কোম্পানীগঞ্জে ‘এরশাদ শিকদার’ খ্যাত মোজাম্মেল মেম্বার গ্রেফতার
jugantor
কোম্পানীগঞ্জে ‘এরশাদ শিকদার’ খ্যাত মোজাম্মেল মেম্বার গ্রেফতার

  কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি  

২৩ মে ২০২০, ১৬:৪৪:২৪  |  অনলাইন সংস্করণ

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার চরএলাহী ইউনিয়নের বিচ্ছিন্ন অঞ্চল গাংচিলের ‘এরশাদ শিকদার’ খ্যাত শীর্ষ সন্ত্রাসী, একাধিক হত্যা ও ডাকাতি মামলার আসামি মোজাম্মেল হোসেন ওরফে মোজাম্মেল মেম্বারকে (৩৭) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। পরে তার বাহিনীর সদস্য মো. আজাদকেও (২৪) গ্রেফতার করা হয়।

শুক্রবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে কবিরহাট উপজেলার ঘোষবাগ ইউনিয়নের নতুন শাহজীরহাট এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। মোজাম্মেল মেম্বার গাংচিল এলাকার মৃত মোহাম্মদ হোসেনের ছেলে। সে ৮নং ওয়ার্ডের বর্তমান ইউপি সদস্য।

পুলিশ জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কোম্পানীগঞ্জ থানার পুলিশ পরিদর্শক রবিউল হকের নেতৃত্বে ঘোষবাগ ইউনিয়নের নতুন শাহজীরহাট এলাকায় অভিযান চালানো হয়। এ সময় ব্যবসায়ী রাশেদ রানা হত্যা মামলার প্রধান আসামি মোজাম্মেল মেম্বারকে গ্রেফতার করা হয়। পরে গাংচিল এলাকায় অভিযান চালিয়ে মোজাম্মেল বাহিনীর সক্রিয় সদস্য ও তার ভাতিজা আজদকে গ্রেফতার করা হয়ে।

কোম্পানীগঞ্জ থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত)রবিউল হক বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, মোজাম্মেল মেম্বারের বিরুদ্ধে হত্যা, ধর্ষণ, ডাকাতি, লুট ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে ২৪টির বেশি মামলা রয়েছে। শনিবার দুপুরে গ্রেফতারকৃতদের নোয়াখালী জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।

গত ৯ মে শনিবার কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার চরএলাহী ইউনিয়নের কিল্লার বাজারের অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে তুলে নিয়ে রাশেদ রানা (৩৫) নামে একজন ব্যবসায়ীকে পিটিয়ে, কুপিয়ে হত্যা করে মোজাম্মেল ও তার লোকজন। এ ঘটনায় ১১ মে নিহতের স্ত্রী বাদী হয়ে মোজাম্মেল মেম্বারকে প্রধান আসামি করে একটি হত্যা মামলা করেন। এ দুজনসহ মামলার মোট ৫ আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

কোম্পানীগঞ্জে ‘এরশাদ শিকদার’ খ্যাত মোজাম্মেল মেম্বার গ্রেফতার

 কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি 
২৩ মে ২০২০, ০৪:৪৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার চরএলাহী ইউনিয়নের বিচ্ছিন্ন অঞ্চল গাংচিলের ‘এরশাদ শিকদার’ খ্যাত শীর্ষ সন্ত্রাসী, একাধিক হত্যা ও ডাকাতি মামলার আসামি মোজাম্মেল হোসেন ওরফে মোজাম্মেল মেম্বারকে (৩৭) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। পরে তার বাহিনীর সদস্য মো. আজাদকেও (২৪) গ্রেফতার করা হয়।

শুক্রবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে কবিরহাট উপজেলার ঘোষবাগ ইউনিয়নের নতুন শাহজীরহাট এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। মোজাম্মেল মেম্বার গাংচিল এলাকার মৃত মোহাম্মদ হোসেনের ছেলে। সে ৮নং ওয়ার্ডের বর্তমান ইউপি সদস্য।

পুলিশ জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কোম্পানীগঞ্জ থানার পুলিশ পরিদর্শক রবিউল হকের নেতৃত্বে ঘোষবাগ ইউনিয়নের নতুন শাহজীরহাট এলাকায় অভিযান চালানো হয়। এ সময় ব্যবসায়ী রাশেদ রানা হত্যা মামলার প্রধান আসামি মোজাম্মেল মেম্বারকে গ্রেফতার করা হয়। পরে গাংচিল এলাকায় অভিযান চালিয়ে মোজাম্মেল বাহিনীর সক্রিয় সদস্য ও তার ভাতিজা আজদকে গ্রেফতার করা হয়ে।

কোম্পানীগঞ্জ থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত)রবিউল হক বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, মোজাম্মেল মেম্বারের বিরুদ্ধে হত্যা, ধর্ষণ, ডাকাতি, লুট ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে ২৪টির বেশি মামলা রয়েছে। শনিবার দুপুরে গ্রেফতারকৃতদের নোয়াখালী জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে। 

গত ৯ মে শনিবার কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার চরএলাহী ইউনিয়নের কিল্লার বাজারের অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে তুলে নিয়ে রাশেদ রানা (৩৫) নামে একজন ব্যবসায়ীকে পিটিয়ে, কুপিয়ে হত্যা করে মোজাম্মেল ও তার লোকজন। এ ঘটনায় ১১ মে নিহতের স্ত্রী বাদী হয়ে মোজাম্মেল মেম্বারকে প্রধান আসামি করে একটি হত্যা মামলা করেন। এ দুজনসহ মামলার মোট ৫ আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন