ব‌রিশা‌লে আরও এক ডেঙ্গু রো‌গীর মৃত্যু
jugantor
ব‌রিশা‌লে আরও এক ডেঙ্গু রো‌গীর মৃত্যু

  ব‌রিশাল ব্যু‌রো  

২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:৪৯:১৩  |  অনলাইন সংস্করণ

বরিশাল শেরে-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল

বরিশাল শেরে-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আরও একজন ডেঙ্গু রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

শুক্রবার রাত সোয়া ৯টায় পারভীন বেগম (৩৫) নামে ওই ডেঙ্গু রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

পারভীন বেগম বরিশালের বানারীপাড়া উপজেলার তেতলা গ্রামের মো. ফায়জুল হকের স্ত্রী।

হাসপাতাল সূত্র জানায়, শুক্রবার দুপুর দেড়টার দিকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় পারভীনকে শেরে-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে তার অবস্থার অবনতি হলে তাকে আইসিইউতে প্রেরণ করে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাতে তার মৃত্যু হয়।

এ নিয়ে এই হাসপাতালে মোট ৯ জন ডেঙ্গু রোগীর মৃত্যু হলো।

এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে শেরে-ই বাংলা মেডিকেলে ভর্তি হয়েছে ২১ জন। একই সময়ে হাসপাতাল থেকে বিদায় নিয়েছে ২৩ জন। চিকিৎসাধীন আছেন ৮০ জন রোগী।

গত ১৬ জুলাই থেকে এ পর্যন্ত এই হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে ২ হাজার ৩৫২ জন ডেঙ্গু রোগী। একই সময়ে চিকিৎসায় সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ২ হাজার ২৬৩ জন। মারা গেছে ৯ জন।

ব‌রিশা‌লে আরও এক ডেঙ্গু রো‌গীর মৃত্যু

 ব‌রিশাল ব্যু‌রো 
২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১২:৪৯ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ
বরিশাল শেরে-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল
বরিশাল শেরে-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল

বরিশাল শেরে-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আরও একজন ডেঙ্গু রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

শুক্রবার রাত সোয়া ৯টায় পারভীন বেগম (৩৫) নামে ওই ডেঙ্গু রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

পারভীন বেগম বরিশালের বানারীপাড়া উপজেলার তেতলা গ্রামের মো. ফায়জুল হকের স্ত্রী।

হাসপাতাল সূত্র জানায়, শুক্রবার দুপুর দেড়টার দিকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় পারভীনকে শেরে-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে তার অবস্থার অবনতি হলে তাকে আইসিইউতে প্রেরণ করে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাতে তার মৃত্যু হয়।

এ নিয়ে এই হাসপাতালে মোট ৯ জন ডেঙ্গু রোগীর মৃত্যু হলো।

এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে শেরে-ই বাংলা মেডিকেলে ভর্তি হয়েছে ২১ জন। একই সময়ে হাসপাতাল থেকে বিদায় নিয়েছে ২৩ জন। চিকিৎসাধীন আছেন ৮০ জন রোগী।

গত ১৬ জুলাই থেকে এ পর্যন্ত এই হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে ২ হাজার ৩৫২ জন ডেঙ্গু রোগী। একই সময়ে চিকিৎসায় সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ২ হাজার ২৬৩ জন। মারা গেছে ৯ জন।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন