মেঘনায় ২ লঞ্চের সংঘর্ষ, অল্পের জন্য রক্ষা পেলেন সহস্রাধিক যাত্রী

  বাউফল (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি ০৭ জুলাই ২০২০, ১০:০০:৪৭ | অনলাইন সংস্করণ

ছবি: যুগান্তর

মেঘনায় দুই যাত্রীবাহী লঞ্চের সংঘর্ষ হলেও প্রাণে বেঁচে গেছেন সহস্রাধিক যাত্রী।

সোমবার মধ্যরাতে মেঘনা নদীর মিয়ারচর এলাকায় এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে দুটি লঞ্চের সামনে আংশিক ক্ষতি হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, ঢাকা-কালাইয়া রুটে বন্ধন-৫ ও ঢাকা-গলাচিপা রুটে পূবালী-৫ যাত্রীবাহী লঞ্চ চলাচল করে।

সোমবার বিকালে যাত্রী নিয়ে বন্ধন-৫ ঢাকা থেকে ছেড়ে আসে আর পূবালী-৫ গলাচিপা থেকে ঢাকার উদ্দেশে ছেড়ে যায়। রাত ১২টার দিকে দুটি লঞ্চ মেঘনা নদীর মিয়ারচর চ্যালেন অতিক্রম করার সময় মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। ঘটনার সময় দুই লঞ্চে সহস্রাধিক যাত্রী ছিল।

সংঘর্ষে দুটি লঞ্চের সামনের অংশ আংশিক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

বন্ধন-৫ লঞ্চের যাত্রী রুহুল আমিন বলেন, মাঝরাতে বিকট শব্দে ঘুম ভেঙে যায় সব যাত্রীর। সবাই আতঙ্কিত হয়ে পড়েন। মহান আল্লাহর ইচ্ছায় এবার বেঁচে গেলাম।

পূবালী-৫ লঞ্চের পরিদর্শক আবদুস সোবহান বলেন, ওই চ্যানেলে সাধারণত কম গতিতে আমরা লঞ্চ চালাই। কিন্তু দ্রুতগতিতে অতিক্রম করছিল বন্ধন-৫ লঞ্চটি। বারবার সিগন্যাল দেয়ার পরও বন্ধন-৫ নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলায় সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে।

তবে অভিযোগ অস্বীকার করে বন্ধন-৫ লঞ্চের পরিদর্শক শাহজাহান হাওলাদার বলেন, রঙ সাইড দিয়ে পূবালী-৫ লঞ্চটি ওই চ্যালেন অতিক্রম করার সময় সংঘর্ষ হয়। এতে আমাদের কোনো ত্রুটি ছিল না। ঘটনার পর দুটি লঞ্চ গন্তব্যের উদ্দেশ্যে চলে যায়।

মঙ্গলবার ভোরে বন্ধন-৫ কালাইয়াঘাটে এবং পূবালী-৫ ঢাকা সদরঘাটে যাত্রীদের পৌঁছে দেয়।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত