কেন্দুয়ায় রান্না করতে গিয়ে আগুনে পুড়ে নারীর মৃত্যু
jugantor
কেন্দুয়ায় রান্না করতে গিয়ে আগুনে পুড়ে নারীর মৃত্যু

  কেন্দুয়া( নেত্রকোনা) প্রতিনিধি  

১১ মার্চ ২০২০, ২০:০৭:৫২  |  অনলাইন সংস্করণ

নেত্রকোনার কেন্দুয়া উপজেলায় পরিবারের জন্য রান্না করতে গিয়ে আগুনে পুড়ে হেনা আক্তার (৩৫) এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে।

মঙ্গলবার রাতে উপজেলার কান্দিউড়া ইউনিয়নের দীঘলকুর্শা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত হেনা আক্তার ওই গ্রামের হেলিম মিয়ার স্ত্রী। হেনার ৩ মেয়ে রয়েছে। তার স্বামী হেলিম মিয়া ঢাকায় চাকরি করেন।

জানা গেছে, হেনা আক্তার একজন মৃগী রোগী। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় পরিবারের লোকজনের জন্য রান্না করছিলেন তিনি। এ সময় বাড়িতে পরিবারের অন্য কেউ ছিল না। রান্না করার সময় হঠাৎ মৃগী রোগ দেখা দেয় হেনার। এ সময় রান্নার চুলার আগুনের উপরে পড়ে যান তিনি। এতে তার শরীরের বেশির ভাগ অংশ দগ্ধ হয়।

পরে প্রতিবেশীরা তাকে উদ্ধার করে প্রথমে কেন্দুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এবং পরে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। কিন্তু তার অবস্থা আশঙ্কাজনক দেখে রাতেই ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানেই মারা যান তিনি।

বুধবার সকালে কেন্দুয়া থানার ওসি মোহাম্মদ রাশেদুজ্জামান এসব তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

কেন্দুয়ায় রান্না করতে গিয়ে আগুনে পুড়ে নারীর মৃত্যু

 কেন্দুয়া( নেত্রকোনা) প্রতিনিধি 
১১ মার্চ ২০২০, ০৮:০৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

নেত্রকোনার কেন্দুয়া উপজেলায় পরিবারের জন্য রান্না করতে গিয়ে আগুনে পুড়ে হেনা আক্তার (৩৫) এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে।

মঙ্গলবার রাতে উপজেলার কান্দিউড়া ইউনিয়নের দীঘলকুর্শা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত হেনা আক্তার ওই গ্রামের  হেলিম মিয়ার স্ত্রী। হেনার ৩ মেয়ে রয়েছে। তার স্বামী হেলিম মিয়া ঢাকায় চাকরি করেন।

জানা গেছে, হেনা আক্তার একজন মৃগী রোগী। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় পরিবারের লোকজনের জন্য রান্না করছিলেন তিনি। এ সময় বাড়িতে পরিবারের অন্য কেউ ছিল না। রান্না করার সময় হঠাৎ মৃগী রোগ দেখা দেয় হেনার। এ সময় রান্নার চুলার আগুনের উপরে পড়ে যান তিনি। এতে তার শরীরের বেশির ভাগ অংশ দগ্ধ হয়।

পরে প্রতিবেশীরা তাকে উদ্ধার করে প্রথমে কেন্দুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এবং পরে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। কিন্তু তার অবস্থা আশঙ্কাজনক দেখে রাতেই ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানেই মারা যান তিনি।

বুধবার সকালে কেন্দুয়া থানার ওসি মোহাম্মদ রাশেদুজ্জামান এসব তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন