বাউফলে শোক দিবসের অনুষ্ঠানে যেতে বাঁধা দেয়ার অভিযোগ
jugantor
বাউফলে শোক দিবসের অনুষ্ঠানে যেতে বাঁধা দেয়ার অভিযোগ

  বাউফল (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি  

১৫ আগস্ট ২০২০, ১৮:২১:৩২  |  অনলাইন সংস্করণ

পটুয়াখালী
পটুয়াখালী

বাউফল উপজেলার কাছিপাড়া ইউনিয়নের কারখানা দারুল ইসলাম আলিম মাদ্রাসার অধ্যক্ষ হাবিবুর রহমানকে জাতীয় শোক দিবসের অনুষ্ঠানে যেতে বাঁধা দেয়ায় অভিযোগ পাওয়া গেছে। সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, পূর্ব বিরোধের জের ধরে মাদ্রাসা ম্যানেজিং কমিটির সাবেক সভাপতি বারেক মৃধা অধ্যক্ষ হাবিবুর রহমানকে শোক দিবসের অনুষ্ঠানে যেতে বাঁধা দেন। এতে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ায় অনুষ্ঠানে আসা শিক্ষার্থী ও শিক্ষকরা বাড়ি চলে যান।

 

মাদ্রাসার অধ্যক্ষ হাবিবুর রহমান বলেন, বেলা ১০টায় মাদ্রাসা মিলনায়তনে আয়োজিত শোক দিবসের অনুষ্ঠানে আমাকে প্রবেশ করতে বাঁধা দেন ম্যানেজিং কমিটির সাবেক সভাপতি বারেক মৃধা। অনুষ্ঠানে এসে তিনি হৈচৈ শুরু করেন। এতে শোক দিবসের কর্মসূচি ব্যাহত হয়েছে।

 

অবশ্য বারেক মৃধা অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, এ ধরনের কোনো ঘটনার সঙ্গে আমি জড়িত নই।

বাউফলে শোক দিবসের অনুষ্ঠানে যেতে বাঁধা দেয়ার অভিযোগ

 বাউফল (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি 
১৫ আগস্ট ২০২০, ০৬:২১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
পটুয়াখালী
পটুয়াখালী

বাউফল উপজেলার কাছিপাড়া ইউনিয়নের কারখানা দারুল ইসলাম আলিম মাদ্রাসার অধ্যক্ষ হাবিবুর রহমানকে জাতীয় শোক দিবসের অনুষ্ঠানে যেতে বাঁধা দেয়ায় অভিযোগ পাওয়া গেছে। সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, পূর্ব বিরোধের জের ধরে মাদ্রাসা ম্যানেজিং কমিটির সাবেক সভাপতি বারেক মৃধা অধ্যক্ষ হাবিবুর রহমানকে শোক দিবসের অনুষ্ঠানে যেতে বাঁধা দেন। এতে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ায় অনুষ্ঠানে আসা শিক্ষার্থী ও শিক্ষকরা বাড়ি চলে যান।

মাদ্রাসার অধ্যক্ষ হাবিবুর রহমান বলেন, বেলা ১০টায় মাদ্রাসা মিলনায়তনে আয়োজিত শোক দিবসের অনুষ্ঠানে আমাকে প্রবেশ করতে বাঁধা দেন ম্যানেজিং কমিটির সাবেক সভাপতি বারেক মৃধা। অনুষ্ঠানে এসে তিনি হৈচৈ শুরু করেন। এতে শোক দিবসের কর্মসূচি ব্যাহত হয়েছে।

অবশ্য বারেক মৃধা অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, এ ধরনের কোনো ঘটনার সঙ্গে আমি জড়িত নই।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন