কেরানীগঞ্জে সিএনজি-মোটরসাইকেল সংঘর্ষে পুলিশ সদস্য নিহত
jugantor
কেরানীগঞ্জে সিএনজি-মোটরসাইকেল সংঘর্ষে পুলিশ সদস্য নিহত

  কেরানীগঞ্জ (ঢাকা) প্রতিনিধি  

১১ জুলাই ২০২০, ২০:৩৬:২৩  |  অনলাইন সংস্করণ

কেরানীগঞ্জে ঢাকা-নবাবগঞ্জ সড়কের সোনাকান্দা এলাকায় সিএনজি ও মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে খায়রুল ইসলাম (২৬) নামে পুলিশের এক কনস্টেবল নিহত হয়েছেন।


শনিবার দুপুর ১টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় মাসুদ রানা (২২) নামে অরেক কনস্টেবল গুরুতর আহত হয়েছেন। তার মুখের চোয়াল ভেঙ্গে গেছে। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে রাজধানীর সরকারি ডেন্টাল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।


কেরানীগঞ্জ মডেল থানার পরিদর্শক (অপারেশন) আসাদুজ্জামান টিটু জানান, নিহত এবং আহত দুজনই কেরানীগঞ্জ মডেল থানাধীন সোনাকান্দা পুলিশ ফাঁড়ির কনস্টেবল।


শনিবার দুপুরে দুজন মোটরসাইকেলে চড়ে সরকারি ডাক (চিঠিপত্র) নিয়ে ঢাকায় মিলব্যারাক যাচ্ছিলেন। মোটরসাইকেল চালাচ্ছিলেন খায়রুল ইসলাম, তার পেছনে বসা ছিলেন মাসুদ রানা।

ফাঁড়ি থেকে রওনা দিয়ে ১০০ গজ যাওয়ার পরই বিপরীত দিক থেকে আসা একটি সিএনজি পুলিশের মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দিয়ে পালিয়ে যায়।

এসময় পাকা সড়কে ছিটকে পড়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান খায়রুল ইসলাম। গুরুতর আহত হন মাসুদ রানা। তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।


নিহত খায়রুল ইসলামের গ্রামের বাড়ি মুন্সিগঞ্জ জেলার সিরাজদিখান উপজেলার আরমোহন গ্রামে। তার বাবার নাম শাহজাহান শেখ।

কেরানীগঞ্জে সিএনজি-মোটরসাইকেল সংঘর্ষে পুলিশ সদস্য নিহত

 কেরানীগঞ্জ (ঢাকা) প্রতিনিধি 
১১ জুলাই ২০২০, ০৮:৩৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

কেরানীগঞ্জে ঢাকা-নবাবগঞ্জ সড়কের সোনাকান্দা এলাকায় সিএনজি ও মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে খায়রুল ইসলাম (২৬) নামে পুলিশের এক কনস্টেবল নিহত হয়েছেন। 


শনিবার দুপুর ১টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় মাসুদ রানা (২২) নামে অরেক কনস্টেবল গুরুতর আহত হয়েছেন। তার মুখের চোয়াল ভেঙ্গে গেছে। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে রাজধানীর সরকারি ডেন্টাল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। 


কেরানীগঞ্জ মডেল থানার পরিদর্শক (অপারেশন) আসাদুজ্জামান টিটু জানান, নিহত এবং আহত দুজনই কেরানীগঞ্জ মডেল থানাধীন সোনাকান্দা পুলিশ ফাঁড়ির কনস্টেবল। 


শনিবার দুপুরে দুজন মোটরসাইকেলে চড়ে সরকারি ডাক (চিঠিপত্র) নিয়ে ঢাকায় মিলব্যারাক যাচ্ছিলেন। মোটরসাইকেল চালাচ্ছিলেন খায়রুল ইসলাম, তার পেছনে বসা ছিলেন মাসুদ রানা। 

ফাঁড়ি থেকে রওনা দিয়ে ১০০ গজ যাওয়ার পরই বিপরীত দিক থেকে আসা একটি সিএনজি পুলিশের মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দিয়ে পালিয়ে যায়। 

এসময় পাকা সড়কে ছিটকে পড়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান খায়রুল ইসলাম। গুরুতর আহত হন মাসুদ রানা। তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।


নিহত খায়রুল ইসলামের গ্রামের বাড়ি মুন্সিগঞ্জ জেলার সিরাজদিখান উপজেলার আরমোহন গ্রামে। তার বাবার নাম শাহজাহান শেখ। 

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন