শ্রীপুরে দ্বিতীয় স্ত্রীকে তালাক, দুধগোসলে স্বামীকে প্রথম স্ত্রীর বরণ
jugantor
শ্রীপুরে দ্বিতীয় স্ত্রীকে তালাক, দুধগোসলে স্বামীকে প্রথম স্ত্রীর বরণ

  শ্রীপুর (গাজীপুর) প্রতিনিধি  

২০ জানুয়ারি ২০২০, ২৩:১২:৪৭  |  অনলাইন সংস্করণ

দুধ দিয়ে গোসল করিয়ে স্বামীকে নতুনরূপে বরণ করে নিয়েছেন প্রথম স্ত্রী
দুধ দিয়ে গোসল করিয়ে স্বামীকে নতুনরূপে বরণ করে নিয়েছেন প্রথম স্ত্রী

দ্বিতীয় স্ত্রীকে তালাক দেয়ার পর দুধ দিয়ে গোসল করিয়ে স্বামীকে নতুনরূপে বরণ করে নিয়েছেন প্রথম স্ত্রী।

অন্যদিকে গ্রামবাসী নিজেদের খরচে খিচুরি রান্না করে ডাকঢোল পিটিয়ে আনন্দ করেছেন।

রোববার রাতে গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার মাওনা ইউনিয়নের সিংগারদীঘি গ্রামে অভিনব এ ঘটনাটি ঘটেছে।

গ্রামবাসী জানান, সিংগারদীঘি গ্রামের মৃত কাজিম উদ্দিনের ছেলে আজিজুল হক (৩৭)। তিনি ২০০১ সালে পার্শ্ববর্তী ছলিংমোড় এলাকার আবদুল মজিদের মেয়ে তাজনাহারকে বিয়ে করেন। বিয়ের পর সুখ-স্বাচ্ছ্যন্দ্যেই কাটে তাদের সংসার। ওই দম্পতির ঘরে দু'জন সন্তান আছে।

কিন্তু ২০১৩ সালে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে সামান্য কথাকাটাকাটি থেকে মনোমালিন্যের সৃষ্টি হয়। এলাকার কিছু লোকের প্ররোচণায়  তিনি শিউলী আক্তার নামে একজনকে দ্বিতীয় বিয়ে করেন।

দ্বিতীয় বিয়ের পর থেকেই সংসারে ঝগড়াঝাটি লেগে থাকত। পরে আজিজুল নিজের ভুল বুঝতে পেরে আইনিভাবে দ্বিতীয় স্ত্রীকে ডিভোর্স দেন।

এ বিষয়ে আজিজুল হক বলেন, দ্বিতীয় বিয়ে করার পর থেকে সংসারে অশান্তি শুরু হয়। শান্তি ফেরাতে দ্বিতীয় স্ত্রীকে তালাক দিয়েছি। আমি ভালো হয়ে গেছি। জীবনে আর বিয়ে করব না। আল্লাহ আমাকে ক্ষমা করুক। পাশাপাশি জীবনে কেউ যেন দুই বিয়ে না করে তার অনুরোধ রইল।

তিনি আরও বলেন, আগের ভুল থেকে পরিশুদ্ধ হয়ে নতুন করে জীবন শুরু করতে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। গ্রামের মানুষ নিজেরাই আয়োজন করে ডাকঢোল পিটিয়ে খিচুড়ি খেয়েছেন। পাশাপাশি প্রথম স্ত্রী রোববার রাতেই দুধ দিয়ে গোসল করিয়ে আমাকে বরণ করেছেন।

শ্রীপুরে দ্বিতীয় স্ত্রীকে তালাক, দুধগোসলে স্বামীকে প্রথম স্ত্রীর বরণ

 শ্রীপুর (গাজীপুর) প্রতিনিধি 
২০ জানুয়ারি ২০২০, ১১:১২ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
দুধ দিয়ে গোসল করিয়ে স্বামীকে নতুনরূপে বরণ করে নিয়েছেন প্রথম স্ত্রী
দুধ দিয়ে গোসল করিয়ে স্বামীকে নতুনরূপে বরণ করে নিয়েছেন প্রথম স্ত্রী

দ্বিতীয় স্ত্রীকে তালাক দেয়ার পর দুধ দিয়ে গোসল করিয়ে স্বামীকে নতুনরূপে বরণ করে নিয়েছেন প্রথম স্ত্রী।

অন্যদিকে গ্রামবাসী নিজেদের খরচে খিচুরি রান্না করে ডাকঢোল পিটিয়ে আনন্দ করেছেন।

রোববার রাতে গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার মাওনা ইউনিয়নের সিংগারদীঘি গ্রামে অভিনব এ ঘটনাটি ঘটেছে।

গ্রামবাসী জানান, সিংগারদীঘি গ্রামের মৃত কাজিম উদ্দিনের ছেলে আজিজুল হক (৩৭)। তিনি ২০০১ সালে পার্শ্ববর্তী ছলিংমোড় এলাকার আবদুল মজিদের মেয়ে তাজনাহারকে বিয়ে করেন। বিয়ের পর সুখ-স্বাচ্ছ্যন্দ্যেই কাটে তাদের সংসার। ওই দম্পতির ঘরে দু'জন সন্তান আছে।

কিন্তু ২০১৩ সালে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে সামান্য কথাকাটাকাটি থেকে মনোমালিন্যের সৃষ্টি হয়। এলাকার কিছু লোকের প্ররোচণায় তিনি শিউলী আক্তার নামে একজনকে দ্বিতীয় বিয়ে করেন।

দ্বিতীয় বিয়ের পর থেকেই সংসারে ঝগড়াঝাটি লেগে থাকত। পরে আজিজুল নিজের ভুল বুঝতে পেরে আইনিভাবে দ্বিতীয় স্ত্রীকে ডিভোর্স দেন।

এ বিষয়ে আজিজুল হক বলেন, দ্বিতীয় বিয়ে করার পর থেকে সংসারে অশান্তি শুরু হয়। শান্তি ফেরাতে দ্বিতীয় স্ত্রীকে তালাক দিয়েছি। আমি ভালো হয়ে গেছি। জীবনে আর বিয়ে করব না। আল্লাহ আমাকে ক্ষমা করুক। পাশাপাশি জীবনে কেউ যেন দুই বিয়ে না করে তার অনুরোধ রইল।

তিনি আরও বলেন, আগের ভুল থেকে পরিশুদ্ধ হয়ে নতুন করে জীবন শুরু করতে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। গ্রামের মানুষ নিজেরাই আয়োজন করে ডাকঢোল পিটিয়ে খিচুড়ি খেয়েছেন। পাশাপাশি প্রথম স্ত্রী রোববার রাতেই দুধ দিয়ে গোসল করিয়ে আমাকে বরণ করেছেন।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন