মুরাদনগরে ইউপি সদস্যের অনিয়মের বিরুদ্ধে চেয়ারম্যানের প্রতিবাদ সভা
jugantor
মুরাদনগরে ইউপি সদস্যের অনিয়মের বিরুদ্ধে চেয়ারম্যানের প্রতিবাদ সভা

  মুরাদনগর (কুমিল্লা) প্রতিনিধি  

১২ জুলাই ২০২০, ২৩:০৪:৪৬  |  অনলাইন সংস্করণ

কুমিল্লার মুরাদনগরে টনকি ইউপির ৪নং ওয়ার্ডের মজিবুর রহমানের বিরুদ্ধে নানা অনিয়ম এবং শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগ এনে প্রতিবাদ সভা করেছেন ওই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জাকির হোসেন ও এলাকাবাসী।

রোববার বিকালে এ নিয়ে টনকি ইউনিয়ন পরিষদে এক প্রতিবাদ সভার আয়োজন করা হয়।

সভায় ইউপি চেয়ারম্যান জাকির হোসেন জানান, ওই ইউপির ৪নং ওয়ার্ডের সদস্য মজিবুর রহমান দীর্ঘদিন যাবৎ পরিষদের সাধারণ সভা কিংবা কোনো প্রকার উন্নয়ন কর্মকাণ্ডে অংশগ্রহণ করছেন না। এলাকার নাগরিকদেরকে কোনো প্রকার সেবাও প্রদান করছেন না। এলাকার লোকজনের অভিযোগের প্রেক্ষিতে বিষয়টি নিয়ে তাকে জিজ্ঞাসা করা হলে সে উল্টো আমার বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন এবং জেলা প্রশাসকের নিকট স্মারকলিপি প্রদান করেন।

রোববার রেজুলেশনে স্বাক্ষর করে ইউপি চেয়ারম্যানসহ সব সদস্যরা তার অপসারণ এবং মিথ্যা অপপ্রচারসহ প্রদত্ত স্মারকলিপির প্রতিবাদ করেন।

এ সময় বক্তব্য রাখেন ইউপি সদস্য শিরিন আক্তার, নার্গিস বেগম, মোর্শেদা বেগম, মো. কাউছার, জসিম উদ্দিনসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

তবে এ সব অভিযোগ অস্বীকার করে ইউপি সদস্য মজিবুর রহমান বলেন, স্বেচ্ছাচারিতার অভিযোগ করায় চেয়ারম্যানসহ অন্য সদস্যরা আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছে। আমি নিয়মিতই এলাকার সব উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডসহ জনসেবার কাজ চালিয়ে যাচ্ছি।

মুরাদনগরে ইউপি সদস্যের অনিয়মের বিরুদ্ধে চেয়ারম্যানের প্রতিবাদ সভা

 মুরাদনগর (কুমিল্লা) প্রতিনিধি 
১২ জুলাই ২০২০, ১১:০৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

কুমিল্লার মুরাদনগরে টনকি ইউপির ৪নং ওয়ার্ডের মজিবুর রহমানের বিরুদ্ধে নানা অনিয়ম এবং শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগ এনে প্রতিবাদ সভা করেছেন ওই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জাকির হোসেন ও এলাকাবাসী।

রোববার বিকালে এ নিয়ে টনকি ইউনিয়ন পরিষদে এক প্রতিবাদ সভার আয়োজন করা হয়।

সভায় ইউপি চেয়ারম্যান জাকির হোসেন জানান, ওই ইউপির ৪নং ওয়ার্ডের সদস্য মজিবুর রহমান দীর্ঘদিন যাবৎ পরিষদের সাধারণ সভা কিংবা কোনো প্রকার উন্নয়ন কর্মকাণ্ডে অংশগ্রহণ করছেন না। এলাকার নাগরিকদেরকে কোনো প্রকার সেবাও প্রদান করছেন না। এলাকার লোকজনের অভিযোগের প্রেক্ষিতে বিষয়টি নিয়ে তাকে জিজ্ঞাসা করা হলে সে উল্টো আমার বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন এবং জেলা প্রশাসকের নিকট স্মারকলিপি প্রদান করেন।

রোববার রেজুলেশনে স্বাক্ষর করে ইউপি চেয়ারম্যানসহ সব সদস্যরা তার অপসারণ এবং মিথ্যা অপপ্রচারসহ প্রদত্ত স্মারকলিপির প্রতিবাদ করেন।

এ সময় বক্তব্য রাখেন ইউপি সদস্য শিরিন আক্তার, নার্গিস বেগম, মোর্শেদা বেগম, মো. কাউছার, জসিম উদ্দিনসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

তবে এ সব অভিযোগ অস্বীকার করে ইউপি সদস্য মজিবুর রহমান বলেন, স্বেচ্ছাচারিতার অভিযোগ করায় চেয়ারম্যানসহ অন্য সদস্যরা আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছে। আমি নিয়মিতই এলাকার সব উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডসহ জনসেবার কাজ চালিয়ে যাচ্ছি।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন