মায়ের ভুলে প্রাণ গেল ১১ মাসের শিশুর
jugantor
মায়ের ভুলে প্রাণ গেল ১১ মাসের শিশুর

  মদন (নেত্রকোনা) প্রতিনিধি  

২৭ জুলাই ২০২০, ২২:৪৮:১৪  |  অনলাইন সংস্করণ

নেত্রকোনার মদনে মায়ের ভুলে জিসান নামের ১১ মাসের এক শিশুর প্রাণ গেল। সে গোলাপ মিয়ার ছেলে। সোমবার বিকালে উপজেলার কাইটাইল ইউনিয়নের দুর্গাশ্রম গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

পারিবার ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত কয়েক দিন ধরে জিসানের পেটে গ্যাস হয়েছে মনে করে বাবা গোলাপ মিয়া কাইটাইল বাজার থেকে গ্যাসের ওষুধ ডোমিন সিরাপ নিয়ে আসেন। কিন্তু এর আগে সবজি ক্ষেতের পোকামাকড় নিধনের জন্য ফেট্রোফস নামক কীটনাশক ঘরে রেখেছিলেন।

জিসান পেটের ব্যথায় ছটফট করতে থাকলে মা জান্নাত আক্তার ভুলবশত ওষুধ বদলে কীটনাশক খাওয়ায় শিশুটিকে। কিছুক্ষণ পরেই জিসান ছটফট করতে থাকলে দ্রুত তাকে মদন হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে তার অবস্থা আশঙ্কাজনক দেখে জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করলে শম্ভুগঞ্জ নামক স্থানে তার মৃত্যু হয়।

মদন থানার ওসি মো. রমিজুল হক জানান, কীটনাশক খেয়ে জিসান নামের এক শিশু মারা যাওয়ার খবর পেয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (খালিয়াজুরি সার্কেল) জামাল উদ্দিনসহ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। শিশুটির লাশ ময়নাতদন্তের জন্য নেত্রকোনা মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

মায়ের ভুলে প্রাণ গেল ১১ মাসের শিশুর

 মদন (নেত্রকোনা) প্রতিনিধি 
২৭ জুলাই ২০২০, ১০:৪৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

নেত্রকোনার মদনে মায়ের ভুলে জিসান নামের ১১ মাসের এক শিশুর প্রাণ গেল। সে গোলাপ মিয়ার ছেলে। সোমবার বিকালে উপজেলার কাইটাইল ইউনিয়নের দুর্গাশ্রম গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
 
পারিবার ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত কয়েক দিন ধরে জিসানের পেটে গ্যাস হয়েছে মনে করে বাবা গোলাপ মিয়া কাইটাইল বাজার থেকে গ্যাসের ওষুধ ডোমিন সিরাপ নিয়ে আসেন। কিন্তু এর আগে সবজি ক্ষেতের পোকামাকড় নিধনের জন্য ফেট্রোফস নামক কীটনাশক ঘরে রেখেছিলেন।

জিসান পেটের ব্যথায় ছটফট করতে থাকলে মা জান্নাত আক্তার ভুলবশত ওষুধ বদলে কীটনাশক খাওয়ায় শিশুটিকে। কিছুক্ষণ পরেই জিসান ছটফট করতে থাকলে দ্রুত তাকে মদন হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে তার অবস্থা আশঙ্কাজনক দেখে জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করলে শম্ভুগঞ্জ নামক স্থানে তার মৃত্যু হয়।

মদন থানার ওসি মো. রমিজুল হক জানান, কীটনাশক খেয়ে জিসান নামের এক শিশু মারা যাওয়ার খবর পেয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (খালিয়াজুরি সার্কেল) জামাল উদ্দিনসহ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। শিশুটির লাশ ময়নাতদন্তের জন্য নেত্রকোনা মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন