সুস্থ হয়ে মাদ্রাসায় ফিরলেন আল্লামা শফী
jugantor
সুস্থ হয়ে মাদ্রাসায় ফিরলেন আল্লামা শফী

  হাটহাজারী প্রতিনিধি  

২৬ এপ্রিল ২০২০, ১৫:০৬:১৮  |  অনলাইন সংস্করণ

শফী

চিকিৎসা শেষে হাটহাজারী মাদ্রাসায় ফিরেছেন হেফাজত আমির আল্লামা শাহ আহমদ শফী।

রোববার দুপুর ১টা ৪০ মিনিটে হেলিকপ্টার যোগে তিনি হাটহাজারীতে পৌঁছান।

শফীর ছোট ছেলে ও হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের প্রচার সম্পাদক মাওলানা আনাস মাদানী যুগান্তরকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

গত ১১ এপ্রিল বিকালে বমি, মাথাব্যথা, শ্বাসকষ্ট এবং বার্ধক্যজনিত শারীরিক দুর্বলতাসহ নানা সমস্যা নিয়ে আল্লামা আহমদ শফী চট্টগ্রামের প্রবর্তক মোড়ের বেসরকারি হাসপাতাল সিএসসিআরে ভর্তি হন।

এর একদিন পর উন্নত চিকিৎসার জন্য এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে করে চট্টগ্রাম থেকে তাকে ঢাকার গেণ্ডারিয়ার আজগর আলী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

সেখানে অধ্যাপক ডা. মতিউর ইসলামের তত্ত্বাবধানে বিশেষজ্ঞ ডাক্তারদের মেডিকেল বোর্ডের মাধ্যমে তার চিকিৎসাসেবা দেয়া হয়।

প্রসঙ্গত, আল্লামা শফীর বয়স ১০৩ বছর। দীর্ঘদিন ধরে বার্ধক্যজনিত দুর্বলতার পাশাপাশি তিনি ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ, শ্বাসকষ্ট এবং হজমজনিত সমস্যায় ভুগছেন।

বার্ধক্যের কারণে এ সব রোগ দিন দিন অনিয়ন্ত্রিত হয়ে পড়ে। ফলে তাকে ঘন ঘন হাসপাতালে ভর্তিও হতে হয়।

চলতি বছরে এর আগেও কয়েক দফা অসুস্থ হয়ে তিনি বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা নিয়েছিলেন।

সুস্থ হয়ে মাদ্রাসায় ফিরলেন আল্লামা শফী

 হাটহাজারী প্রতিনিধি 
২৬ এপ্রিল ২০২০, ০৩:০৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
শফী
ফাইল ছবি- যুগান্তর

চিকিৎসা শেষে হাটহাজারী মাদ্রাসায় ফিরেছেন হেফাজত আমির আল্লামা শাহ আহমদ শফী।

রোববার দুপুর ১টা ৪০ মিনিটে হেলিকপ্টার যোগে তিনি হাটহাজারীতে পৌঁছান। 

শফীর ছোট ছেলে ও হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের প্রচার সম্পাদক মাওলানা আনাস মাদানী যুগান্তরকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। 

গত ১১ এপ্রিল বিকালে বমি, মাথাব্যথা, শ্বাসকষ্ট এবং বার্ধক্যজনিত শারীরিক দুর্বলতাসহ নানা সমস্যা নিয়ে আল্লামা আহমদ শফী চট্টগ্রামের প্রবর্তক মোড়ের বেসরকারি হাসপাতাল সিএসসিআরে ভর্তি হন।

এর একদিন পর উন্নত চিকিৎসার জন্য এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে করে চট্টগ্রাম থেকে তাকে ঢাকার গেণ্ডারিয়ার আজগর আলী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। 

সেখানে অধ্যাপক ডা. মতিউর ইসলামের তত্ত্বাবধানে বিশেষজ্ঞ ডাক্তারদের মেডিকেল বোর্ডের মাধ্যমে তার চিকিৎসাসেবা দেয়া হয়। 

প্রসঙ্গত, আল্লামা শফীর বয়স ১০৩ বছর। দীর্ঘদিন ধরে বার্ধক্যজনিত দুর্বলতার পাশাপাশি তিনি ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ, শ্বাসকষ্ট এবং হজমজনিত সমস্যায় ভুগছেন। 

বার্ধক্যের কারণে এ সব রোগ দিন দিন অনিয়ন্ত্রিত হয়ে পড়ে। ফলে তাকে ঘন ঘন হাসপাতালে ভর্তিও হতে হয়। 

চলতি বছরে এর আগেও কয়েক দফা অসুস্থ হয়ে তিনি বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা নিয়েছিলেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন