ফেলে রেখে যাওয়া হয় সীমান্তের জিরো পয়েন্টে। খবর পেয়ে সকালে গ্রামবাসী লাশ উদ্ধার করে নিয়ে আসে।

দামুড়হুদা মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ সুকুমার বিশ্বাস জানান, আবদুল্লাহর শরীরের বেশ কয়েকটি স্থানে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তার লাশ উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

চুয়াডাঙ্গা-৬ বিজিবির পরিচালক লে. কর্নেল সাজ্জাদ সরোয়ার পিএসসি জানান, ঠাকুরপুর সীমান্তে এক বাংলাদেশি নাগরিকের লাশ উদ্ধারের খবর আমরা পেয়েছি। তবে কে বা কারা তাকে হত্যা করেছে এ বিষয়ে তদন্ত করা হচ্ছে।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত