মেহেরপুর সীমান্তে বাংলাদেশিকে তুলে নিয়ে গেছে বিএসএফ
jugantor
মেহেরপুর সীমান্তে বাংলাদেশিকে তুলে নিয়ে গেছে বিএসএফ

  মেহেরপুর প্রতিনিধি  

১৭ জানুয়ারি ২০২০, ২১:২৩:৫৬  |  অনলাইন সংস্করণ

বিএসএফ
বিএসএফ। ফাইল ছবি

মেহেরপুরে মিলন হোসেন নামে এক বাংলাদেশি কৃষককে তুলে নিয়ে গেছে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী-বিএসএফ।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় সদর উপজেলার সীমান্ত গ্রাম কুতুবপুর ইউনিয়নের শোলমারির মাঠ থেকে তাকে তুলে নিয়ে যায়। শুক্রবার কোম্পানি কমান্ডার পর্যায়ে পতাকা বৈঠকে ঘটনা অস্বীকার করেছে বিএসএফ।

মিলন হোসেন ওই গ্রামের মোয়াজ্জেম হোসেনের ছেলে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য রফিকুল ইসলাম জানান, সীমান্তের  ১২৯নং পিলারের কাছে নিজ জমিতে কাজ করছিলেন মিলন। সন্ধ্যায় কাজ শেষ করে বাড়ি ফেরার প্রস্তুতিকালে ৮৪ বিএসএফ নন্দনপুর ক্যাম্পের সদস্যরা এসে তাকে ধরে নিয়ে যায়। ঘটনার পর মিলন হোসেনকে ফেরত চেয়ে ৬ বিজিবির পক্ষ থেকে বিএসএফের কাছে চিঠি পাঠানো হয়।

বিজিবি শোলমারী বিওপি কমান্ডার সুবেদার আবদুল মান্নান জানান, শুক্রবার সকাল ১০টা থেকে বেলা ১১টা ১০ মিনিট পর্যন্ত আন্তর্জাতিক সীমান্ত পিলার ১২৯/৫এস-এর কাছে উভয় দেশের বিওপি কমান্ডার পর্যায়ে পতাকা বৈঠক হয়েছে। বৈঠকে বিএসএফ মিলন হোসেনকে তুলে নেয়নি বলে জানিয়েছে। তবে স্বজনরা মিলন হোসেনকে তুলে নেয়ার অভিযোগ করেছেন।

মেহেরপুর সীমান্তে বাংলাদেশিকে তুলে নিয়ে গেছে বিএসএফ

 মেহেরপুর প্রতিনিধি 
১৭ জানুয়ারি ২০২০, ০৯:২৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
বিএসএফ
বিএসএফ। ফাইল ছবি

মেহেরপুরে মিলন হোসেন নামে এক বাংলাদেশি কৃষককে তুলে নিয়ে গেছে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী-বিএসএফ।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় সদর উপজেলার সীমান্ত গ্রাম কুতুবপুর ইউনিয়নের শোলমারির মাঠ থেকে তাকে তুলে নিয়ে যায়। শুক্রবার কোম্পানি কমান্ডার পর্যায়ে পতাকা বৈঠকে ঘটনা অস্বীকার করেছে বিএসএফ।

মিলন হোসেন ওই গ্রামের মোয়াজ্জেম হোসেনের ছেলে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য রফিকুল ইসলাম জানান, সীমান্তের ১২৯নং পিলারের কাছে নিজ জমিতে কাজ করছিলেন মিলন। সন্ধ্যায় কাজ শেষ করে বাড়ি ফেরার প্রস্তুতিকালে ৮৪ বিএসএফ নন্দনপুর ক্যাম্পের সদস্যরা এসে তাকে ধরে নিয়ে যায়। ঘটনার পর মিলন হোসেনকে ফেরত চেয়ে ৬ বিজিবির পক্ষ থেকে বিএসএফের কাছে চিঠি পাঠানো হয়।

বিজিবি শোলমারী বিওপি কমান্ডার সুবেদার আবদুল মান্নান জানান, শুক্রবার সকাল ১০টা থেকে বেলা ১১টা ১০ মিনিট পর্যন্ত আন্তর্জাতিক সীমান্ত পিলার ১২৯/৫এস-এর কাছে উভয় দেশের বিওপি কমান্ডার পর্যায়ে পতাকা বৈঠক হয়েছে। বৈঠকে বিএসএফ মিলন হোসেনকে তুলে নেয়নি বলে জানিয়েছে। তবে স্বজনরা মিলন হোসেনকে তুলে নেয়ার অভিযোগ করেছেন।