কাপাসিয়ায় নারী খুন, যুবক গ্রেফতার

  কাপাসিয়া (গাজীপুর) প্রতিনিধি ০৩ জুন ২০২০, ২৩:৩১:৩১ | অনলাইন সংস্করণ

গাজীপুরের কাপাসিয়া সদরের কলেজ রোডের হরিমঞ্জুরী বালিকা বিদ্যালয়ের সামনে এক বাসায় পারভীন আক্তার (৩৮) নামে এক কর্মী খুন হয়েছেন।

বুধবার দুপুরে পুলিশ ওই বাসার গৃহকর্তা হাফিজুর রহমান টিটুর দোতলার শয়ন কক্ষ থেকে ওই নারীর লাশ উদ্ধার করেছে। খুনের অভিযোগে মৃত কফিল উদ্দিনের পুত্র টিটুকে (৪৩) গ্রেফতার এবং তার বাসা থেকে দেশীয় বিভিন্ন অস্ত্র উদ্ধার করে।

জানা গেছে, উপজেলার রায়েদ ইউনিয়নের মাহতাবপুর গ্রামের সুবেদ আলীর মেয়ে পারভীনের বিয়ে হয়েছিল তরগাঁও ইউনিয়নের বাঘিয়া চিনাডুলি গ্রামের আবদুর রশিদের সঙ্গে। দাম্পত্য কলহের কারণে তাদের মধ্যে বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটলে বিগত বেশ কয়েক বছর যাবত পারভীন সদর ইউনিয়নের জামিরার চর গ্রামে ভাড়া বাসায় বসবাস করত। এরই মাঝে অবিবাহিত বখাটে যুবক টিটুর সঙ্গে তার পরিচয় হলে টিটুর বাড়িতে তার যাতায়াত শুরু হয়।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক টিটুর একাধিক প্রতিবেশী জানান, টিটুর দ্বিতল বাড়িতে অন্য কেউ না থাকায় প্রায়ই নেশার আসর বসত এবং সেখানে পারভীন তাদের মনোরঞ্জন করত। এ নিয়ে স্থানীয় ইউনিয়ন চেয়ারম্যান কার্যালয়ে এবং কাপাসিয়া থানায় একাধিকবার অভিযোগ করা হলে টিটুকে গ্রেফতারও করা হয়েছিল।

গত মঙ্গলবার গভীর রাতে টিটুর বাড়িতে পারভীন ও টিটুর মাঝে ঝগড়া বিবাদের উচ্চ শব্দ তারা শুনতে পেয়েছিলেন বলেও জানান। পরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ টিটুর বাড়িতে অভিযান চালিয়ে তার শয়ন কক্ষ থেকে পারভীনের লাশ উদ্ধার করে। নিহত পারভীন ২ ছেলে ও ১ মেয়ের জননী।

কাপাসিয়া থানার ওসি মো. রফিকুল ইসলাম জানান, লোহার রড জাতীয় কিছু দিয়ে পারভীনের মাথায় আঘাতে থেঁতলে ও বুকে ছোরা দিয়ে কাটার চিহ্ন রয়েছে এবং এতে প্রচুর রক্তক্ষরণ হয়েছিল। লাশ ময়না তদন্তের জন্য গাজীপুর পাঠানো হয়েছে।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত