আসামির সহযোগীদের হামলায় এসআইসহ ৩ পুলিশ আহত
jugantor
আসামির সহযোগীদের হামলায় এসআইসহ ৩ পুলিশ আহত

  গাইবান্ধা প্রতিনিধি  

১৯ জানুয়ারি ২০২০, ১৯:৪৮:৫২  |  অনলাইন সংস্করণ

গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলায় প্রতারণাসহ একাধিক মামলার আসামি ফরহাদ হোসেনকে (৩৫) আটকের সময় পুলিশের ওপর হামলা করেছে তার সহযোগীরা। এতে এক এসআইসহ ৩ পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন।

রোববার সকাল ১০টার দিকে উপজেলার মনোহরপুর ইউনিয়নের টাকশালপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে।

এই ঘটনায় পাঁচজনকে আটক করেছে পুলিশ। আহত পুলিশ সদস্যদের গাইবান্ধা জেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
  
পুলিশ ও স্থানীয় লোকজন জানায়, পলাশবাড়ীর টাকশালপাড়ার মৃত খয়বর হোসেনের ছেলে ফরহাদ হোসেন প্রতারণাসহ একাধিক মামলার আসামি। ঢাকার একটি মামলায় ফরহাদকে আটকের জন্য ডিএমপির দুই পুলিশ সদস্য পলাশবাড়ী উপজেলার হরিণাবাড়ী তদন্ত কেন্দ্রের কয়েকজন পুলিশ সদস্যকে নিয়ে রোববার সকালে ফরহাদের বাড়িতে অভিযান চালায়।

এ সময় ফরহাদের অপকর্মের সঙ্গে জড়িত তার সহযোগীরা পুলিশের ওপর অতর্কিত হামলা চালিয়ে হাতকড়াসহ ফরহাদকে ছিনিয়ে নিয়ে পালিয়ে যায়।

ওই হামলার ঘটনায় এসআই  কৃষ্ণচন্দ্র রায়, কনস্টেবল শফি ও ডিএমপির কনস্টেবল ফারুকসহ তিন পুলিশ সদস্য আহত হন। পরে আহত পুলিশ সদস্যদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

অতর্কিত এই হামলার ঘটনায় হতবিহ্বল পুলিশ সদস্যরা দ্রুত ঘটনাটি গাইবান্ধার ঊর্ধ্বতন পুলিশের কর্মকর্তাদের জানালে অতিরিক্ত পুলিশ সেখানে পাঠানো হয়। তাদের অভিযানকালে টাকশাল গ্রামের একটি বাড়ি থেকে হাতকড়াসহ ফরহাদকে আটক করা হয়।

এ সময় পুলিশ ফরহাদের সহযোগী আরও চারজনকে আটক করে। আটককৃতরা হল- সাহেব আলীর ছেলে আফসার আলী, সাইফুল ইসলামের ছেলে আউয়াল, ছাত্তারের ছেলে গনি মিয়া ও ছলিম উদ্দিনের ছেলে রফিক।

হরিণাবাড়ী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের পরিদর্শক রাকিব হোসেন জানান, এ ঘটনায় তদন্ত কেন্দ্রে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

অপরদিকে এ ব্যাপারে পলাশবাড়ী থানার ওসি মাসুদার রহমান জানান, পুলিশের ওপর হামলাকারীদের ধরতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

আসামির সহযোগীদের হামলায় এসআইসহ ৩ পুলিশ আহত

 গাইবান্ধা প্রতিনিধি 
১৯ জানুয়ারি ২০২০, ০৭:৪৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলায় প্রতারণাসহ একাধিক মামলার আসামি ফরহাদ হোসেনকে (৩৫) আটকের সময় পুলিশের ওপর হামলা করেছে তার সহযোগীরা। এতে এক এসআইসহ ৩ পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন।

রোববার সকাল ১০টার দিকে উপজেলার মনোহরপুর ইউনিয়নের টাকশালপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে।

এই ঘটনায় পাঁচজনকে আটক করেছে পুলিশ। আহত পুলিশ সদস্যদের গাইবান্ধা জেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয় লোকজন জানায়, পলাশবাড়ীর টাকশালপাড়ার মৃত খয়বর হোসেনের ছেলে ফরহাদ হোসেন প্রতারণাসহ একাধিক মামলার আসামি। ঢাকার একটি মামলায় ফরহাদকে আটকের জন্য ডিএমপির দুই পুলিশ সদস্য পলাশবাড়ী উপজেলার হরিণাবাড়ী তদন্ত কেন্দ্রের কয়েকজন পুলিশ সদস্যকে নিয়ে রোববার সকালে ফরহাদের বাড়িতে অভিযান চালায়।

এ সময় ফরহাদের অপকর্মের সঙ্গে জড়িত তার সহযোগীরা পুলিশের ওপর অতর্কিত হামলা চালিয়ে হাতকড়াসহ ফরহাদকে ছিনিয়ে নিয়ে পালিয়ে যায়।

ওই হামলার ঘটনায় এসআই কৃষ্ণচন্দ্র রায়, কনস্টেবল শফি ও ডিএমপির কনস্টেবল ফারুকসহ তিন পুলিশ সদস্য আহত হন। পরে আহত পুলিশ সদস্যদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

অতর্কিত এই হামলার ঘটনায় হতবিহ্বল পুলিশ সদস্যরা দ্রুত ঘটনাটি গাইবান্ধার ঊর্ধ্বতন পুলিশের কর্মকর্তাদের জানালে অতিরিক্ত পুলিশ সেখানে পাঠানো হয়। তাদের অভিযানকালে টাকশাল গ্রামের একটি বাড়ি থেকে হাতকড়াসহ ফরহাদকে আটক করা হয়।

এ সময় পুলিশ ফরহাদের সহযোগী আরও চারজনকে আটক করে। আটককৃতরা হল- সাহেব আলীর ছেলে আফসার আলী, সাইফুল ইসলামের ছেলে আউয়াল, ছাত্তারের ছেলে গনি মিয়া ও ছলিম উদ্দিনের ছেলে রফিক।

হরিণাবাড়ী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের পরিদর্শক রাকিব হোসেন জানান, এ ঘটনায় তদন্ত কেন্দ্রে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

অপরদিকে এ ব্যাপারে পলাশবাড়ী থানার ওসি মাসুদার রহমান জানান, পুলিশের ওপর হামলাকারীদের ধরতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।