ঘণ্টায় ঘণ্টায় বাড়ছে পেঁয়াজের দাম, অভয়নগরে প্রতি কেজি ২৬০ টাকা!

  অভয়নগর (যশোর) প্রতিনিধি ১৫ নভেম্বর ২০১৯, ২৩:৫২ | অনলাইন সংস্করণ

অভয়নগরে প্রতি কেজি পেঁয়াজ ২৬০ টাকা
অভয়নগরে প্রতি কেজি পেঁয়াজ ২৬০ টাকা

যশোরের অভয়নগর উপজেলার নওয়াপাড়া বাজারে গত ১২ ঘণ্টার ব্যবধানে পেঁয়াজের দাম কেজি প্রতি ৪০ টাকা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৬০ টাকায়।

বৃহস্পতিবার পেঁয়াজের দাম ছিল কেজি প্রতি ২২০ টাকা। মাত্র ১২ঘণ্টার ব্যবধানে শুক্রবার সকালে বাজারে কেজি প্রতি পেঁয়াজ বিক্রি হয়েছে ২৫০-২৬০ টাকায়।

মঙ্গলবার এক কেজি পেঁয়াজের মূল্য ছিল ১৪০ টাকা, বুধবার তা বেড়ে দাঁড়ায় ১৮০ টাকায়, বৃহস্পতিবার সেই পেঁয়াজের মূল্য দাঁড়ায় ২২০ টাকায়।

ঘণ্টায় ঘণ্টায় পেঁয়াজের দাম বেড়ে যাওয়ায় সাধারণ ক্রেতাদের মধ্যে প্রচণ্ড ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। সাধারণ ক্রেতারা বাজার মনিটরিংয়ের জোর দাবি জানিয়েছেন।

শুক্রবার সরেজমিনে উপজেলার প্রধান বাজার নওয়াপাড়া ঘুরে দেখা গেছে, পেঁয়াজ কিনতে আসা বুইকরা গ্রামের রেজাউল ইসলাম জানান- দুদিন আগে ১৫০ টাকা কেজি দরে পেঁয়াজ কিনেছি, আজ হঠাৎ ২৬০ টাকা হওয়ায় আমার পেঁয়াজ কেনা সম্ভব হয়নি।

বাগদহ গ্রামের বাসিন্দা মোসলেম বিশ্বাস জানান, ২৫০টাকা দরে তিনি ২৫০ গ্রাম পেঁয়াজ কিনেছেন।

গুয়াখোলা গ্রামের মিজান বলেন, ২৬০ টাকায় এক কেজি পেঁয়াজ কিনেছেন তিনি। বাজারের অসংখ্য ক্রেতাদের অভিযোগ নওয়াপাড়া বাজার মনিটরিং ব্যবস্থা না থাকায় খুচরা ও পাইকারি ব্যবসায়ীরা তাদের খেয়াল খুশি মতো দাম বাড়িয়ে চলেছেন। তারা অতিদ্রুত বাজার মনিটরিং ব্যবস্থা কার্যকর করার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ দাবি করেন।

নওয়াপাড়া বাজারের খুচরা পেঁয়াজ ব্যবসায়ী মোস্তফা শেখ বলেন, বাজারের পাইকারি দোকানদার নাসির সরদারের কাছ থেকে ২০ কেজি পেঁয়াজ ২৪০ টাকা দরে কিনে তা ২৫০ টাকা দরে বিক্রি করছি।

খুচরা ব্যবসায়ী আলামিন মোল্যা জানান, নাসির সরদারের কাছ থেকে ২৩০ টাকা দরে পেঁয়াজ কিনে তিনি ২৪০ টাকায় বিক্রি করছেন।

বাজারের আড়ৎদার নূর আলী জানান, পেঁয়াজের দাম বেশি হওয়ায় তিনি পেঁয়াজ কেনেননি।

বাজার ঘুরে জানা গেছে, শুক্রবার সকালে বাচ্চু কাজীর মেসার্স সততা ভাণ্ডার থেকে ৯ বস্তা, নাসির সরদারের মেসার্স আল্লার দান ভাণ্ডার থেকে ১০ বস্তা এবং ফরিদ সরদারের মেসার্স সরদার বীজ ভাণ্ডারের আড়ত থেকে ৬ বস্তা পেঁয়াজ ২২০ টাকা থেকে ২৪০ টাকায় কেজি প্রতি পাইকারি হিসেবে বিক্রি করেছেন। সব মিলিয়ে শুক্রবার সকালে ফরিদপুরের কালিনগর বাজার থেকে আসা এই ২৫ বস্তা পেঁয়াজ আড়তদাররা চড়া মূল্যে বিক্রি করেছেন।

পাইকারি আড়তে পেঁয়াজ না থাকায় অনেক খুচরা ব্যবসায়ীকে পেঁয়াজ না কিনে ফেরত যেতে দেখা গেছে। চাহিদার তুলনায় বাজারে পেঁয়াজ সরবরাহ কম থাকায় অনেক আড়তদার তাদের আড়ত বন্ধ রেখেছেন।

ঘটনাপ্রবাহ : পেঁয়াজের মূল্যবৃদ্ধি

আরও
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×