প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে ভুল করে চাচাতো ভাইয়ের পরিবর্তে চাচিকে খুন

  নেত্রকোনা প্রতিনিধি ২৪ অক্টোবর ২০১৯, ২২:২১ | অনলাইন সংস্করণ

এসপির প্রেস ব্রিফিং
এসপির প্রেস ব্রিফিং। ছবি: যুগান্তর

ফজলুর রহমান ফজলু (৩২) প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে চাচাতো ভাই আবিদ নূরকে খুন করতে গিয়ে ভুল করে তার মা সুজিদাকে খুন করেছেন বলে প্রেস ব্রিফিংয়ে জানিয়েছেন নেত্রকোনার পুলিশ সুপার আকবর আলী মুন্সী।

বৃহস্পতিবার নেত্রকোনা জেলার বারহাট্টা উপজেলার চিরাম ইউনিয়নের খাশিকোনা গ্রামের মৃত সিদ্দিক মিয়ার স্ত্রী সুজিদা আক্তারের বিষয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা জানান।

প্রেস ব্রিফিংয়ে পুলিশ সুপার আকবর আলী মুন্সী বলেন, খাশিকোনা গ্রামের মতিউর রহমানের ছেলে তিন সন্তানের জনক ফজলুর রহমান ফজলু অভাব-অনটনের কারণে ধার-দেনায় ডুবে ছিলেন। পাওনাদারের চাপে উপায়ান্তর না দেখে অবশেষে তার চাচি মৃত সিদ্দিক মিয়ার স্ত্রী দাদন ব্যবসায়ী সুজিদা আক্তারের কাছে ১৫ হাজার টাকা ধার চান।

চাচি দেনায় ডুবে থাকা ভাতিজা ফজলুকে ধারে টাকা দিতে অস্বীকৃতি জানান। ফজলু ক্ষিপ্ত হয়ে বিষয়টি তারই চাচাতো ভাই সুজিদার ছেলে আবিদ নূরের কাছে বিচার দিলে উল্টো আবিদ নূর ফজলুকে গালিগালাজ করে। এতে আবিদ নূরের প্রতি ফজলুর চরম ক্ষোভের সৃষ্টি হয়।

এ দিকে খাশিকোনা গ্রামের সামনের বিলে মাছ ধরাকে কেন্দ্র করে গ্রামে দুটি গ্রুপের সৃষ্টি হয়। ফজলু ও আবিদ নূর একই গ্রুপের লোক। এ নিয়ে দুই গ্রুপের মধ্যে দ্বন্দ্ব-কলহ ও মামলা-মোকাদ্দমা চলে আসছিল। আবিদ নূরের প্রতি ফজলু মিয়ার চরম ক্ষোভ ও প্রতিহিংসা চরিতার্থ করা এবং প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতেই ফজলু মিয়া আবিদ নূরকে খুন করার পরিকল্পনা করে।

পরিকল্পনা মাফিক গত ২২ অক্টোবর রাত দেড়টার দিকে আবিদ নূরের বসতঘরের পিছনের দরজা খুলে ঘরে প্রবেশ করে খাটে শয়নকৃত সুজিদা খাতুনকে আবিদ নূর মনে করে ছুরিকাঘাত করে। তাকে আশংকাজনক অবস্থায় নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক সুজিদাকে মৃত ঘোষণা করেন।

ঘটনার খবর পেয়ে পুলিশ সুপারসহ অন্য কর্মকর্তাগণ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে হত্যার প্রকৃত রহস্য উদঘাটনে নেমে পড়ে। পুলিশ তদন্তকালে ফজলুর রহস্যজনক আচরণ ও প্রতিপক্ষের ১৭ জনের নামে মামলা দিতে দেয়ার অতি উৎসাহ দেখে পুলিশের সন্দেহ হয়।

ফজলুকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করলে একপর্যায়ে সে আবিদ নূরকে খুন করতে গিয়ে ভুলবশত এ হত্যাকাণ্ড ঘটনানোর কথা স্বীকার করে। পরে সে জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করে।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×