মৌলভীবাজারে শিক্ষানবীশ আইনজীবীদের মানববন্ধন

  যুগান্তর রিপোর্ট ০১ জুলাই ২০২০, ১৬:০৭:৫৩ | অনলাইন সংস্করণ

মৌলভীবাজারে বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের আইনজীবী হিসেবে তালিকাভুক্তির দাবিতে শিক্ষানবীশ আইনজীবীরা মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছেন।


মঙ্গলবার দুপুরে মৌলভীবাজার প্রেসক্লাবের সামনে মৌলভীবাজারের শিক্ষানবীশ আইনজীবী সমন্বয়ক তানিম আফজালের সভাপতিত্বে অর্ধ শতাধিক শিক্ষানবীশ আনজীবী সারা দেশের মানববন্ধন কর্মসূচির সঙ্গে একাত্বতা ঘোষণা করে এ কর্মসূচি পালন করেন।


এসময় তারা লিখিত বক্তব্যে দাবি উত্থাপন করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সহায়তা কামনা করেন। লিখিত বক্তব্যে তারা উল্লেখ করেন, তাদের মধ্যে এমন শিক্ষানবীশ আইনজীবী রয়েছেন যারা আইন বিষয়ে ডিগ্রী অর্জন করলেও বিগত ৫ বছর ধরে সিনিয়র আনজীবীদের সাহচর্যে থেকে স্বল্প পারিশ্রমিকের বিনিময়ে জনগণকে আইনি সহায়তা দিয়ে আসছেন।

কিন্তু বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের নিবন্ধন না থাকায় তারা আর্থিক, মানবিক ও আইনগত অধিকার হতে বঞ্চিত হচ্ছেন।


তারা আরও উল্লেখ করেন, ২০১২ সালের আগে বার কাউন্সিলে বছরে দুইবার নিবন্ধন পরীক্ষা নেয়া হতো। কিন্তু বর্তমানে পরীক্ষা পদ্ধতির পরিবর্তনের কারণে পরিক্ষার শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত ২/৩ বছর চলে যায়।

আবার প্রতি ৩/৪ বছর পর পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হওয়ায় আইনজীবী হিসেবে স্বীকৃতি পেতে তাদের জীবনের অনেক মূল্যবান সময় নষ্ট হচ্ছে। অনেকেই এই পেশায় প্রতিষ্ঠিত হওয়ার আগেই হারিয়ে যান বলে তারা উল্লেখ করেন।


বক্তারা প্রধানমন্ত্রীকে মা সম্বোধন করে বলেন, ২০২০ সালে অনুষ্ঠিত তালিকাভূক্তির এমসিকিউ পরিক্ষায় তীব্র প্রতিযোগিতার মাধমে মাত্র ১৩ শতাংশ পাস করেছেন। এর লিখিত পরিক্ষা চলতি বছরের মার্চ-এপ্রিল মাসের মধ্যে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু করোনা পরিস্থিতির কারণে তা আর সম্ভব হয়নি।


এতে আরও বক্তব্য রাখেন, শিক্ষানবীশ আইনজীবী ভাস্কর পুরকায়স্ত, সুজন বিশ্বাস, মিনহাজুল ইসলাম, জামাল আহমেদ, ওয়াহিদুল ইসলাম, এমএস বাবুল, লিংকন শাহ, পংকজ দেব, তপন দেব, সোফায়েল খাঁন, রিংকু চত্রুবর্তী প্রমুখ।

এসময় সভাপতির বক্তব্যে শিক্ষানবীশ আইনজীবী মৌলভীবাজারের সমন্বয়ক তানিম আফজাল বলেন, বাংলাদেশের সর্বোচ্চ আদালতের নির্দেশনা রয়েছে প্রতি বছর পরীক্ষার সম্পূর্ণ প্রত্রিুয়া সম্পন্ন করার।

কিন্তু বার কাউন্সিল এই নির্দেশনা মানছেন না। ফলে তারা বছরের পর বছর অপেক্ষার প্রহর গুনছেন। তিনি এসময় ২০১৭ ও ২০২০ সালের এমসিকিউ ( প্রিলি) উত্তীর্ণ শিক্ষানবীশ আইনজীবীদের গেজেট প্রকাশ করে তালিকাভুক্ত করার দাবি জানান।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত