নাটোরে ওজু করে নামাজ পড়ার আগে গৃহবধূ খুন

  গুরুদাসপুর (নাটোর) প্রতিনিধি ১৬ জানুয়ারি ২০২০, ১৩:১৪:৩০ | অনলাইন সংস্করণ

ফাইল ছবি

নাটোরের গুরুদাসপুর উপজেলায় ওজু করে ঘরে নামাজ পড়ার আগে দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে এক গৃহবধূ খুন হয়েছেন। নিহতের নাম মনোয়ারা বেগম (৬২)।

বৃহস্পতিবার ভোরে পৌরসভার পাড়-গুরুদাসপুর মহল্লার নিজ বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মনোয়ারা বেগম একই এলাকার মুক্তিযোদ্ধা ও অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক মো. হাতেম আলীর স্ত্রী।

জানা যায়, স্বামী মো. হাতেম আলী বাড়ির পাশের একটি মসজিদে ফজরের নামাজ আদায় করতে যান। মনোয়ারা বেগমও নামাজের জন্য ওজু করে ঘরের ভেতর ঢুকেন। এ সময় পেছন থেকে এসে অজ্ঞাত দুর্বৃত্তরা এলোপাতাড়িভাবে পিঠে ছুরিকাঘাত করে।

এতে তিনি বারান্দায় লুটিয়ে পড়লে তার গোলায় স্বর্ণের চেইন নিয়ে পালিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা।

প্রতিবেশীরা জানান, ঘটনার পর নিহত মনোয়ারা বেগমের বাড়ির ভেতর থেকে গোঙানির শব্দ পাওয়া যায়। এতে বাড়ির ভেতর ঢুকে ঘরের দরজায় রক্তাক্ত অবস্থায় মনোয়ারা বেগমের নিথর দেহ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেয়া হয়।

নিহতের স্বামী হাতেম আলী কান্নাজড়িত কণ্ঠে জানান, দুই ছেলে, এক মেয়ে নিয়ে সুখের সংসার ছিল নিহত মনোয়ারা বেগমের। বড় ছেলে মনজুর আলম পেশায় প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক, দ্বিতীয় ছেলে মোর্শেদুল হাসান প্রকৌশলী; আর একমাত্র মেয়ে মিনু বিসিএসে (ননক্যাডার) সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ে চাকরি করছেন।

জীবনবাজি রেখে দেশ স্বাধীন করেছি। স্বাধীন দেশে শিক্ষকতা করে মানুষ তৈরি করেছি। জীবনের সায়ন্তে এসে সন্ত্রাসীদের হাতে স্ত্রী খুন হবে এমন বিশ্বাস ছিল না।

গুরুদাসপুর থানার ওসি (তদন্ত) মো. আনারুল ইসলাম জানান, পুলিশ নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে নাটোর সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায়। হত্যার কারণ অনুসন্ধানে পুলিশ কাজ করছে।

অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে কঠোর শাস্তি দাবি জানান তিনি।

গুরুদাসপুর থানার ইন্সপেক্টর (তদন্ত) মো. আনারুল ইসলাম জানান, কেন, কী কারণে হত্যাকাণ্ডটি সংঘটিত হয়েছে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক ও বীর মুক্তিযোদ্ধার স্ত্রীর হত্যার রহস্য উদ্ঘাটনে সিংড়া সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার জামিল আকতার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত