ফুটবল খেলতে গিয়ে সাগরে ভেসে গেল মাদ্রাসাছাত্র

প্রকাশ : ১৪ আগস্ট ২০১৯, ২২:১৩ | অনলাইন সংস্করণ

  টেকনাফ (কক্সবাজার) প্রতিনিধি

কিশোরের সাগরে ভেসে যাওয়ার খবরে সৈকতে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা (ইনসেটে মো. আলী)

টেকনাফ সৈকতে ফুটবল খেলতে গিয়ে সাগরে ভেসে গেল মো. আলী নামে ১৪ বছরের এক কিশোর।

বুধবার বিকাল সোয়া ৪টার দিকে টেকনাফ সমুদ্র সৈকতের মহেষখালীয়া পাড়া পয়েন্টে এ ঘটনা ঘটে।

খবর পেয়ে টেকনাফ ফায়ার ব্রিগেড, কোস্টগার্ড ও পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে। কিন্তু কোনো উদ্ধার কাজ শুরু করতে পারেনি।

আলী টেকনাফ পৌরসভার ডেইল পাড়া এলাকার রমিজ আহমদের ছেলে। সে টেকনাফ বায়তুশ শরফ মাদ্রাসার নবম শ্রেণির ছাত্র ছিল।

ফায়ার ব্রিগেড টেকনাফ স্টেশনের ইনচার্জ মুকুল কুমার নাথ জানান, সাগরে উদ্ধার অভিযান চালানোর মতো টেকনাফ স্টেশনে কোনো ডুবুরী কিংবা কোন ইকুইপমেন্ট না থাকায় তারা উদ্ধার অভিযান চালাতে পারেননি।

সাগরে ভেসে যাওয়ার খবর পেয়ে নিখোঁজ ছাত্রের মা-বাবাসহ স্বজনরা সাগর পাড়ে ছুটে আসেন। নিখোঁজ ছাত্রের মা এসময় আহাজারি করতে করতে এক পর্যায়ে অজ্ঞান হয়ে গেলে তাকে হাসপাতালে পাঠিয়ে দেয়া হয়।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সমবয়সী একদল কিশোর ফুটবল খেলার এক পর্যায়ে সৈকতের অল্প পানিতে বলটি পড়লে সেটি নিতে গিয়ে হঠাৎ তলিয়ে যায়।

স্থানীয় জেলেরা জানান, ভাটার সময় সাধারণত সাগরে ভেসে যাওয়ার আশংকা থাকে। কিন্তু দুর্ঘটনার সময় সাগরে জোয়ার ছিল। সৈকতের বালি দিয়ে মেরিন ড্রাইভ সড়ক রক্ষার জিও ব্যাগের বালি ভর্তি করার ফলে সৈকতের অনেক স্থানে অগভীর গর্তের সৃষ্টি হয়েছে।

সেখানে একধরনের স্রোত সৃষ্টি হয়। সেরকম একটি গর্তে ভারসাম্য হারিয়ে ছাত্রটি তলিয়ে যায় বলে জানায় তারা।