বঙ্গোপসাগরে ট্রলারডুবিতে আরও ২ লাশ উদ্ধার
jugantor
বঙ্গোপসাগরে ট্রলারডুবিতে আরও ২ লাশ উদ্ধার

  টেকনাফ (কক্সবাজার) প্রতিনিধি  

১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১০:৩৬:০৯  |  অনলাইন সংস্করণ

বঙ্গোপসাগরে ট্রলারডুবিতে আরও ২ লাশ উদ্ধার
ফাইল ছবি

বঙ্গোপসাগরে মালেয়শিয়াগামী ট্রলারডুবির ঘটনায় আরও দুই মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ নিয়ে এ ঘটনায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২১ জনে দাঁড়িয়েছে।

সোমবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে সেন্টমার্টিনের পশ্চিম সৈকত এলাকা থেকে আরও দুজন পুরুষের মরদেহ উদ্ধার করেছে কোস্টগার্ড।

গত মঙ্গলবার ট্রলারডুবির পর ঘটনাস্থলেই ১৫ জনের মরদেহ উদ্ধার করা হলেও গত সাত দিনে আরও ছয়জনের মরদেহ উদ্ধার করা হলো।  

কোস্টগার্ড সেন্টমার্টিন স্টেশনের কমান্ডার লে. নাঈম-উল হক জানান, সেন্টমার্টিনের পশ্চিম সৈকত এলাকায় ভাসমান অবস্থায় আনুমানিক ৩০-৩৫ বছর বয়সী দুই পুরুষের মরদেহ উদ্ধার করে কোস্টগার্ড। উদ্ধার মরদেহ পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য টেকনাফ থানায় পাঠানো হয়। উদ্ধার ২১ মরদেহের মধ্যে ১৪ নারী, চার পুরুষ ও তিন শিশু। এদের মধ্যে ১১ জনের পরিচয় শনাক্ত করা হয়েছে। তারা সবাই রোহিঙ্গা।

 প্রসঙ্গত গত ১১ ফেব্রুয়ারি অবৈধভাবে সাগরপথে মালয়েশিয়া যাওয়ার সময় ১৩৮ যাত্রী নিয়ে একটি ট্রলার সেন্টমার্টিনের দক্ষিণে পাথরের সঙ্গে ধাক্কা লেগে পানিতে ডুবে যায়। এতে ঘটনাস্থলে ১৫ রোহিঙ্গার মৃত্যু হয়। একই সময় ৭৩ জনকে জীবিত উদ্ধার করা হয়েছিল।

ট্রলারডুবির মামলার তদন্ত কর্মকর্তা বাহারছড়া পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক লিয়াকত আলী জানান, এ ঘটনায় ১৯ জন দালালকে অভিযুক্ত করে থানায় মামলা করে কোস্টগার্ড।

ওই মামলায় এ পর্যন্ত ৯ জনকে আটক করে কারাগারে পাঠিয়েছে পুলিশ। উদ্ধার ২১ মৃরদেহের মধ্যে ১১ জনের পরিচয় শনাক্ত করেছেন স্বজনরা। তারা সবাই রোহিঙ্গা।

বঙ্গোপসাগরে ট্রলারডুবিতে আরও ২ লাশ উদ্ধার

 টেকনাফ (কক্সবাজার) প্রতিনিধি 
১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১০:৩৬ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ
বঙ্গোপসাগরে ট্রলারডুবিতে আরও ২ লাশ উদ্ধার
ফাইল ছবি

বঙ্গোপসাগরে মালেয়শিয়াগামী ট্রলারডুবির ঘটনায় আরও দুই মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ নিয়ে এ ঘটনায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২১ জনে দাঁড়িয়েছে।

সোমবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে সেন্টমার্টিনের পশ্চিম সৈকত এলাকা থেকে আরও দুজন পুরুষের মরদেহ উদ্ধার করেছে কোস্টগার্ড।

গত মঙ্গলবার ট্রলারডুবির পর ঘটনাস্থলেই ১৫ জনের মরদেহ উদ্ধার করা হলেও গত সাত দিনে আরও ছয়জনের মরদেহ উদ্ধার করা হলো।

কোস্টগার্ড সেন্টমার্টিন স্টেশনের কমান্ডার লে. নাঈম-উল হক জানান, সেন্টমার্টিনের পশ্চিম সৈকত এলাকায় ভাসমান অবস্থায় আনুমানিক ৩০-৩৫ বছর বয়সী দুই পুরুষের মরদেহ উদ্ধার করে কোস্টগার্ড। উদ্ধার মরদেহ পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য টেকনাফ থানায় পাঠানো হয়। উদ্ধার ২১ মরদেহের মধ্যে ১৪ নারী, চার পুরুষ ও তিন শিশু। এদের মধ্যে ১১ জনের পরিচয় শনাক্ত করা হয়েছে। তারা সবাই রোহিঙ্গা।

প্রসঙ্গত গত ১১ ফেব্রুয়ারি অবৈধভাবে সাগরপথে মালয়েশিয়া যাওয়ার সময় ১৩৮ যাত্রী নিয়ে একটি ট্রলার সেন্টমার্টিনের দক্ষিণে পাথরের সঙ্গে ধাক্কা লেগে পানিতে ডুবে যায়। এতে ঘটনাস্থলে ১৫ রোহিঙ্গার মৃত্যু হয়। একই সময় ৭৩ জনকে জীবিত উদ্ধার করা হয়েছিল।

ট্রলারডুবির মামলার তদন্ত কর্মকর্তা বাহারছড়া পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক লিয়াকত আলী জানান, এ ঘটনায় ১৯ জন দালালকে অভিযুক্ত করে থানায় মামলা করে কোস্টগার্ড।

ওই মামলায় এ পর্যন্ত ৯ জনকে আটক করে কারাগারে পাঠিয়েছে পুলিশ। উদ্ধার ২১ মৃরদেহের মধ্যে ১১ জনের পরিচয় শনাক্ত করেছেন স্বজনরা। তারা সবাই রোহিঙ্গা।