হাজীগঞ্জে সবজি বিক্রেতাকে হত্যা করে গলায় পাথর বেঁধে নদীতে ফেলে দেয় দুর্বৃত্তরা

  হাজীগঞ্জ (চাঁদপুর) প্রতিনিধি  ৩০ মে ২০২০, ২২:৪৭:৩৬ | অনলাইন সংস্করণ

হাজীগঞ্জে নিহত সেই অজ্ঞাত ব্যক্তির পরিচয় পাওয়া গেছে। তিনি সবজি বিক্রেতা সেকান্তর বেপারী। তার গলায় পাথরের বস্তা বেঁধে ডাকাতিয়া নদীতে ফেলে দেয় দুর্বৃত্তরা।

নিহত সেকান্দার বেপারী উপজেলার হাটিলা পশ্চিম ইউনিয়নের কাঁঠালি দীঘিরপাড় গ্রামের বেপারীবাড়ির মরহুম সুজত আলী বেপারীর ছেলে। তিনি গত বৃহস্পতিবার বিকাল থেকে নিখোঁজ ছিলেন।

হাজীগঞ্জ থানার ওসি (তদন্ত) আবদুর রশিদ যুগান্তরকে জানান,শনিবার বিকালে ডাকাতিয়া নদীতে মরদেহ ভাসতে দেখে হাজীগঞ্জ থানা পুলিশকে খবর দেয় স্থানীয়রা। পরে থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার করে থানা হেফাজতে নিয়ে যায়।

উদ্ধার করার সময় মরদেহের গলায় ইট বা পাথর বোঝাই একটি ব্যাগ ঝুলানো ছিল। ধারণা করা হচ্ছে,নিখোঁজের দিন দুর্বত্তরা তাকে নির্মমভাবে হত্যা করে গলায় বস্তা বেঁধে লাশ নদীতে ফেলে দেয়।

নিহতের ভাতিজা ইমান হোসেন যুগান্তরকে বলেন, জেঠা (সেকান্দর বেপারী) গত বৃহস্পতিবার হাজীগঞ্জ বাজারের উদ্দেশে ঘর থেকে বের হয়ে নিখোঁজ হন। তিনি বাড়ি বাড়ি গিয়ে কাঁচামাল (শাক-সবজি) বিক্রি করতেন।

তিনি আরও জানান, তার কোনো শত্রু নেই। এমনকি কারো সঙ্গে ঝগড়া-বিবাদও নেই। তার এক মেয়ে,মেয়ের জামাইসহ নাতি-নাতনি রয়েছে। তিনি নিজ বাড়িতেই বসবাস করতেন।

হাজীগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. আলমগীর হোসেন রনি যুগান্তরকে বলেন,মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য চাঁদপুর সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। কে বা কারা তাকে হত্যা করেছে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত