ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিপক্ষের হামলায় ২ জন নিহত
jugantor
ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিপক্ষের হামলায় ২ জন নিহত

  ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি  

০১ জুলাই ২০২০, ০৮:৩৯:০১  |  অনলাইন সংস্করণ

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিপক্ষের হামলায় ২ জন নিহত

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় পৃথক ঘটনায় শুভ হোসেন (১৭) ও শিশু মিয়া (৬০) নামে দুজন নিহত হয়েছেন।

মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে প্রতিপক্ষের হামলায় ও সংঘর্ষে ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরশহরের বণিকপাড়া ও সদর উপজেলার মজলিশপুর ইউনিয়নের আনন্দপুর গ্রামের এ ঘটনা ঘটে।

নিহত শুভ শহরের কান্দিপাড়া এলাকার মকবুল হোসেনের ছেলে ও শিশু মিয়া আনন্দপুর গ্রামের মৃত কফিল উদ্দিনের ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, শহরের নয়নপুর এলাকার তুষার নামে এক তরুণের সঙ্গে শুভর বোনের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। এ নিয়ে কয়েক মাস আগে শুভর সঙ্গে তুষারের কথা কাটাকাটি হয়।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় শহরের বণিকপাড়া এলাকায় আবারও শুভর সঙ্গে তুষারের কথা কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে শুভকে ছুরিকাঘাত করে তুষার ও তার বন্ধু প্রান্ত মালাকার।

পরে গুরুতর আহতাবস্থায় শুভকে উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে ঢাকায় স্থানান্তর করেন। পরে শুভকে ঢাকায় নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

অন্যদিকে দীর্ঘদিন ধরে বাড়ির জায়গা নিয়ে সদর উপজেলার মজলিশপুর ইউনিয়নের আনন্দপুর গ্রামের শিশু মিয়ার সঙ্গে তার প্রতিবেশী উজ্জ্বল মিয়ার বিরোধ চলে আসছিল।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বাড়ির পাশের জমির মাটি কাটা নিয়ে উজ্জ্বল মিয়ার সঙ্গে শিশু মিয়ার কথা কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে উভয়পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষে শিশু মিয়া টেঁটাবিদ্ধ হন। এ ঘটনায় আহত হন আরও দুজন। পরে শিশু মিয়াকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎক মৃত ঘোষণা করেন।

এ ব্যাপারে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানার ওসি মুহাম্মদ সেলিম উদ্দিন জানান, শুভ খুনের ঘটনায় জড়িত তুষার ও প্রান্তকে আটক করা হয়েছে। আর শিশু মিয়া খুনের ঘটনায় জড়িত উজ্জ্বলসহ বাকিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিপক্ষের হামলায় ২ জন নিহত

 ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি 
০১ জুলাই ২০২০, ০৮:৩৯ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিপক্ষের হামলায় ২ জন নিহত
ফাইল ছবি

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় পৃথক ঘটনায় শুভ হোসেন (১৭) ও শিশু মিয়া (৬০) নামে দুজন নিহত হয়েছেন।

মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে প্রতিপক্ষের হামলায় ও সংঘর্ষে ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরশহরের বণিকপাড়া ও সদর উপজেলার মজলিশপুর ইউনিয়নের আনন্দপুর গ্রামের এ ঘটনা ঘটে।

নিহত শুভ শহরের কান্দিপাড়া এলাকার মকবুল হোসেনের ছেলে ও শিশু মিয়া আনন্দপুর গ্রামের মৃত কফিল উদ্দিনের ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, শহরের নয়নপুর এলাকার তুষার নামে এক তরুণের সঙ্গে শুভর বোনের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। এ নিয়ে কয়েক মাস আগে শুভর সঙ্গে তুষারের কথা কাটাকাটি হয়।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় শহরের বণিকপাড়া এলাকায় আবারও শুভর সঙ্গে তুষারের কথা কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে শুভকে ছুরিকাঘাত করে তুষার ও তার বন্ধু প্রান্ত মালাকার।

পরে গুরুতর আহতাবস্থায় শুভকে উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে ঢাকায় স্থানান্তর করেন। পরে শুভকে ঢাকায় নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

অন্যদিকে দীর্ঘদিন ধরে বাড়ির জায়গা নিয়ে সদর উপজেলার মজলিশপুর ইউনিয়নের আনন্দপুর গ্রামের শিশু মিয়ার সঙ্গে তার প্রতিবেশী উজ্জ্বল মিয়ার বিরোধ চলে আসছিল।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বাড়ির পাশের জমির মাটি কাটা নিয়ে উজ্জ্বল মিয়ার সঙ্গে শিশু মিয়ার কথা কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে উভয়পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষে শিশু মিয়া টেঁটাবিদ্ধ হন। এ ঘটনায় আহত হন আরও দুজন। পরে শিশু মিয়াকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎক মৃত ঘোষণা করেন।

এ ব্যাপারে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানার ওসি মুহাম্মদ সেলিম উদ্দিন জানান, শুভ খুনের ঘটনায় জড়িত তুষার ও প্রান্তকে আটক করা হয়েছে। আর শিশু মিয়া খুনের ঘটনায় জড়িত উজ্জ্বলসহ বাকিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন