চুলা জ্বালানোর সময় বিস্ফোরণে প্রাণ গেল বাবা-ছেলের
jugantor
চুলা জ্বালানোর সময় বিস্ফোরণে প্রাণ গেল বাবা-ছেলের

  আশুলিয়া (ঢাকা) প্রতিনিধি  

০৮ জুলাই ২০২০, ১৫:০৩:০৯  |  অনলাইন সংস্করণ

চুলা জ্বালানোর সময় বিস্ফোরণে প্রাণ গেল বাবা-ছেলের

সাভারের আশুলিয়ায় একটি বাড়িতে গ্যাসের চুলা জ্বালানোর সময় বিস্ফোরণে বাবা ও ছেলের মৃত্যু হয়েছে। ওই বাড়িটির গ্যাস সংযোগ অবৈধ ছিল বলে জানা গেছে।

এ ঘটনা ৫ জুলাই আশুলিয়ার দুর্গাপুর পূর্বচালা এলাকায় মামুনের ভাড়া বাড়িতে ঘটলেও বাড়িওয়ালা তা গোপন রাখার চেষ্টা করেন। তবে বুধবার স্থানীয়রা বিষয়টি জানতে পারেন।

এলাকাবাসী জানায়, গত ৫ জুলাই সকালে মামুনের ভাড়া বাড়ির একটি কক্ষে গ্যাসের চুলা জ্বালানোর সময় বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। এতে ঘরে আগুন ধরে যায়। এসময় আগুনে দগ্ধ হয়ে স্বামী, স্ত্রী ও ছয় বছরের ছেলে গুরুতর আহত হয়।

তাদের উদ্ধার করে সাভার এনাম মেডিকেল কলেজ এন্ড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন থেকে স্বামী ও স্ত্রীর মৃত্যু হয়। পরে ওই বাড়িওয়ালা বিষয়টি গোপন করে পুলিশকে না জানিয়ে তাদের মরদেহ ময়মনসিংহ জেলায় পাঠিয়ে দেন।

পরে বিষয়টি বুধবার সকালে এলাকাবাসী আশুলিয়া থানা পুলিশ ও স্থানীয় প্রশাসনকে জানায়।

এ বিষয়ে আশুলিয়া ওসি শেখ রিজাউল হক দিপু বলেন, বিষয়টি শুনে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠাই। এ ব্যাপারে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

চুলা জ্বালানোর সময় বিস্ফোরণে প্রাণ গেল বাবা-ছেলের

 আশুলিয়া (ঢাকা) প্রতিনিধি 
০৮ জুলাই ২০২০, ০৩:০৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
চুলা জ্বালানোর সময় বিস্ফোরণে প্রাণ গেল বাবা-ছেলের
ফাইল ছবি

সাভারের আশুলিয়ায় একটি বাড়িতে গ্যাসের চুলা জ্বালানোর সময় বিস্ফোরণে বাবা ও ছেলের মৃত্যু হয়েছে। ওই বাড়িটির গ্যাস সংযোগ অবৈধ ছিল বলে জানা গেছে।

এ ঘটনা ৫ জুলাই আশুলিয়ার দুর্গাপুর পূর্বচালা এলাকায় মামুনের ভাড়া বাড়িতে ঘটলেও বাড়িওয়ালা তা গোপন রাখার চেষ্টা করেন। তবে বুধবার স্থানীয়রা বিষয়টি জানতে পারেন।

এলাকাবাসী জানায়, গত ৫ জুলাই সকালে মামুনের ভাড়া বাড়ির একটি কক্ষে গ্যাসের চুলা জ্বালানোর সময় বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। এতে ঘরে আগুন ধরে যায়। এসময় আগুনে দগ্ধ হয়ে স্বামী, স্ত্রী ও ছয় বছরের ছেলে গুরুতর আহত হয়।

তাদের উদ্ধার করে সাভার এনাম মেডিকেল কলেজ এন্ড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন থেকে স্বামী ও স্ত্রীর মৃত্যু হয়। পরে ওই বাড়িওয়ালা বিষয়টি গোপন করে পুলিশকে না জানিয়ে তাদের মরদেহ ময়মনসিংহ জেলায় পাঠিয়ে দেন।

পরে বিষয়টি বুধবার সকালে এলাকাবাসী আশুলিয়া থানা পুলিশ ও স্থানীয় প্রশাসনকে জানায়।

এ বিষয়ে আশুলিয়া ওসি শেখ রিজাউল হক দিপু বলেন, বিষয়টি শুনে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠাই।  এ ব্যাপারে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন