নোয়াখালীতে গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু, দেবরকে গণধোলাই

  সোনাইমুড়ি (নোয়াখালী) প্রতিনিধি ৩১ মার্চ ২০২০, ২১:৩৩:৩৯ | অনলাইন সংস্করণ

গণধোলাই। প্রতীকী ছবি

নোয়াখালীর সোনাইমুড়িতে গৃহবধূ সেলিনা আক্তারের রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। এই ঘটনায় ক্ষুব্ধ হয়ে গৃহবধূর বাবার বাড়ির লোকজন সেলিনার দেবরকে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে।

মঙ্গলবার সকালে সোনাইমুড়ি পৌরসভার পাপুয়া গ্রামের নুর হোসেন মাস্টারের বাড়িতে এই ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানায়, প্রায় ১২ বছর আগে উপজেলার কালিকাপুর জব্বার মিয়ার মেয়ে সেলিনা আক্তারের সঙ্গে পাপুয়া গ্রামের আলী মিয়ার ছেলে আলমগীর হোসেনের বিয়ে হয়। তাদের সংসারে এক ছেলে ও দুই মেয়ে জন্ম রয়েছে। এক বছর আগে স্বামী আলমগীর প্রবাস থেকে বাড়ি আসার পর থেকেই স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে পারিবারিক কলহ চলছিল।

মঙ্গলবার সকালে স্বামী আলমগীর সেলিনার বাবার বাড়িতে মোবাইলে জানান, সেলিনা খুবই অসুস্থ; তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। পরে তার বাবার বাড়ির লোকজন হাসপাতালে গিয়ে সেলিনার মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখে। এ দিকে সেলিনাকে হাসপাতালে রেখেই তার স্বামী আলমগীর সটকে পড়ে।

এ সময় গৃহবধূর বাবার বাড়ির লোকজন সেখানে আলমগীরের ছোটভাই সালাউদ্দিন (৩৬) পেয়ে তাকে গণপিটুনি দিয়ে থানায় সোপর্দ করে। বর্তমানে আহত সালাউদ্দিন পুলিশি হেফাজতে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

নিহতের মা পেয়ারা বেগম বলেন, আমার মেয়ের স্বামী বিদেশ থেকে আসার পর একাধিকবার আমার মেয়েকে মারধর করেছে। এ কারণেই আমার মেয়ের মৃত্যু হয়েছে।

সোনাইমুড়ি থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) বলেন, আমরা লাশ উদ্ধার করেছি। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। শিগগিরই এই মৃত্যুর রহস্য উদঘাটন হবে।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত