চাঁদপুরে মাদকের টাকার ভাগাভাগির বলি নিরীহ পথচারী

  চাঁদপুর প্রতিনিধি ৩০ জুন ২০২০, ১৯:৪১:৩২ | অনলাইন সংস্করণ

চাঁদপুরে মাদক বিক্রির ভাগাভাগি ও এলাকার আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দুটি সন্ত্রাসী গ্রুপের সংঘর্ষে শামিম গাজী (২৪) নামের এক নিরীহ পথচারী নিহত হয়েছেন। মঙ্গলবার সকাল ৭টায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তিনি মারা যান।

এর আগে সোমবার রাতে চাঁদপুর পুরানবাজার সুইপার কলোনি মোড়ে (মেয়র সড়ক) স্থানীয় দুই গ্রুপের মধ্যকার সংঘর্ষের সময় কর্মস্থল থেকে বাসায় ফেরার পথে তার ওপর হামলা করা হয়। পরে গুরুতর আহত অবস্থায় রাতেই প্রথমে চাঁদপুর জেলা হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখান থেকে রেফার করা হলে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পর মঙ্গলবার সকালে তার মৃত্যু হয়।

নিহত শামিম গাজী পুরানবাজার মধ্যশ্রীরামদি এলাকার তাজু সর্দারের ছেলে। তিনি চাঁদপুরের হোটেল গ্র্যান্ড হিলশায় রিসিপশনে চাকরি করতেন এবং করোনার চিকিৎসকদের হোটেল সেবা দিতেন। দাম্পত্যজীবনে তিনি লামিম নামের ৯ মাসের এক কন্যা সন্তানের জনক।

পুলিশ ও এলাকা সূত্রে জানা যায়, গত ২৭ এপ্রিল পুরানবাজার ১নং ওয়ার্ড যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জহির খানের সঙ্গে মাদক বিক্রির টাকা ভাগ নিয়ে স্থানীয় চিহ্নিত মাদক বিক্রেতা হেলালের ঝগড়া হয়। পরে হেলালের পক্ষে রাসেল এবং জহির গ্রুপের সঙ্গে সংঘর্ষ হয়। এতে জহির গ্রুপের সবুজ খান (২৪) নামের এক যুবককে কুপিয়ে আহত করা হয়। পরে রাসেল গ্রুপের কালু হিজড়াকে পেয়ে তাকে মারধর করে জহির গ্রুপ।

মূলত ওই ঘটনার রেশ ধরেই সোমবার সন্ধ্যায় এ দুটি সন্ত্রাসী গ্রুপের মধ্যে তুমূল মারামারি হয়। যার বলি হয় নিরীহ হোটেল কর্মচারী শামিম।

নিহত শামিমের পিতা তাজুল সর্দার বলেন, আমার ছেলে হোটেল গ্র্যান্ড হিলশায় রিসিপশনে চাকরি করত। প্রতিদিন সকালে ৮টায় কাজে যায় আবার রাত সাড়ে ৮টায় বাড়ি ফিরে আসে। দুপুরের খাবার নিয়ে যায়। ঘটনার রাতে টিফিন ক্যারিয়ার হাতে সে হোটেল থেকে ফিরছিল।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, সোমবার রাত সাড়ে ৮টা থেকে ১০টা পর্যন্ত ম্যারকাটিজ রোড এবং মধ্য শ্রীরামদী কবরস্থান এলাকায় দুই গ্রুপ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে।

এ সময় দুই পক্ষ ধারাল অস্ত্র টর্চলাইট নিয়ে একে অপরকে ধাওয়া করে এবং বৃষ্টির মতো কাঁচের বোতল ও ইটপাটকেল নিক্ষেপ করতে থাকে। এ সময় ওসমানিয়া মাদ্রাসা ও সুইপার কলোনি এলাকাটি রণক্ষেত্রে পরিণত হয়। এ ঘটনায় আশপাশের বেশকিছু দোকানপাট ও বাড়িঘর এবং অটোবাইক হামলার শিকার হয় বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়।

খবর পেয়ে ওসি নাসিম উদ্দিনের নেতৃত্বে চাঁদপুর মডেল থানা পুলিশ এবং ইন্সপেক্টর মো. মাসুদের নেতৃত্বে পুরানবাজার ফাঁড়ি পুলিশ ফোর্স ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে টিয়ারশেল ও রাবার বুলেট ছুড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেন।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সদর সার্কেল জাহিদ পারভেজ জানান, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এবং শান্ত রয়েছে। অপরাধীদের ধরার জন্য ডিবি, থানা ও ফাঁড়ি পুলিশ তৎপর রয়েছে। সেখানে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত