কুমিল্লায় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবক নিহত, পুলিশের দাবি ডাকাত সর্দার
jugantor
কুমিল্লায় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবক নিহত, পুলিশের দাবি ডাকাত সর্দার

  যুগান্তর রিপোর্ট  

০১ ডিসেম্বর ২০১৯, ০৯:৪৭:৫৫  |  অনলাইন সংস্করণ

কুমিল্লায় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবক নিহত, পুলিশের দাবি ডাকাত সর্দার
ফাইল ছবি

কুমিল্লার চান্দিনা উপজেলায় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ এক যুবক নিহত হয়েছেন। নিহতের নাম দেলোয়ার হোসেন দেলু (৩৬)।

পুলিশের দাবি, নিহত দেলু ডাকাত দলের সর্দার। তার বিরুদ্ধে ডাকাতি ও অস্ত্রসহ সাতটি মামলা রয়েছে। নিহত দেলু চান্দিনা উপজেলার ফতেহপুর গ্রামের আবদুল বারেক মিয়ার ছেলে। 

শনিবার রাত পৌনে ৩টায় চান্দিনা উপজেলার শ্রীমন্তপুর সীমানার তুলাতলী কড়াইগাছ তলা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনাস্থল থেকে একটি পাইপগান, দুই রাউন্ড গুলি, তিনটি ছেনি, একটি দরজা ভাঙার শাবল ও একটি তালা ভাঙার শাবল উদ্ধার করেছে পুলিশ।

চান্দিনা থানার এসআই গিয়াস উদ্দিন জানান, রাতে উপজেলার তুলাতলী গ্রামের একটি বাড়িতে ডাকাতি করার উদ্দেশ্যে ডাকত দল তুলাতলী-শ্রীমন্তপুর ও এতবারপুর সীমানায় সংঘবদ্ধ হয়। এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ওই এলাকায় অভিযানে যায় পুলিশ।

ডাকাত দল পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে গুলি ছুড়তে শুরু করে। পুলিশও আত্মরক্ষার্থে ২৫ রাউন্ড গুলি ছোড়ে। একপর্যায়ে গোলাগুলি থেমে গেলে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ডাকাত সর্দার দেলুকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করে। এ সময় অন্য ডাকাতরা পালিয়ে যায়।

দেলুকে উদ্ধার করে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিলে সেখানে দায়িত্বরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ ঘটনায় ওসিসহ পুলিশের চার সদস্য আহত হয়েছেন। তারা হলেন- চান্দিনা থানার ওসি মো. আবুল ফয়সল, উপপরিদর্শক আহাদুজ্জামান, কনস্টেবল রেহান উদ্দিন ও সায়েম খান। তাদের চান্দিনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

কুমিল্লায় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবক নিহত, পুলিশের দাবি ডাকাত সর্দার

 যুগান্তর রিপোর্ট 
০১ ডিসেম্বর ২০১৯, ০৯:৪৭ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ
কুমিল্লায় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবক নিহত, পুলিশের দাবি ডাকাত সর্দার
ফাইল ছবি

কুমিল্লার চান্দিনা উপজেলায় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ এক যুবক নিহত হয়েছেন। নিহতের নাম দেলোয়ার হোসেন দেলু (৩৬)।

পুলিশের দাবি, নিহত দেলু ডাকাত দলের সর্দার। তার বিরুদ্ধে ডাকাতি ও অস্ত্রসহ সাতটি মামলা রয়েছে। নিহত দেলু চান্দিনা উপজেলার ফতেহপুর গ্রামের আবদুল বারেক মিয়ার ছেলে।

শনিবার রাত পৌনে ৩টায় চান্দিনা উপজেলার শ্রীমন্তপুর সীমানার তুলাতলী কড়াইগাছ তলা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনাস্থল থেকে একটি পাইপগান, দুই রাউন্ড গুলি, তিনটি ছেনি, একটি দরজা ভাঙার শাবল ও একটি তালা ভাঙার শাবল উদ্ধার করেছে পুলিশ।

চান্দিনা থানার এসআই গিয়াস উদ্দিন জানান, রাতে উপজেলার তুলাতলী গ্রামের একটি বাড়িতে ডাকাতি করার উদ্দেশ্যে ডাকত দল তুলাতলী-শ্রীমন্তপুর ও এতবারপুর সীমানায় সংঘবদ্ধ হয়। এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ওই এলাকায় অভিযানে যায় পুলিশ।

ডাকাত দল পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে গুলি ছুড়তে শুরু করে। পুলিশও আত্মরক্ষার্থে ২৫ রাউন্ড গুলি ছোড়ে। একপর্যায়ে গোলাগুলি থেমে গেলে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ডাকাত সর্দার দেলুকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করে। এ সময় অন্য ডাকাতরা পালিয়ে যায়।

দেলুকে উদ্ধার করে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিলে সেখানে দায়িত্বরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ ঘটনায় ওসিসহ পুলিশের চার সদস্য আহত হয়েছেন। তারা হলেন- চান্দিনা থানার ওসি মো. আবুল ফয়সল, উপপরিদর্শক আহাদুজ্জামান, কনস্টেবল রেহান উদ্দিন ও সায়েম খান। তাদের চান্দিনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন